পিএম কিষান স্কিমে সাড়ে আট কোটি কৃষকের ব্যাঙ্কে ১৭,১০০ কোটি হস্তান্তর: মোদি

পিএম-কিষাণ প্রকল্পে বছরে ছয় হাজার টাকা করে ন্যূনতম আয়ের সংস্থান করা হবে কৃষকদের। কেন্দ্রের তদারকিতে চলবে এই প্রকল্প

এই প্রকল্পের উপলক্ষ্য সফল হয়েছে: প্রধানমন্ত্রী

হাইলাইটস

  • কৃষকদের বার্ষিক ছয় হাজার টাকা আর্থিক অনুদানের লক্ষে এই প্রকল্প
  • গত দু'বছরে এটা ছয় নম্বর কিস্তি
  • ২০১৮ সালে এই প্রকল্পের উদ্বোধন করা হয়েছিল
নয়াদিল্লি:

পিএম-কিষাণ প্রকল্পের (PM-Kisan Scheme) প্রায় সাড়ে আট কোটি কৃষকের অ্যাকাউন্টে টাকা হস্তান্তর করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (PM Modi)। বার্ষিক  ছয় হাজার টাকা আর্থিক অনুদানের লক্ষে রবিবার প্রায় ১৭,১০০ কোটি টাকা ই-ট্রান্সফার করা হয়েছে। ২০১৮ সালে দিনের আলো দেখার পর থেকে এই নিয়ে মোট ছয় কিস্তিতে এই টাকা হস্তান্তর করা হলো। সরাসরি নগদ হস্তান্তরের (Direct Cash Transfer to Account) মাধ্যমে প্রায় ৯০ হাজার কোটি টাকা ১০ কোটি কৃষক পরিবারে পৌঁছে দেওয়া এই প্রকল্পের মূল লক্ষ্য। এদিন এমনটাই জানিয়েছে কৃষি মন্ত্রকের একটি সূত্র।

এই ই-ট্রান্সফার অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, "১৭ হাজার কোটি টাকা সাড়ে আট কোটি কৃষকের ব্যাঙ্কে হস্তান্তর করা হয়েছে। এক ক্লিকেই এই কাজ আমরা করেছি। কোনও মিডলম্যানের উপস্থিতি নেই। পুরো টাকাটা কৃষকদের অ্যাকাউন্টে গিয়েছে। আমি খুশি এই প্রকল্পের উপলক্ষ্য সফল হয়েছে।" এক লক্ষ কোটি টাকার কৃষি পরিকাঠামো তহবিল গঠনেও এদিন উদ্যোগ নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। ভার্চুয়াল এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন দেশের লক্ষাধিক কৃষক, সমবায় ব্যাঙ্কের কর্তারা। এই তহবিলের মূল্য উদ্দেশ্যে কৃষি পরবর্তী পরিকাঠামো উন্নয়নে বিনিয়োগ। যেমন কোল্ড স্টোরেজের আধুনিকীকরণ, প্রক্রিয়াকরণ কেন্দ্র ও কৃষিপণ্য মজুত সংস্থার বহন ক্ষমতা বাড়ানো। এই বিনিয়োগের জেরে আর্থিকভাবে আরও সাবলম্বী হবেন কৃষকরা। কম পণ্য অপচয় করে সঠিক দামে তাঁরা বাজারে বেচতে পারবেন কৃষি দ্রব্য।

এদিকে, পিএম-কিষাণ প্রকল্পে বছরে ছয় হাজার টাকা করে ন্যূনতম আয়ের সংস্থান করা হবে কৃষকদের। কেন্দ্রের তদারকিতে চলবে এই প্রকল্প।