তাজমহলের পার্কিংয়ে গাড়ির সারিতে ফোঁস! উদ্ধার হল ৯ ফুটের প্রকাণ্ড অজগর

আধিকারিকরা জানিয়েছেন, ৯ ফুট দৈর্ঘ্যের একটি ভারতীয় রক পাইথন আগ্রায় তাজমহলের পার্কিংয়ের কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে।

তাজমহলের পার্কিংয়ে গাড়ির সারিতে ফোঁস! উদ্ধার হল ৯ ফুটের প্রকাণ্ড অজগর

পশ্চিমের পার্কিং লটে কাজ করছিলেন ঠিকা শ্রমিকরা, তাঁরাই প্রথম সাপটিকে দেখতে পান।

আগ্রা:

শনিবারের বিকেল...শাহজাহান-মুমতাজের তাজমহলের (Taj Mahal) সামনে তখন কচিকাঁচা থেকে সত্তর আশি সকলের ভিড় ঠাসা। পার্কিংয়ে সার দিয়ে রাখা শয়ে শয়ে গাড়ি। এমন সময় ফোঁস! তাজমহলের পার্কিং ক্ষেত্র থেকে বেরোল প্রকাণ্ড এক অজগর! আধিকারিকরা জানিয়েছেন, ৯ ফুট দৈর্ঘ্যের একটি ভারতীয় রক পাইথন (Indian Rock Python) আগ্রায় তাজমহলের পার্কিংয়ের কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। প্রেমের সৌধে এসে সর্পদর্শন স্বাভাবিকভাবেই আতঙ্কের সৃষ্টি করেছে পর্যটকদের মধ্যে, জানিয়েছেন এক কর্মকর্তা। পশ্চিমের পার্কিং লটে কাজ করছিলেন ঠিকা শ্রমিকরা, তাঁরাই প্রথম সাপটিকে দেখতে পান। কর্তব্যরত পুলিশকর্মীরা তত্ক্ষণাত Wildlife SOS সংস্থার সঙ্গে যোগাযোগ করেন। এই সংস্থার পক্ষ থেকে তড়িঘড়ি সাপটিকে উদ্ধারের জন্য বিশেষজ্ঞদের একটি দল পাঠানো হয়। কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, সাপের এক ঝলক দেখার জন্য ভিড়ে ভিড়াক্কার হয়ে ওঠে ওই চত্বর। এই ভিড়কে পুলিশ হালকা করে দেওয়ার পরেই ওয়াইল্ডলাইফ এসওএস উদ্ধারকারী দল সাপটিকে একটি বাক্সের দিকে নিয়ে যায়। পুরোপুরি পরীক্ষা-নিরীক্ষার পরে অজগরটিকে উপযুক্ত আবাসে ছেড়ে আসা হয়। 

আরও পড়ুনঃ Viral: একটি সাপকে কামড়াচ্ছে অন্য সাপ, হঠাৎ হামলা আরেক আক্রমণকারীর দেখুন ভয়ানক ভিডিও

আগ্রার সাব-ইন্সপেক্টর অশোক কুমার বলেন: “কিছু শ্রমিক বাড়ি গিয়েছিলেন এবং তারা যখন ফিরে আসেন তাদের মধ্যে একজন প্রায় সাপটার গায়ে পা দিতেই যাচ্ছিলেন! ভাগ্যক্রমে, কোনও দুর্ঘটনা ঘটেনি এবং যখন তারা আমাদের সাথে যোগাযোগ করেন, আমরা ওয়াইল্ডলাইফ এসওএস-এর সঙ্গে তক্ষুণি যোগাযোগ করি। তাঁদের প্রতিনিধি এসেছিলেন এবং খুব দ্রুতই সাপটিকে উদ্ধার করেন তাঁরা।

ওয়াইল্ডলাইফ এসওএসের সহ-প্রতিষ্ঠাতা ও সিইও কার্তিক সত্যনারায়ণ বলেন যে, বিশাল সাপটিকে উদ্ধার করা মোটেও সহজ কাজ ছিল না। এর অন্যতম কারণ ব্যাপক পরিমাণে মানুষ সেখানে জড়ো হয়ে যায়, সকলেই এক ঝলক দেখতে চাইছিলেন প্রকাণ্ড সাপটিকে। “আমরা অত্যন্ত কৃতজ্ঞ যে কোনও অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটে যাওয়ার আগেই কর্তৃপক্ষ সময়মতো আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। পুলিশ উত্তেজিত জনতাকে নিয়ন্ত্রণে সহায়তা করেছিল, সেই কারণেই আমাদের দল উদ্ধার অভিযানে বেশি মনোনিবেশ করতে পেরেছিল।"

আরও পড়ুনঃ ৯ ফুট পাইথন গিলে ফেলল বিড়ালকে, তারপর কী হল?

ওয়াইল্ডলাইফ এসওএসের সংরক্ষণ প্রকল্পের পরিচালক, বৈজু রাজ এমভি বলেন, অজগরটি সম্ভবত তাজ নেচার ওয়াক গ্রিন বেল্টের বাইরেই ঘুরে বেড়াতো। এই এলাকাটি বিভিন্ন বন্যপ্রাণির প্রজাতির বাসস্থান। “যদিও বিষাক্ত নয়, তাও অজগরের কামড়ে ক্ষতিকারক আঘাত হতে পারে। সুতরাং এই ধরনের উদ্ধারকাজ চালানোর সময় আমাদের সতর্কতা অবলম্বন করতেই হয়। আমাদের বিশেষ প্রশিক্ষিত উদ্ধারকারীরা রয়েছেন যারা সাপ উদ্ধার পরিচালনায় অভিজ্ঞ।”

Listen to the latest songs, only on JioSaavn.com