রাজ্যে ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্থ অঞ্চলে ফিরলো বিদ্যুৎ পরিষেবা; চালু হবে ফোনও

Cyclone Bulbul: সরকারি বিবৃতিতে এখনও পর্যন্ত পশ্চিমবঙ্গে ৭ জন মানুষের মৃত্যুর কথা বলা হয়েছে, প্রায় এক লক্ষ ঘরবাড়ি ধ্বংস হয়েছে ও ক্ষতি হয়েছে ফসলের

রাজ্যে ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্থ অঞ্চলে ফিরলো বিদ্যুৎ পরিষেবা; চালু হবে ফোনও
কলকাতা:

শনিবার পশ্চিমবঙ্গ ও ওড়িশার উপর ভয়ঙ্কর ভাবে আছড়ে পড়ে ঘূর্ণিঝড় 'বুলবুল'। ওই বিধ্বংসী ঘূর্ণিঝড় (Cyclone Bulbul) আছড়ে পড়ার পর থেকেই রাজ্যের (West Bengal) বিস্তীর্ণ অঞ্চলে বিদ্যুৎ পরিষেবা ব্যাহত হয়ে যায়। সোমবার অন্ধকারে ডুবে থাকা সেইসব অঞ্চলগুলিতে বিদ্যুৎ পরিষেবা পুনরুদ্ধার করা হয়েছে বলে জানা গেছে। শনিবার থেকেই ঝড়ের প্রভাবে বেশ কিছু এলাকায় বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় টেলি যোগাযোগ সংযোগও। প্রশাসনের তরফ থেকে আশ্বাস দেওয়া হয়েছে যে কাজ চলছে, খুব দ্রুতই সেখানে টেলি যোগাযোগ ব্যবস্থাও ফের চালু হবে। মন্ত্রিপরিষদের সচিব রাজীব গৌবার সভাপতিত্বে জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা কমিটির একটি বৈঠকে পশ্চিমবঙ্গ ও ওড়িশায় (Odisha) ঘূর্ণিঝড়ের পরে ত্রাণ ও পুনরুদ্ধারের কাজগুলির বিষয়ে পর্যালোচনা করা হয়। সরকারি বিবৃতিতে পশ্চিমবঙ্গে এখনও পর্যন্ত ৭ জন মানুষের নিহত হওয়ার কথা বলা হয়েছে । পাশাপাশি জানানো হয়েছে যে 'বুলবুল'-এর প্রভাবে প্রায় এক লক্ষ ঘরবাড়ি ধ্বংস হয়েছে ও ফসলের ভালো রকমের ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

'বুলবুল'-কে ঘিরে "কুম্ভিরাশ্রু বিসর্জন" কেন্দ্রের: বললেন মন্ত্রী জাভেদ খান

যদিও ওড়িশা থেকে এখনও কোনও মানুষের হতাহতের খবর না মিললেও দুই লক্ষ হেক্টর জমির ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে বলে খবর। বিবৃতিতে বলা হয়েছে, কয়েকটি অঞ্চল সাময়িক ভাবে বিদ্যুৎ ও জল সরবরাহ বন্ধ থাকলেও বর্তমানে তা ফের চালু করা হয়েছে। 

জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা কমিটির পক্ষ থেকে পশ্চিমবঙ্গ এবং ওড়িশা, দুই রাজ্যেই অতিরিক্ত খাদ্যদ্রব্য, পানীয়জল, স্বাস্থ্যসেবার পাশাপাশি টেলিকম ও বিদ্যুৎ সেবা পুনরুদ্ধারের ক্ষেত্রে সবরকম কেন্দ্রীয় সহায়তার আশ্বাস দেওয়া হয়েছে। জানানো হয়েছে যে, কেন্দ্রীয় দলগুলি এই সপ্তাহেই দুই রাজ্যের ক্ষয়ক্ষতির পরিসংখ্যান নিতে ক্ষতিগ্রস্থ অঞ্চলগুলি পরিদর্শন করবে। যদিও ঘূর্ণিঝড়ের সময় রাজ্যের পাশাপাশি জাতীয় দুর্যোগ মোকাবিলা বাহিনী,  কোস্টগার্ড সহ কেন্দ্রীয় বেশ কিছু সংস্থা উদ্ধার ও ত্রাণকার্যে রাজ্যগুলির সঙ্গে হাত লাগায়।

ঘূর্ণিঝড় "বুলবুল" আছড়ে পড়ায় কতটা ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বাংলার, খতিয়ে দেখবেন মুখ্যমন্ত্রী

স্বরাষ্ট্র, প্রতিরক্ষা, বিদ্যুৎ, টেলিযোগাযোগ, কৃষি ও সহযোগিতা, গ্রাহক পরিষেবা, খাদ্য ও পাবলিক ডিস্ট্রিবিউশন, ফুড প্রসেসিং ইন্ডাস্ট্রিজ, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের উর্ধ্বতন আধিকারিকরা সোমবারের এই বৈঠকে অংশ নিয়েছিলেন। 'বুলবুল'-এর পর্যালোচনা বৈঠকে অংশ নেন এনডিআরএফ এবং জাতীয় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষের আধিকারিকরাও । পশ্চিমবঙ্গ ও ওড়িশার উর্ধ্বতন সরকারি আধিকারিকরা ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ওই পর্যালোচনা বৈঠকে যোগ দেন।



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদনা করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে।)
More News