‘চরিত্র’ নিয়ে সন্দেহ! ১৯ বছরের প্রেমিকার মাথা থেঁতলে মেরে ফেলল প্রেমিক

পুলিশ জানিয়েছে, আশরাফ শেখ খুশিকে হত্যার কথা স্বীকার করেছেন।

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS
‘চরিত্র’ নিয়ে সন্দেহ! ১৯ বছরের প্রেমিকার মাথা থেঁতলে মেরে ফেলল প্রেমিক

নাগপুরের বাসিন্দা খুশি পারিহার ও অভিযুক্ত আশরাফ শেখ


নাগপুর: 

বান্ধবীর ‘চরিত্র খারাপ'! এই সন্দেহেই মহারাষ্ট্রের নাগপুর জেলায় ১৯ বছর বয়সী উঠতি মডেলকে খুন করল প্রেমিক। রাস্তার উপরেই মাথা থেঁতলে দিয়ে ওই তরুণীকে হত্যা করা হয়েছে বলে পুলিশ সূত্রের খবর। নাগপুরের বাসিন্দা মডেল খুশি পারিহার এবং তাঁর প্রেমিক অভিযুক্ত আশরাফ শেখ বেশ কিছুদিন ধরেই প্রেমের সম্পর্কে ছিলেন। যদিও খুশির সঙ্গে আরও বহু মানুষের প্রেমের সম্পর্ক রয়েছে বলে সন্দেহ করতেন আশরাফ।

 বিনোদন পার্কে মর্মান্তিক দুর্ঘটনা, রাইড ভেঙে গিয়ে নিহত ২, আহত ২৭

নাগপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জানান, শনিবার সকালে তাঁদের কাছে খবর আসে পান্ডুরনা-নাগপুর মহাসড়কের (Pandhurna-Nagpur highway) পাশে এক মহিলার লাশ পাওয়া গিয়েছে। ওই মহিলার মুখটি থ্যাঁতলানো। পুলিশ সূত্রের খবর, সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে চিহ্নিত করা হয় ওই মহিলাকে। পুলিশ জানিয়েছে, খুশি পারিহার স্থানীয় ফ্যাশন শোতে অংশগ্রহণ করতেন এবং মডেল হতে চেয়েছিলেন ভবিষ্যতে।

পরে গ্রেপ্তার করা হয় আশরাফ শেখকে। পুলিশ জানিয়েছে, আশরাফ শেখ খুশিকে হত্যার কথা স্বীকার করেছেন। খুশি পারিহারকে হত্যার পিছনে কারণ হিসেবে অন্য কিছু পুরুষের সঙ্গে খুশির সম্পর্কের ঘনিষ্ঠতা ও খুশির চরিত্র সম্পর্কে সন্দেহই মূল। 

উত্তরবঙ্গে লাগাতার প্রবল বর্ষণ, ভারী বৃষ্টিতে মৃত ১

মনে করা হচ্ছে, আশরাফ শেখ তাঁর গাড়ি করে ১২ জুলাই খুশির সঙ্গে ঘুরতে বেরোন এবং পরে পাণ্ডুরনা-নাগপুর মহাসড়কের (Pandhurna-Nagpur highway) কাছে সাভলি ফাতাতে খুশির মাথা থেঁতলে তাঁকে খুন করেন। নাগপুর (গ্রামীণ) পুলিশ এই ঘটনায় খুনের মামলা দায়ের করেছে এবং বিশদ তদন্ত চলছে।



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদনা করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে।)


পশ্চিমবঙ্গের খবর, কলকাতার খবর , আর রাজনীতি, ব্যবসা, প্রযুক্তি, বলিউড আর ক্রিকেটের সকল বাংলা শিরোনাম পড়তে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................