মানবিকতার নজির! জীবন বিপন্ন করে ডুবন্তকে বাঁচালেন উত্তরাখণ্ডের পুলিশ

পুলিশ মাত্রেই নাকি অমানবিক! তাঁরা শুধুই শাস্তি দিতে জানেন। ওই দুই হাতই যে মানুষের প্রাণ বাঁচাতে পারে, তারই নজির রাখলেন উত্তরাখণ্ডের এক পুলিশ অফিসার

মানবিকতার নজির! জীবন বিপন্ন করে ডুবন্তকে বাঁচালেন উত্তরাখণ্ডের পুলিশ

উত্তরাখণ্ড পুলিশের মানবিক মুখ!

সবাই বলেন, পুলিশ মাত্রেই নাকি অমানবিক! তাঁরা শক্ত হাতে শুধুই শাস্তি দিতে জানেন। ওই দুই হাতই যে মানুষের প্রাণ বাঁচাতে পারে, তারই যেন নজির রাখলেন উত্তরাখণ্ডের এক পুলিশ অফিসার (Uttarakhand police official) সানি (Sunny)। হরিদ্বারের (Haridwar) কংগ্রা ঘাটে আচমকাই এক ডুবন্ত মানুষকে দেখতে পেয়ে কোনও দিকে না তাকিয়ে লাইফ জ্যাকেট (lifejacket) পরে জলে ঝাঁপ দেন তিনি। তারপর স্রোতের বিরুদ্ধে সাঁতার কেটে জীবনের স্রোতে ফিরিয়ে আনেন বিশাল নামের সেই স্থানীয় বাসিন্দাকে। সোশ্যালে সেই ভিডিও আপলোড হতেই শুভেচ্ছা আর আশীর্বাণীতে ভরে গেছে কমেন্ট বক্স।

উত্তরাখণ্ড প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, স্থানীয় বাসিন্দা বিশাল ঘাটে নেমে ডুব দেওয়ার সময় ভারসাম্য হারিয়ে ফেলেন। তখনই চোরা স্রোতের টানে তলিয়ে যাচ্ছিলেন জলের নীচে। 

পড়ুন পোস্ট:

ভিডিওটি ৫০ হাজার বার মানুষ দেখেছেন। এক টন শুভেচ্ছা কুড়িয়েছেন 'সাক্ষাৎ ঈশ্বররূপী' ওই পুলিশ অফিসার।

ভারী বৃষ্টির কারণে, বিপদসীমার ওপর দিয়ে বইছে গঙ্গার জল। এদিকে শুরু হয়েছে কানওয়ার যাত্রাও। তাই যাত্রী দেখভালের জন্য সারাক্ষণই মজুত স্থানীয় জল পুলিশ ও বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনি। তাঁদেরই এক অফিসার নিজের জীবন বিপন্ন করে বাঁচিয়েছেন ডুবন্ত তীর্থযাত্রীকে, জানিয়েছে প্রশাসন।

Click for more trending news