Vijay Mallya: ভারত ছাড়ার আগে অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করেছিলাম

বিজয় মালিয়া (Vijay Mallya) জানান জেনিভায় বৈঠক করার জন্য তিনি ভারত ছেড়েছিলেন। তার আগে দেখা করেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলির (Finance Minister Arun Jaitley)সঙ্গে।

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS

Vijay Mallya claimed: একাধিক ব্যাঙ্কের 9 হাজার কোটি টাকা আত্মসাৎ করার অভিযোগ আছে  তাঁর বিরুদ্ধে।

নিউ দিল্লি: 

হাইলাইটস

  1. বিজয় মালিয়ার মন্তব্যে রাজনৈতিক মহলে বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে
  2. দাবিতে তথ্য গত গলদ আছে মন্তব্য কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রীর
  3. 2014 সাল থেকে মালিয়ার সঙ্গে দেখা করার সময় দেননি দাবি জেটলির

লন্ডনের আদালতে দাঁড়িয়ে বিস্ফোরক মন্তব্য করলেন বিজয় মালিয়া (Vijay Mallya)। তিনি জানালেন জেনিভায় বৈঠক করার জন্য তিনি ভারত ছেড়েছিলেন। তার আগে দেখা করেছিলেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলির সঙ্গে। সেই বৈঠকে ঋণ শোধের ব্যাপারে চূড়ান্ত ফয়সালার প্রস্তাব দিয়েছিলেন বলেও দাবি করেন মালিয়া। বিজয় মালিয়ার এই বিস্ফোরক মন্তব্যের জেরে অস্বস্তিতে পড়েছে নরেন্দ্র মোদীর সরকার। সরব হয়েছে বিরোধী দলগুলি।

বিরোধী দলগুলি অনেক আগেই অভিযোগ জানিয়ে বলেছিল,  বিজয় মালিয়ার দেশ ছাড়ার পিছনে বিজেপির হাত রয়েছে।এবার খোদ  বিজয় মালিয়ার বিস্ফোরক মন্তব্যের জেরে তুমুল অস্বস্তিতে পড়ে গেছে নরেন্দ্র মোদীর সরকার। সরব হয়েছে বিরোধী দলগুলিও।

একাধিক ব্যাঙ্কের 9 হাজার কোটি টাকা আত্মসাৎ করার অভিযোগ আছে  তাঁর বিরুদ্ধে।  তবে অভিযোগ সরাসরি খারিজ করেছেন  অর্থমন্ত্রী। তিনি  জানিয়েছেন তাদের মাত্র 40 সেকেন্ডের জন্য দেখা হয়েছিল। তাও রাজ্যসভায়।  তিনি মালিয়াকে (Vijay Mallya) কোনও সময় দেননি।  এদিকে লন্ডনের আদালতের বাইরে সাংবাদিকদের মালিয়া জানান,তাঁর জেনিভাতে  একটি বৈঠক ছিল। সেই বৈঠকে যোগ দিতে যাওয়ার আগে অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করেন। আর তারপর দেশ ছাড়েন। 

 

 

ফেসবুক অর্থমন্ত্রী। লেখেন,  বিজয় মালিয়া (Vijay Mallya) দাবি করেছেন আমার সঙ্গে তাঁর দেখা হয়েছিল। শুধু তাই নয় তাঁর দাবি তিনি রফাও করতে চেয়েছিলেন। এখানে তথ্যগত ফাঁক আছে। সেই 2014 সাল থেকে এ পর্যন্ত তাঁর  (মালিয়া) সঙ্গে দেখা করার জন্য আমি কোনও সময় দিইনি। তাই তাঁর  সঙ্গে আলাদা করে দেখা করার প্রশ্ন ওঠে না। কিন্তু তিনি রাজ্য সভার সাংসদ। আর মাঝে মধ্যে সভায় অংশ নিতে আসতেন। সেই সুযোগের অপব্যবহার করেছিলেন মালিয়া। আমি সভা থেকে বেরিয়ে আমার ঘরে যাচ্ছিলাম, তখন তাঁর সঙ্গে আমার দেখা হয়। তিনি আমার সঙ্গে সাক্ষাতের জন্য সময় চান। পাশ দিয়ে যেতে যেতে আমি শুনেছিলাম তিনি বলছেন, আমি রফা কররা  প্রস্তাব দিয়েছি।

 

দুর্নীতির মামলা চালাতে তাঁকে এ দেশে ফিরিয়ে আনতে চায় সিবিআই। কিন্তু ভারতের জেলের অবস্থা ভাল নয় বলে সেখানে থাকতে চান না মালিয়া। এখন আদালতে সেই নিয়েই শুনানি হচ্ছে। সাংবাদিকদের অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকের ব্যাপারে জানালেও এ ব্যাপারে সবিস্তারে কিছু বলতে রাজি হননি তিনি।  এর পাশাপাশি তিনি জানান ঋণ বাকি থাকার ব্যাপারে মিটমাট করতে  কর্নাটক হাইকোর্টে যে প্রস্তাব পেশ করেছেন তাও যথেষ্ট আকর্ষণীয়। 

বৈঠকে ঠিক কী কী আলোচনা হয়েছে তা বিস্তারিত ভাবে জানাবার দাবি করেছে কংগ্রেস। তাদের দাবি এর থেকে প্রমাণ হয়ে যায় কেন্দ্রীয় সরকারের সাহায্যেই দেশ ছেড়েছেন মালিয়া। তারা দীর্ঘ দিন ধরেই এমন মন্তব্য করে আসছিল। আর মালিয়ার বক্তব্য প্রকাশ্যে আসার পর কংগ্রেসের  আরও দাবি হাজার হাজার কোটি ঋণ বাকি থাকা মালিয়াকে (Vijay Mallya)  দেশ ছাড়তে দেওয়া হল কোন যুক্তিতে? টুইট করে এমন কথাই জানিয়েছেন কংগ্রেস মুখপাত্র রণদীপ সুরজেওয়ালা। দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল জানান এর পর  অর্থমন্ত্রীর উত্তর দেওয়া উচিত। প্রধানমন্ত্রীও জানতেন বিষয়টি।  সমালোচনায় সরর হয়েছেন লালু প্রসাদ যাদবের পুত্র তেজস্বী যাদব। গত মাসে লন্ডনে গিয়ে একই দাবি করেছিলেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধি। সাংবাদিকদের তিনি বলেছিলেন দেশ ছাড়ার আগে   এক মন্ত্রীর সঙ্গে  দেখা হয়েছিল বিজয়  মালিয়ার। এটাও জানিয়েছিলেন সেই প্রমাণ আছে তাঁর কাছে।

 

     

 

 



পশ্চিমবঙ্গের খবর, কলকাতার খবর, আর রাজনীতি, ব্যবসা, প্রযুক্তি, বলিউড আর ক্রিকেটের সকল বাংলা শিরোনাম পড়তে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................