এ ভাবে চলতে থাকলে পরিস্থিতির নিয়ন্ত্রণ আমার বা মোদী কারও হাতেই থাকবে নাঃ ইমরান

ভারতকে আলোচনার বসার আহ্বান জানালেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। গতকাল   সীমান্ত পেরিয়ে আঘাত হানে  ভারত। আজ পাল্টা  দেয় পাকিস্তান।

এ ভাবে চলতে  থাকলে পরিস্থিতির নিয়ন্ত্রণ আমার বা মোদী কারও হাতেই থাকবে নাঃ ইমরান

ভারতের প্রত্যাঘাতের পরই বৈঠকে বসেছিল পাকিস্তানের জাতীয় নিরাপত্তা পরিষদ

হাইলাইটস

  • ভারতকে আলোচনার বসার আহ্বান জানালেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী
  • ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ভারতের হামলার পাল্টা দেয় পাকিস্তান
  • ভারতের দাবি প[কিস্তানের হামলা ব্যর্থ করা গিয়েছে
ইসলামাবাদ:

ভারতকে আলোচনার বসার আহ্বান জানালেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। গতকাল   সীমান্ত পেরিয়ে আঘাত হানে  ভারত। আজ পাল্টা  দেয় পাকিস্তান। এরপর ইমরান বলেন, আমাদের হামলা করার একটাই উদ্দেশ ছিল। সেটা হল আমরা ভারতকে  বোঝাতে চেয়েছি যদি ওরা আমাদের দেশে  ঢুকে হামলা করতে  পারে  তাহলে জবাব দিতে আমরাও পারি। এখান ( সীমান্তের ওপার) থেকেই ভারতের দুটি মিগ বিমানকে  নামান সম্ভব হয়েছে। আর তাই এখন সময় এসেছে  যে আমরা সুস্থ  বুদ্ধির  ব্যবহার করি।  ভারতকে বলতে চাই আমাদের দু'পক্ষের কাছে যে  পরিমাণ অস্ত্র আছে  তাতে হিসেবে  ভুল  করা চলে না। এ ধরনের কাজ  চলতে  থাকলে বিষয়টি আমার  নিয়ন্ত্রণে থাকবে না, মোদীর ( ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী) নিয়ন্ত্রণে  থাকবে না।  আর তাই আমরা ভারতকে আলোচনায় বসতে  অনুরোধ করছি।  ‘

আরও পড়ুনঃ ভারত-পাক লড়াইয়ের মাঝেই ২০ মিনিটের উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক রাজনাথের, সঙ্গে অজিত ডোভাল

ভারতের প্রত্যাঘাতের পরই বৈঠকে বসেছিল পাকিস্তানের জাতীয় নিরাপত্তা পরিষদ। সেখান থেকে দিল্লিকে হুমকিও  দিয়েছিল  ইসলামাবাদ। বলেছিল  নিজেদের সময় মতো ভারতকে ‘সারপ্রাইজ' দেবে। এরই মধ্যে আজ ন্যাশনাল কমান্ড অথরিটির বৈঠক  ডাকে  পাকিস্তান। এই কমিটি আসলে  পাকিস্তানের পরমাণু অস্ত্র সংক্রান্ত সমস্ত বিষয়কে নিয়ন্ত্রণ করে। সেদিনই আঘাত  হানল তারা। সাংবাদিকদের পাক সেনার এক  মুখপাত্র আগেই জানিয়েছেন, আমরা ভারতকে  চমকে দেব।  তাঁর কথাতেই স্পষ্ট হয়েছে এই চমকে  দেওয়ার ব্যাপারটা সামরিক এবং রাজনৈতিক- দুভাবেই হবে। এরপর হামলা করে  পাকিস্তান। তবে  ভারতীয় বিদেশ মন্ত্রকের দাবি পাকিস্তানের হামলাকে ব্যর্থ করা  গিয়েছে।                    

 

 

More News