এক লক্ষ যুবকে ঐক্যবদ্ধ করতে 'যুবশক্তি'র সূচনা অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের

তাঁর আবেদন, "আমাদের মধ্যে রাজনৈতিক বিরোধিতা থাকবে। কিন্তু এই সঙ্কটের মুহূর্তে আমাদের সকলকে এগিয়ে এসে কাজ করতে হবে

এক লক্ষ যুবকে ঐক্যবদ্ধ করতে 'যুবশক্তি'র সূচনা অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের

এক লক্ষ যুবকে ঐক্যবদ্ধ করতে 'যুবশক্তি'র সূচনা অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের (ফাইল ছবি)

হাইলাইটস

  • এক লক্ষ তরুণ-যুবকে এক ছাতার তলায় আনতে যুবশক্তি উদ্যোগের সূচনা
  • এই উদ্যোগের সূচনা করলেন তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়
  • সঙ্কটদীর্ণ বাংলার পাশে দাঁড়াতে এই তরুণ-যুবরা উদ্যোগী হবেন, দাবি সাংসদের
কলকাতা:

বাংলার যুব শক্তি উদ্যোগকে দিনের আলো দেখাতে সরব হলেন তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় (TMC MP on Yuva Shakti)। দলের যুব শাখার সভাপতি এদিন বলেছেন, "উদ্যমী এক লক্ষ যুবকে একছাতার তলায় আনতে এই উদ্যোগ। আমফান ও করোনা সংক্রমণের (Amphan and Covid-19) জেরে ক্ষতিগ্রস্তদের ত্রাণ পৌঁছে দিতে উদ্যোগ নেবে এই যুব শক্তি।" স্বেচ্ছায় আগ্রহী তরুণ-যুবদের এগিয়ে এসে দলের ওয়েবসাইটে নিজেদের নাম নথিভুক্ত করতে আবেদন জানিয়েছেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি বলেন, "একাধিক বিপর্যয়ের সঙ্গে এখন লড়ছে বাংলা। তাই বিধ্বস্ত মানুষদের পাশে দাঁড়াতে যুবদের এগিয়ে আসতে হবে। আশপাশের আর্ত মানুষদের সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিতে হবে। ত্রাণ পৌঁছে তাঁদের সুরাহার ব্যবস্থা করতে হবে।" এই উপলক্ষে এদিন একটা ওয়েবসাইটের উদ্বোধন করা হয়েছে। 

পরিযায়ী শ্রমিকদের ফেরানো ট্রেনকে “করোনা এক্সপ্রেস” বলেননি, দাবি মুখ্যমন্ত্রীর

তাঁর আবেদন, "আমাদের মধ্যে রাজনৈতিক বিরোধিতা থাকবে। কিন্তু এই সঙ্কটের মুহূর্তে আমাদের সকলকে এগিয়ে এসে কাজ করতে হবে।"  এদিকে, শ্রমিক স্পেশাল ট্রেনকে "করোনা এক্সপ্রেস" বলেও পরে তা অস্বীকার করে বাংলার মানুষকে বিভ্রান্ত করছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়,এমন অভিযোগ করলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। মুখ্যমন্ত্রীর ভাবনাচিন্তা করে তবেই মন্তব্য করা উচিত, কিন্তু তিনি কোনও কিছু না ভেবেই মন্তব্য করে বসেন, এমন ভাবে তৃণমূল নেত্রীর তীব্র সমালোচনাও করলেন গেরুয়া শিবিরের ওই নেতা। 

এর আগে অমিত শাহ তাঁর ভার্চুয়াল সমাবেশে বাংলার মুখ্যমন্ত্রীর ‘করোনা এক্সপ্রেস' মন্তব্যের সমালোচনা করলে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন যে তিনি কখনোই ওকথা বলেননি।

"চিন্তাভাবনা" করে তবেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মন্তব্য করা উচিত: দিলীপ ঘোষ

Newsbeep

বুধবার নবান্নে সাংবাদিক সম্মেলনে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, সাধারণ মানুষ যা বলেছেন, সেটাই উল্লেখ করেছেন তিনি। মমতা বলেন, “বাংলায় ফিরে এসেছেন ১১ লক্ষেরও বেশি শ্রমিক। আমি কখনও পরিযায়ীদের ট্রেনকে ‘করোনা এক্সপ্রেস' বলিনি। সাধারণ মানুষই এই নাম দিয়েছে”। মঙ্গলবার ভার্চুয়াল সমাবেশে অমিত শাহ অভিযোগ করেন যে, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এই ধরণের মন্তব্য করে আসলে পরিযায়ী শ্রমিকদেরই অপমান করেছেন, এবং ওই ‘করোনা এক্সপ্রেস'-ই তাঁর বিদায়ী ট্রেন হবেন।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যেভাবে নিজের ‘করোনা এক্সপ্রেস' মন্তব্যকে অস্বীকার করেছেন সেবিষয়ে বলতে গিয়ে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেন, "কোনও বক্তব্য রাখার আগে মুখ্যমন্ত্রীকে ভাবনাচিন্তা করে কথা বলার জন্য অনুরোধ করছি আমি"।



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদনা করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে।)