"বিষাক্ত নাগিন নির্মলা সীতারমণ", কল্যাণের কুমন্তব্যে দিলীপের পাল্টা

বিজেপির তরফে পাল্টা, "মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তাঁর দলের সাংসদের ওপর থেকে নিয়ন্ত্রণ হারিয়েছেন। তাই হতাশায় ভুলভাল বকছেন তাঁর সাংসদরা।"

ফাইল ছবি

বাঁকুড়া (কলকাতা):

কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রীর উদ্দেশে অসাংবিধানিক মন্তব্য করলেন তৃণমূল সাংসদ কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁকে বিষাক্ত নাগিন বলে কটাক্ষ করেন শ্রীরামপুরের এই সাংসদ (TMC MP on Nirmala Sitharaman)। যদিও এই মন্তব্যের পর তীব্র সমালোচনার মুখে পড়েছেন কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়। জানা গিয়েছে, দেশের অর্থনীতির বেহাল দশা প্রসঙ্গে নির্মলা সীতারমণকে (Finance Minister) কাঠগড়ায় তুলে এই মন্তব্য করেছেন তিনি। বিজেপির (BJP) তরফে পাল্টা, "মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তাঁর দলের সাংসদের ওপর থেকে নিয়ন্ত্রণ হারিয়েছেন। তাই হতাশায় ভুলভাল বকছেন তাঁর সাংসদরা।" জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে শনিবার বাঁকুড়ায় প্রতিবাদ সভা আয়োজন করেছিলে রাজ্যের শাসক দল।

সেই সভা থেকে কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, "দেশের সবচেয়ে ব্যর্থ অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ। বিষাক্ত নাগিনের দংশনে যেমন মানুষ মারা যায়, দেশেও তাই হচ্ছে। একের পর এক মানুষ মরছে অবিলম্বে ওর পদত্যাগ করা উচিত।" তবে শুধু অর্থমন্ত্রী নয়, প্রধানমন্ত্রীকেও সমালোচনায় বিঁধেছেন তিনি। নতুন ভারত গঠনের প্রতিশ্রুতি দিয়ে দেশের জিডিপি সর্বনিম্ন করেছেন প্রধানমন্ত্রী। এমন অভিযোগ করেছেন কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়।

তৃণমূল সাংসদের মন্তব্যের জবাবে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেন, "তৃণমূল কংগ্রেস সুপ্রিমোর নিয়ন্ত্রণ তাঁর দলের উপর থেকে লঘু হচ্ছে। তাই হতাশায় তাঁর সাংসদরা এই ধরনের মন্তব্য করছেন। পুরো দলের ওপর থেকে নীচ পর্যন্ত দুর্নীতিতে ডুবে। অন্তর্দ্বন্দ্বে ভরে গিয়েছে। মানুষের নজর ঘোরাতে হতাশা থেকে এই ধরনের মন্তব্য করছেন।"
 

Newsbeep