দিল্লির জমায়েতের ঘটনায় যুক্তদের মধ্যে ৬৪৭ জন গত দু’দিনে করোনা পজিটিভ 

গত দু’দিনে নিজামুদ্দিন এলাকার মসজিদে আয়োজিত ধর্মীয় সমাবেশে যোগদানকারীদের মধ্যে ৬৫০ জনের শরীরে ধরা পড়েছে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ।

দিল্লির জমায়েতের ঘটনায় যুক্তদের মধ্যে ৬৪৭ জন গত দু’দিনে করোনা পজিটিভ 

Coronavirus:ওই সমাবেশে যোগ দেওয়া বহু মানুষের শরীরেই ধরা পড়েছে করোনা সংক্রমণ

নয়াদিল্লি:

গত দু'দিনে দিল্লির নিজামুদ্দিন এলাকার মসজিদে আয়োজিত ধর্মীয় সমাবেশে যোগদানকারীদের মধ্যে ৬৫০ জনের শরীরে ধরা পড়েছে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ। শুক্রবার সরকারের পক্ষ থেকে একথা জানানো হয়েছে। এক স্বাস্থ্য মন্ত্রকের কর্মী জানিয়েছেন, ‘‘গত দু'দিনে তাবলিগি জামাতের সমাবেশের সঙ্গে সম্পর্কযুক্তদের মধ্যে ৬৪৭টি করোনা সংক্রমণের ঘটনা সামনে এসেছে।'' তিনি আরও জানান, ১৪টি রাজ্যে এর থেকে সংক্রমণ ছড়িয়েছে। এই সমাবেশের সঙ্গে যুক্ত অন্তত বারো জনের মৃত্যু হয়েছে করোনায় আক্রান্ত হয়ে।

গত মার্চে মার্কাজ নিজামুদ্দিনের ওই সমাবেশে ভারত ছাড়াও অন্য দেশ থেকেও বহু অভ্যাগতরা যোগ দিয়েছিলেন‌। করোনা সতর্কতার মধ্যেই আয়োজিত হয়েছিল ওই সমাবেশ।

সমাবেশের পরে অনেকেই দেশের বিভিন্ন প্রান্তে ভ্রমণ করেন করোনা সতর্কতায় সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার নির্দেস সত্ত্বেও।

সব মিলিয়ে প্রায় ৯,০০০ ব্যক্তি যোগ দিয়েছিলেন সমাবেশে।

বহু রাজ্যই এখন তল্লাশি জারি রেখেছে নিজামুদ্দিনে ওই সমাবেশে যোগ দেওয়া ব্যক্তিদের খোঁজে যাঁরা সংশ্লিষ্ট রাজ্যগুলিতে রয়েছে।

দেশের অন্যতম ভয়াবহ ভাবে করোনা আক্রান্ত রাজ্য তামিলনাডুতে ২৬০ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন যাঁরা ওই সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন। একই ভাবে দিল্লিতে ২৫৯ জন আক্রান্ত যাঁরা ওই সমাবেশে যোগ দিয়েছিলেন।
শুক্রবার উত্তরপ্রদেশে ১৭২ জন নতুন করোনা পজিটিবের সন্ধান পাওয়া গিয়েছে। তাঁদের মধ্যে ৪২ জন তাবলিগি জামাতের অনুষ্ঠানে গিয়েছিলেন।

এদিকে অন্ধ্রপ্রদেশের ১৪০ জন আক্রান্তের মধ্যে ১০৮ জন দিল্লির অনুষ্ঠানে গিয়েছিলেন। রাজস্থানে সংখ্যাটা ২৩।

১৮ মার্চ তেলেঙ্গানায় এক ইন্দোনেশিয়ান ব্যক্তির শরীরে করোনা সংক্রমণ ধরা পড়ে। তিনি ওই সমাবেশে গিয়েছিলেন। এর কয়েকদিনের মধ্যেই স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক একটি চিঠিতে ওই দলের সদস্যদের বিস্তারিত বিবরণ রাজ্যগুলির কাছে পাঠিয়ে নির্দেশ দেয় তাঁদের খুঁজে বের করে পরীক্ষা করে দেখতে।

তাবিলগির জমায়েতে সঙ্গে সম্পর্কিত ব্যক্তির করোনায় আক্রান্ত হওয়ার কথা জানা গিয়েছে কাশ্মীর, হিমাচল প্রদেশ ও আন্দামান নিকোবর দ্বীপপুঞ্জেও।