গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে রেকর্ড করোনা সংক্রমণ ও মৃত্যু

Bengal Coronavirus: পশ্চিমবঙ্গের মধ্যে সবচেয়ে বেশি সংক্রমিতের সন্ধান মিলেছে কলকাতায়, শুধু বুধবারই শহরে কমপক্ষে ২৫ জনের প্রাণ কেড়েছে করোনা ভাইরাস

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে রেকর্ড করোনা সংক্রমণ ও মৃত্যু

West Bengal Coronavirus Cases: বুধবার রাজ্যে ২৪,০৪৭ জনের শরীরে নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে (ফাইল চিত্র)

হাইলাইটস

  • ভারতে লাগাতার বাড়ছে করোনা সংক্রমণ
  • পশ্চিমবঙ্গেও রেকর্ড হারে সংক্রমণ ছড়াচ্ছে
  • গোটা রাজ্যে ছড়িয়ে পড়েছে কোভিড আতঙ্ক
কলকাতা:

গোটা দেশের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে করোনা আতঙ্ক জাঁকিয়ে বসছে পশ্চিমবঙ্গেও। যত দিন যাচ্ছে ততই যেন সংক্রমণ আরও দ্রুত ছড়াচ্ছে। বুধবার এরাজ্যে (West Bengal) এখনও পর্যন্ত দৈনিক হিসাবে সর্বাধিক করোনা আক্রান্তের (Bengal Coronavirus Cases) সন্ধান মিলেছে, হয়েছে রেকর্ড সংখ্যক মৃত্যুও (Bengal Coronavirus Deaths)। বুধবার রাজ্যে ২,৮১৬ জন নতুন করোনা রোগীর সন্ধান মিলেছে এবং গত ২৪ ঘণ্টায় ৬১ জন কোভিড আক্রান্তের মৃত্যু হয়েছে। এদিকে এই প্রথম সংক্রমণের হিসাবে কলকাতাকে ছাড়িয়ে গেল উত্তর ২৪ পরগনা। বুধবার নতুন করে ৭০৯ জনের শরীরে করোনা সংক্রমণ ধরা পড়েছে যা কলকাতার থেকে সংখ্যায় ৪৪ টি বেশি। বুধবারই বিধাননগর পুর কর্পোরেশনের এক তৃণমূল কাউন্সিলার হাসপাতালে ১২ দিন করোনার সঙ্গে যুদ্ধ করার পর মারা যান। দক্ষিণ ২৪ পরগনায় শাসক দলেরই আরেক বিধায়কের করোনা পজিটিভ ধরা পড়েছে।

১৯ লক্ষ পেরলো দেশের করোনা সংক্রমণ, মৃত বেড়ে ৩৯,৭৯৫ জন, দেখুন ১০ তথ্য

বুধবার কলকাতায় ২৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। ঠিক তার পাশের জেলা হাওড়ায় ২৯৩ জন নতুন করোনা রোগীর খোঁজ মিলেছে। ওদিকে হুগলি ও মালদহে যথাক্রমে ১৪৬ এবং ১৪৪ জনের শরীরে করোনা সংক্রমণ হয়েছে।

কর্নাটক কংগ্রেসের ঘরেও করোনার হানা, আক্রান্ত সিদ্দারামাইয়া

বুধবার ২৭৮ জন রোগীকে করোনা মুক্ত বলে ঘোষণা করে হাসপাতাল থেকে ছাড়া হয়েছে। এর ফলে রাজ্যে করোনা থেকে পুনরুদ্ধারের হার বেড়ে ৭০.৩৬% হয়েছে। প্রতিদিনই করোনা পরীক্ষা করা হচ্ছে। সব মিলিয়ে এখনও পর্যন্ত এরাজ্যে ১০ লক্ষেরও বেশি মানুষের নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। বুধবার রাজ্যে ২৪,০৪৭ জনের শরীরে নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এর মধ্যে করোনা পজিটিভের হার ৮.৩৫%।

রাজ্যের সরকারি হাসপাতালগুলোতে কোভিড-১৯ রোগীদের চিকিৎসার জন্য বরাদ্দ করা মোট বে়ডের সংখ্যা ১১,৫৬০ টি, যার মধ্যে বর্তমানে ৭,০৩৫ টি বেড ফাঁকা রয়েছে।

ইতিমধ্যে, রাজ্যে ১,২৫৮ টি এলাকাকে কনটেইনেমন্ট জোন ঘোষণা করা হয়েছে। কলকাতায় ৪০ টি কনটেইনেমন্ট জোন রয়েছে, উত্তর ২৪ পরগনায় ১১০ টি, হাওড়ায় ৯১ টি, হুগলিতে ৪২ টি এবং দক্ষিণ ২৪ পরগনায় ৬৩ টি। এই জেলাগুলিতে প্রায় নিয়মিতভাবে নতুন করোনা রোগীদের সন্ধান মিলছে।