মেয়েদের আলো দেখাতে পথে নামল 'হোপ কলকাতা ফাউন্ডেশন'

যেসব মেয়েরা পড়াশোনা করতে পারে না এবং যারা নিজেদের স্বপ্ন পূরণ করতে পারে না তাদের পাশে এসে দাঁড়ায় 'হোপ কলকাতা ফাউন্ডেশন'।

মেয়েদের আলো দেখাতে পথে নামল 'হোপ কলকাতা ফাউন্ডেশন'

মেয়েদের জন্য পথে 'হোপ কলকাতা ফাউন্ডেশন'

কলকাতা:

একটা গাছ যেমন একটা প্রাণ, তেমনি একটি মেয়ে (Girl) মানেই সুখী গৃহকোণ। একথা একুশ শতকে দাঁড়িয়েও মনে রাখতে কষ্ট হয় আমাদের। তাই আজও দশম শ্রেণির গণ্ডি ডিঙোনোর আগেই পড়া ছাড়তে হয় একটি মেয়েকে। মেয়েদের চোখও যে স্বপ্ন দেখে, ভুলেই যায় সমাজ! সমাজকে চোখে আঙুল দিয়ে সেদিকে দেখাতে, আর মেয়েদের অপূর্ণ স্বপ্ন পূরণ করার প্রতিশ্রুতি নিয়ে শনিবার সকালে পথে নামল 'হোপ কলকাতা ফাউন্ডেশন' (Hope Kolkata Foundation)। সংস্থাটি সবসময়ই সমাজের দুস্থ ছেলে-মেয়েদের জন্য কিছু না কিছু উদ্যোগ নিয়ে থাকে। রবিবার তারা আয়োজন করল 'ওয়াক ফর এ কজ সাপোর্ট এ গার্ল ইন নীড'। সংস্থা আয়োজিত ৫ কিলোমিটার এবং ১০ কিলোমিটারের দৌড় প্রতিযোগিতা শুরু হয় রবীন্দ্র সরোবর থেকে। শেষ হয় রামকৃষ্ণ মিশন গোলপার্কে। প্রায় ৩০০ জন এই অভিনব আয়োজনে অংশ নেন। 

বদলাচ্ছে বর্ধমান স্টেশনের নাম, স্বাধীনতা সংগ্রামীর নামে হবে নামকরণ

যেসব মেয়েরা পড়াশোনা করতে চায় অথচ পারে না, যারা নিজেদের স্বপ্ন পূরণ করতে পারে না তাদের পাশে সবসময়েই আছে 'হোপ কলকাতা ফাউন্ডেশন'। অনুষ্ঠানে বিশিষ্টজনদের মধ্যে ছিলেন প্রখ্যাত মডেল ও অভিনেতা সন্দীপ ভট্টাচার্য এবং পিয়ান সরকার। এছাড়া উপস্থিত ছিলেন, 'হোপ কলকাতা ফাউন্ডেশন'-এর ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর সিমরান উপাধ্যায়, আইটির উদ্যোক্তা এবং প্রযোজক রূপক চট্টোপাধ্যায়,'হোপ কলকাতা ফাউন্ডেশন'-এর কর্ণধার গীতা ভেনকাদাকৃষ্ণন ।

দক্ষিণ মুম্বইয়ের কোলাবাতে বহুতলে আগুন

আগামী বছরে আরও বড় আয়োজনের স্বপ্ন এখন থেকেই দেখছে সংস্থা়টি। সেই অনুযায়ী এবছরেই তাদের প্রতিশ্রতি, আরও বেশি করে ফিরে আসবে সংস্থা। অ-বলা মেয়েদের স্ব-বলা হয়ে ওঠার পাথেয় পৌঁছে দিতে।

More News