গুণ্ডারা ভোট লুঠ করতে এলে বাহিনীকে বুকে গুলি চালাতে বলবঃ সায়ন্তন

আরও একবার বিতর্কে জড়ালেন বসিরহাট কেন্দ্রের (Basirhat Loksabha Constituency) বিজেপি প্রার্থী সায়ন্তন বসু (Sayantan Basu)।

গুণ্ডারা ভোট লুঠ করতে এলে বাহিনীকে বুকে গুলি চালাতে  বলবঃ সায়ন্তন

আমার কাছে গুন্ডাদের লিস্ট আছে আমি কমিশনকে সেই লিস্ট দিয়েছি: সায়ন্তন

হাইলাইটস

  • আরও একবার বিতর্কে জড়ালেন বসিরহাট কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী সায়ন্তন বসু
  • নির্বাচনী প্রক্রিয়া শুরু হওয়ার পর ২৮ মার্চ একই কথা বলেন সায়ন্তন
  • সেবার তাঁর বিরুদ্ধে কমিশনে অভিযোগ দায়ের হয়
কলকাতা:

আরও একবার বিতর্কে জড়ালেন বসিরহাট কেন্দ্রের (Basirhat Loksabha Constituency) বিজেপি প্রার্থী সায়ন্তন বসু (Sayantan Basu)। রাজ্য বিজেপির এই সাধারণ সম্পাদক বললেন, "ভোটের দিন কারচুপি করলে কেন্দ্রীয় বাহিনীকে বলবো গুণ্ডাদের বুকে গুলি করুন। আমার কাছে গুন্ডাদের লিস্ট আছে। আমি কমিশনকে সেই লিস্ট দিয়েছি। স্পষ্ট করে বলছি ভোটের দিন  যদি কেউ গোলমাল করে, যদি কেউ ভোট লুটের চেষ্টা করে তাহলে কেন্দ্রীয় বাহিনীকে বলব সোজা তাঁর বুকে গুলি করতে"।এই প্রথম নয় নির্বাচনী প্রক্রিয়া শুরু হওয়ার পর ২৮ মার্চ একই কথা বলেন সায়ন্তন। সেবার তাঁর বিরুদ্ধে কমিশনে অভিযোগ দায়ের হয়। কিন্তু বিষয়টি আর এগোয়নি। এবার আবার একই মন্তব্য করলেন রাজ্য বিজেপির এই নেতা।

বাংলায় দাঁড়িয়ে জয় শ্রী রাম বলছি,ক্ষমতা থাকলে গ্রেফতার করুন, মমতাকে চ্যালেঞ্জ অমিতের

তিনি বলেন, "আমাদের কাছে দুটো রাস্তা আছে। হয় কেন্দ্রীয় বাহিনী ব্যবস্থা নেবে, নয় আমাদের নিজেদেরই তৃণমূলের গুন্ডামি রুখতে হবে। বিজেপি যদি পাল্টা মার শুরু করে  তাহলে তৃণমূলের অস্তিত্ব খুঁজে পাওয়া যাবে না। এমনিতেই তৃণমূল আর রাজনৈতিক দল নেই, গুন্ডাদের আখড়া হয়ে উঠেছে। কেন্দ্রীয় বাহিনীকে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতেই হবে। যদি কেন্দ্রীয় বাহিনীর ব্যবস্থা নিয়ে নেয় আমাদের কিছু বলার নেই। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের জন্যই বাহিনীকে এই রাজ্যে নিয়ে আসা হয়েছে। আমার কাছে গুন্ডাদের নামের তালিকা আছে আমি তা কমিশনকে জমা দিয়েছি। যা ব্যবস্থা নেওয়ার কমিশনই নেবে"।

মমতার ছবি বিকৃত করার অভিযোগে গ্রেফতার বিজেপি সমর্থক, সুপ্রিম কোর্টে মামলা করল পরিবার

এর আগেও তিনি এধরনের মন্তব্য করেছিলেন সে প্রসঙ্গ উত্থাপন করে সায়ন্তন বলেন, ‘ আমি আগেও বলেছি আবারও বলছি গুন্ডারা ভোটের দিন কারচুপি করলে তাদের বুকে গুলি মারতে হবে। সে সময় আমার নামে অনেক আলোচনা হয়েছিল কিন্তু তবুও আমি নিজের বক্তব্যে অনড় থাকছি ভোট লুট করতে এলে কাউকেই ছাড় ছেড়ে কথা বলা হবে না।'

এদিকে  কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা বাহিনীর জওয়ানদের কেউ আক্রমণ করলে তাদের বুকে গুলি মারা উচিত বলে মনে করেন রাজ্য বিজেপি সভাপতি বিধায়ক দিলীপ ঘোষ। ঘাটাল লোকসভা কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী ভারতী ঘোষের নিরাপত্তারক্ষীরা রবিবার ভোট চলাকালীন গুলি চালিয়েছেন বলে অভিযোগ. তাতে এক তৃণমূল কর্মী আক্রান্ত হয়েছেন বলে দাবি বাংলা শাসক শিবিরের। এই পরিস্থিতিতেই রাজ্য বিজেপি সভাপতি বললেন, কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদের গুলি চালানোর অধিকার আছে। আর তাদের কেউ আক্রমণ করলে তার বুকে গুলি চালানো উচিত।