বছরে ১০ লাখের বেশি নগদ তুললে দিতে হতে পারে ৫ শতাংশ কর

একটি সূত্র বলছে কর যে লাঘু হতে চলেছে সে ব্যাপারে মোটের উপর সিদ্ধান্ত হয়েই গিয়েছে। তবে কী হারে কর নেওয়া হবে সে ব্যাপারে এখনও কোনও স্থির সিদ্ধান্ত হয়নি।

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS
বছরে ১০ লাখের বেশি নগদ তুললে দিতে হতে পারে  ৫ শতাংশ কর

বিষয়টিকে বাস্তবায়িত করার কাজ ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গিয়েছে।


নিউ দিল্লি: 

হাইলাইটস

  1. বড় অঙ্কের আর্থিক লেনদেন নগদে করার পক্ষে নয় কেন্দ্রীয় সরকার
  2. অর্থ মন্ত্রকের কর্তারা এ ব্যাপারে চিন্তাভাবনা শুরু করেছেন
  3. সূত্র বলছে কর যে লাঘু হতে চলেছে সে ব্যাপারে সিদ্ধান্ত হয়েই গিয়েছে

বড় অঙ্কের আর্থিক লেনদেন নগদে (Cash Transactions)  করার পক্ষে নয় কেন্দ্রীয় সরকার। ডিজিটাল লেনদেনের (Digital Transactions ) উপর জোর দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে সেই নোটবন্দির সময় থেকেই। এবার দ্বিতীয় মোদী সরকারের প্রথম বাজেটে (Union Budget 2019) এ ব্যাপারে একটি পদক্ষেপ করা হতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। সারা বছরে কোনও গ্রাহক যদি ১০ লক্ষ বা তার চেয়ে বেশি পরিমাণ নগদ ব্যাঙ্ক  থেকে তোলেন তাহলে তাঁকে ৩-৫ শতাংশ হারে কর দিতে হতে পারে। অর্থ মন্ত্রকের (Finance Ministry) কর্তারা এ ব্যাপারে চিন্তাভাবনা শুরু করেছেন। একটি সূত্র বলছে কর যে লাঘু হতে চলেছে সে ব্যাপারে মোটের উপর সিদ্ধান্ত হয়েই গিয়েছে। তবে কী হারে কর নেওয়া হবে সে ব্যাপারে এখনও কোনও স্থির সিদ্ধান্ত হয়নি। কিন্তু পরিমাণটা ৫ শতাংশের কম হবে না বলেই মনে করছেন অর্থমন্ত্রকের বেশিরভাগ কর্তা। তবে তাঁরা বলছেন ধরে নেওয়া যেতে পারে ৩ থেকে ৫ শতাংশ হারে কর নেওয়া হবে।

বাজেটে কর্পোরেট করে ছাড় দেওয়ার ভাবনা নেই কেন্দ্রীয় সরকারের

অনেকে মনে করছেন এই বিষয়টিকে বাস্তবায়িত করার কাজ ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গিয়েছে। গত সপ্তাহে এনইএফটি এবং আরটিজিএস ব্যবস্থাকে সম্পূর্ণ বিনামূল্যে করে দেওয়া হয়েছে। এই দুটি পদ্ধতি ব্যবহার করে টাকার লেনদেন করতে এখন থেকে আর কোনও টাকা দিতে হবে না গ্রাহককে। এতদিন রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া অন্য ব্যাঙ্কগুলি থেকে এই দুটি কাজের জন্য টাকা নিত। আবার ব্যাঙ্কগুলিও তাদের গ্রাহকদের থেকে টাকা নিয়ে এই কাজটা করত। কিন্তু এখন থেকে এনইএফটি এবং আরটিজিএস করতে কোনও পয়সা লাগবে না। পাশাপাশি এটিএম কার্ড ব্যবহার করে টাকা তোলার যে ব্যবস্থাপনা রয়েছে তাতেও পরিবর্তন আনার কথা ভাবছে দেশের শীর্ষ ব্যাঙ্ক। এখন একটি নির্দিষ্ট সংখ্যক লেনদেন হয়ে গেলে গ্রাহককে পরবর্তী লেনদেনের জন্য অর্থদন্ড দিতে হয়। এই প্রক্রিয়া নিয়ে এর আগেই প্রশ্ন উঠেছে। এবার এই পদ্ধতি সমাপ্ত করা যায় কিনা তা নিয়ে ভাবতে শুরু করেছে দেশের শীর্ষ ব্যাঙ্ক। একটি প্যানেলও ইতিমধ্যে তৈরি হয়েছে।

রেপো রেটের সঙ্গে গৃহঋণকে সম্পৃক্ত করল এসবিআই, ১০ টি তথ্য

অর্থ মন্ত্রকের একটি সূত্র জানাচ্ছে দেশে যখন ডিজিটাল লেনদেনের বিভিন্ন মাধ্যম রয়েছে তখন নগদে ১০ লাখ টাকার বেশি লেনদেন করার প্রয়োজনটা কোথায়? এ ধরনের লেনদেনের যে কোনো প্রয়োজন নেই সেটা বোঝাতেই কর লাগু করার পথে হাঁটতে পারে সরকার।  অর্থ মন্ত্রকের কর্তারা বিভিন্ন দিক খতিয়ে দেখে সিদ্ধান্ত নেবেন। এখন দেখার জুলাই মাসের ৫ তারিখ দেশের অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামণ যখন বাজেট পেশ করবেন তখন এই বিষয়টি শেষমেষ সেখানে অন্তর্ভুক্ত হয় কিনা।



Get Breaking news, live coverage, and Latest News from India and around the world on NDTV.com. Catch all the Live TV action on NDTV 24x7 and NDTV India. Like us on Facebook or follow us on Twitter and Instagram for latest news and live news updates.

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

Top