This Article is From May 31, 2019

জিডিপি বৃদ্ধি মাত্র ৫.৮ শতাংশ, চিনের থেকে পিছিয়ে পড়ল ভারত

ভারতের জিডিপি অর্থাৎ মোট দেশীয় পণ্য বা গ্রস ডোমেস্টিক প্রোডাক্ট বৃদ্ধি পেল ৫.৮ শতাংশ। গত জানুয়ারি-মার্চের হিসেব। বৃদ্ধির এই হার গত দু’বছরে সবচেয়ে কম।

জিডিপি বৃদ্ধি মাত্র ৫.৮ শতাংশ, চিনের থেকে পিছিয়ে পড়ল ভারত

অর্থনীতিবিদরা বলছেন, জিডিপি কমে যাওয়ার ফলে কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্কও তাদের হার কমাবে জুনে

ভারতের জিডিপি (GDP) অর্থাৎ মোট দেশীয় পণ্য বা গ্রস ডোমেস্টিক প্রোডাক্ট বৃদ্ধি পেল ৫.৮ শতাংশ। গত জানুয়ারি-মার্চের হিসেব। বৃদ্ধির এই হার গত দু'বছরে সবচেয়ে কম। ২০১৭ সালের এপ্রিল-জুনের পরে এত কম বৃদ্ধি এর আগে হয়নি। অর্থনীতিবিদদের আন্দাজের থেকেও খারাপ এই ফল। গত চতুর্মাসিক হিসেবের (৬.৬ শতাংশ) থেকেও কম। সংবাদ সংস্থা রয়টার্সের করা একটি সমীক্ষায় অর্থনীতিবিদদের হিসেবে জিডিপি বৃদ্ধির হার ৬.৩ শতাংশ ধরা হয়েছিল। শুক্রবারের তথ্য থেকে জানা গেল, পুরো ২০১৮-১৯ সালের অর্থনীতি আটকে রইল গড় ৬.৮ শতাংশে। অর্থনীতিবিদরা বলছেন, জিডিপি কমে যাওয়ার ফলে কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্কও তাদের হার কমাবে জুনে। 

রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া গত এপ্রিলে তাদের দ্বিমাসিক মনিটরি পলিসি রিভিউয়ে ২০১৯-২০ অর্থবর্ষের জন্য জিডিপি বৃদ্ধি ৭.৪ শতাংশ থেকে কমিয়ে ৭.২ শতাংশে নিয়ে আসে। কিছুটা সমতাযুক্ত ঝুঁকি থেকে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া লক্ষ করে জিডিপি নতুন অর্থবর্ষের প্রথম তিন মাসে বেড়ে ৬.৮ শতাংশ থেকে ৭.১ শতাংশ হবে। পরের তিন মাসে তা ৭.৩ থেকে ৭.৪ শতাংশ হবে।

সেন্ট্রাল স্ট্যাটিস্টিক্স অফিস (সিএসও) আগেই জিডিপি বৃদ্ধির গড় ৭.২ শতাংশ থাকবে বলে জানিয়েছিল।

এরই মধ্যে চিনের অর্থনীতি মার্চের হিসেবে ৬.৪ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে। শুক্রবারের সরকারি তথ্য বলছে ভারত গত দেড় বছরে দ্রুততম অর্থনৈতিক বৃদ্ধির দেশ হিসেবে এই প্রথম চিনের থেকে পিছিয়ে পড়ল।

রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার মনিটরি পলিসি কমিটি (এমপিসি) পলিসি রেট কমিয়ে ৫০ বেসিস পয়েন্টে নিয়ে এসেছে। মনে করা হচ্ছে, ৪ জুন থেকে ৬ জুনের বৈঠকে রেপো রেটকে ২৫ বেসিস পয়েন্ট কমিয়ে ৫.৭৫ শতাংশে নিয়ে আসা হবে। রয়টার্সের সূত্র অনুযায়ী, যা ২০১০-এর জুলাইয়ের পর থেকে সবচেয়ে কম।

খুচরো মুদ্রাস্ফীতি গত ছ'মাসে ৩ শতাংশের নীচে রয়েছে। সম্ভবত আগামী মাসে শুরু হতে চলা বর্ষার মরশুমে খাদ্যমূল্য বৃদ্ধির সম্ভাবনার জন‌্য অপেক্ষা না করে রেট কমানোর ঝুঁকি নেওয়ার পক্ষে তা যথেষ্ট কম।