This Article is From Jul 08, 2019

৫০,০০০ টাকার বেশি নগদ লেনদেনে প্যানের পরিবর্তে আধারও ব্যবহার করা যাবে

কালো টাকা সনাক্তকরণের জন্য সরকারি নিয়মে প্যান ব্যবহার আবশ্যিক নগদ লেনদে‌নের অন্যান্য ক্ষেত্রেও। যেমন ৫০, ০০০ টাকার হোটেল বা বিদেশ ভ্রমণের বিল।

৫০,০০০ টাকার বেশি নগদ লেনদেনে প্যানের পরিবর্তে আধারও ব্যবহার করা যাবে

আধার ও প্যানের সংযোগের শেষ তারিখ মার্চ থেকে বাড়িয়ে ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত করা হয়েছে।

হাইলাইটস

  • প্যান ও আধারের মধ্যে পরস্পর বিনিময়যোগ্যতার ঘোষণা হয়েছে এবারের বাজেটে
  • কালো টাকা সনাক্তকরণের জন্য সরকারি নিয়মে প্যান ব্যবহার আবশ্যিক
  • আধার ও প্যানের সংযোগের শেষ তারিখ ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত করা হয়েছে

৫০,০০০ হাজার টাকা বা তার বেশি নগদ লেনদেন বা আরও বহু ক্ষেত্রে প্যান (PAN) কার্ড ব্যবহার বাধ্যতামূলক। এবার সেই সব ক্ষেত্রে আধার (Aadhar) নম্বরও ব্যবহার করা যাবে বলে এক জানিএ?এছেন,  উচ্চপদস্থ আধিকারিক। ব্যাঙ্ক ও অন্যান্য সংস্থাকে এ ব্যাপারে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বলে শনিবার অজয়ভূষণ পাণ্ডে জানিয়েছেন। এবারের বাজেটে করদাতাদের সুবিধার্থে প্যান ও আধারের মধ্যে পরস্পর বিনিময়যোগ্যতার ঘোষণার পরেই এই নিয়ম চালু হয়েছে। অজয়ভূষণ জানাচ্ছেন, ‘‘এই মুহূর্তে ২২ কোটি প্যান কার্ড আছে যেগুলি আধারের সঙ্গে সংযুক্ত। আধার রয়েছে ১২০ কোটি মানুষের। তাই কেউ যদি প্যান ব্যবহার করতে চান, তাহলে তাঁকে প্রথমে আধার ব্যবহার করতে হবে, তারপর প্যান চালু করে তবে তা ব্যবহার করতে হবে। আধারের সাহায্যে এবার তিনি যে সুবিধা পাবেন, তা হল তাঁর প্যান না হলেও চলবে। সুতরাং এটি সুবিধাজনক হবে।''

Budget 2019: রেলের জন্যে পাবলিক-প্রাইভেট পার্টনারশিপ প্রস্তাব করলেন নির্মলা সীতারামান

৫০,০০০ টাকা বা তার বেশি নগদ ব্যাঙ্ক থেকে জমা করতে বা তুলতে গেলে কি আধারের জায়গায় প্যান ব্যবহার করা যাবে, এই প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, ‘‘এক্ষেত্রেও আপনি আধার ব্যবহার করতে পারবেন।''

কালো টাকা সনাক্তকরণের জন্য সরকারি নিয়মে প্যান ব্যবহার আবশ্যিক নগদ লেনদে‌নের অন্যান্য ক্ষেত্রেও। যেমন ৫০, ০০০ টাকার হোটেল বা বিদেশ ভ্রমণের বিল। এছাড়াও ১০ লক্ষ টাকার বেশি মূল্যের অস্থাবর সম্পত্তি ক্রয়ের ক্ষেত্রেও প্যান ব্যবহার বাধ্যতামূলক।

তিনি জানান, ‘‘প্যান ও আধার দুই-ই থাকবে। কেননা, কেউ আধার ব্যবহারে স্বচ্ছন্দ, কেউ আবার প্যান ব্যবহার করতে স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করেন। কিন্তু শেষ পর্যন্ত প্রত্যেক প্যানের সঙ্গে আধার সংযুক্ত থাকবে।''

অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন তাঁর বাজেট ভাষণে বলেন, ‘‘আমি প্রস্তাব রাখছি, প্যান ও আধার পরস্পর বিনিময়যোগ্য করা হোক এবং যাঁদের প্যান নেই, তাঁরা আয়কর রিটার্ন ফাইল করতে গেলে আধার নম্বর ব্যবহার করতে পারবেন। যেখানে প্যান ব্যবহার করার কথা সেখানে তাঁরা আধার ব্যবহার করতে পারেবন।''

আয়কর বিধির ১৩৯ এএ(২) ধারায় বলা হয়েছে, ২০১৭ সালের ১ জুলাই থেকে যাঁদের প্যান রয়েছে, এবং আধার রয়েছে তাঁরা আধার নম্বরটি কর কর্তৃপক্ষকে জানাবেন।

আধার ও প্যানের সংযোগের শেষ তারিখ মার্চ থেকে বাড়িয়ে ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত করা হয়েছে।

.