This Article is From Feb 03, 2019

বালুরঘাটে সভা করতে আসা যোগী আদিত্যনাথের হেলিকপ্টার নামার অনুমতি নাকচ করল রাজ্য

রবিবার বালুরঘাটে সভা করার কথা ছিল উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের। কিন্তু, তাঁর হেলিকপ্টারকে অবতরণের অনুমতিই দেওয়া হল না।

বালুরঘাটে আজ সভা করার কথা ছিল যোগী আদিত্যনাথের

হাইলাইটস

  • Yogi Adityanath was to address rally at Balurghat in West Bengal
  • He had to address the rally via phone
  • Days of Mamata Banerjee's rule in West Bengal numbered, he said
বালুরঘাট:

রবিবার বালুরঘাটে সভা করার কথা ছিল উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের। কিন্তু, তাঁর হেলিকপ্টারকে অবতরণের অনুমতিই দেওয়া হল না। ক্ষোভে ফেটে পড়ে যোগী আদিত্যনাথ বললেন, ‘জনবিরোধী' তৃণমূল কংগ্রেস সরকারকে ধিক্কার জানাই। এই রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের শাসনকাল আর বেশিদিন নেই। জনসভায় আসা জনতাদের উদ্দেশে ফোন থেকে বক্তৃতা দিয়ে যোগী আদিত্যনাথ বলেন, ১৯ জানুয়ারি ব্রিগেডে সভা করতে আসা বিরোধী নেতারা দেখে যান, কীভাবে রাজ্যটা চালাচ্ছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কীভাবে কণ্ঠরোধ করা হচ্ছে গণতন্ত্রের। দক্ষিণ দিনাজপুরের বালুরঘাটে ‘গণতন্ত্র বাঁচাও সভা' করার কথা ছিল যোগী আদিত্যনাথের। কিন্তু সভাস্থলের সামনে তাঁর হেলিকপ্টার অবতরণের অনুমতি না মেলায় তিনি উপস্থিত থাকতে পারেননি।

“তৃণমূল সরকার তো আপনাদের কাছে আমাকে আসতে দিল না। আমাকে তাই মোদীজির ডিজিটাল ইন্ডিয়ার শরণাপন্ন হয়ে আপনাদের উদ্দেশে বক্তব্য পেশ করতে হল। এই তৃণমূল সরকার জনবিরোধী, গণতন্ত্র বিরোধী। এবং, আরও যা গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার, তা হল জাতীয় নিরাপত্তা বিষয়ে একফোঁটা সচেতন নয়”, বলেন যোগী আদিত্যনাথ।

এই নিয়ে দ্বিতীয়বার বিজেপি নেতার হেলিকপ্টার অবতরণের আবেদন খারিজ করে দিল রাজ্য সরকার।

এর আগে এই একই ঘটনা ঘটেছিল বিজেপির জাতীয় সভাপতি অমিত শাহ'র সঙ্গে। মালদার বিমানপোতে জায়গা কম বলে কারণ দর্শানোয় অমিত শাহকে শেষমুহূর্তে স্থান বদলে বেসরকারি হেলিপ্যাডে অবতরণ করতে হয়েছিল।