2021 Assembly Polls: স্বমহিমায় দলকে ফোরানোর ডাক মমতার

২০১৯-এর লোকসভা নির্বাচনে একেবারেই কাজ করেনি মমতা-ম্যাজিক। সামনেই ২০২১-এর বিধানসভা নির্বাচন।

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS
2021 Assembly Polls: স্বমহিমায় দলকে ফোরানোর ডাক  মমতার

2021 Assembly Polls: "বিশ্বাসঘাতক"দের দল ছাড়তে বললেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (ফাইল ছবি)


কলকাতা: 

২০১৯-এর লোকসভা নির্বাচনে ( Lok Sabha polls) একেবারেই কাজ করেনি মমতা-ম্যাজিক। সামনেই ২০২১-এর বিধানসভা নির্বাচন (2021 assembly polls)। খারাপ ফলাফলের হতাশা কাটিয়ে দল যাতে আগামী নির্বাচনে স্বমহিমায় ফিরতে পারে তার জন্য শুক্রবার দলীয় কর্মীদের আদা-জল খেয়ে উঠেপড়ে লাগার নির্দেশ দিলেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)।

পাশাপাশি তিনি বাঁকুড়া ও ঝাড়গ্রাম জেলার নেতাদের সঙ্গে গতকাল বৈঠকের সময় বলেন, "বিশ্বাসঘাতক"দের দলে কোনও জায়গা নেই। যদি দলের নির্দেশ মেনে সবাই চলতে পারেন, ভালো। না হলে এখনই তাঁরা চাইলে দলত্যাগ করতে পারেন। তাঁর দাবি, বিশ্বাসঘাতকদের উপস্থিতি দলের আরও ক্ষতি করছে।

শুক্রবার বৈঠকের পর বৈঠকের বাঁকুড়ার এক প্রবীণ নেতা জানান, একজন "দলের সুপ্রিমো ২০২১-এর নির্বাচনে রাজ্যে তৃণমূলকে সংখ্যাগরিষ্ঠ দল হিসেবে ফিরিয়ে আনার দায়িত্ব দিয়েছেন সমস্ত দলীয় সমর্খ-কর্মীদের।একই সঙ্গে তাঁর নির্দেশ, দলের কেউ যদি তলায় তলায় বিজেপির হয়ে কাজ করেন, তাহলে এক্ষুণি তাঁরা দলত্যাগ করুন।"

প্রসঙ্গত, দলের সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা এবং লোকসভা নির্বাচনে খারাপ ফলাফলের জন্য ইতিমধ্যেই মুখ্যমন্ত্রী দলের একাংশের নেতাদের দিকে অভিযোগের আঙুল তুলেছেন। কারণ, লোকসভা নির্বাচনে শাসকদল এবং বিরোধী দল বিজেপির মধ্যে আসনের ফারাক ছিল মাত্র তিনটি।

একই সঙ্গে দলের হারানো গরিমা ফেরাতে পুরনো কর্মীদের ফিরিয়ে আনার কথাও বলেন মমতা। একই সঙ্গে তাঁর অভিযোগ, দলের অনেকেই ঠিকমতো কাজ করছেন না। সাধারণ মানুষকে সরকারি সুযোগসুবিধে পাইয়ে দেওয়ার টোপ দেখিয়ে ঘুষ নিচ্ছেন। এতেও নষ্ট হচ্ছে দলের ভাবমূর্তি। তাই এই ধরনের কাজকর্ম থেকে দলীয় নেতা-কর্মী-মন্ত্রীদের দূরে থাকার জন্য বারবার নির্দেশ দেন তিনি।

আরেক দলীয় নেতার কথায়, "মুখ্যমন্ত্রী সবাইকে পিছিয়ে পড়া জেলাগুলির দিকে বিশেষ নজর দিতে বলেছেন। সেই সব জেলার মানুষদের সঙ্গে যোগাযোগ বাড়ানোর নির্দেশ দিয়েছেন আমাদের। সেই অনুযায়ী আগামী ২০২১ সালের নির্বাচনের আগেই এই ফাঁক পূরণ করতে হবে। একই সঙ্গে প্রশাসনকেও আরও দায়িত্বশীল হওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন তৃণমূল সুপ্রিমো। "

প্রসঙ্গত, দলের ভাবমূর্তি ফেরাতে কিছুদিন আগেই মমতা মেদিনীপুর, বাঁকুড়া, বীরভূম, বর্ধমান, কলকাতা, কোচবিহার, জলপাইগুড়ি, বর্ধমান, মালদা, পুরুলিয়া ও নদিয়া জেলায় নেতা-বিধায়কদের কাটমানি (cut money)ফেরত দেওয়ার কড়া নির্দেশ দেন। নেত্রীর সেই নির্দেশ মেনে ইতিমধ্যেই ওপরে বলা জেলাগুলির কয়েকটিতে কাটমানি ফেরত দেওয়া হয়েছে জনসাধারণকে।



পশ্চিমবঙ্গের খবর, কলকাতার খবর , আর রাজনীতি, ব্যবসা, প্রযুক্তি, বলিউড আর ক্রিকেটের সকল বাংলা শিরোনাম পড়তে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................