নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও ফাটল উচ্চমাত্রার শব্দবাজি, নথিভুক্ত ১৪০টি অভিযোগ

West Bengal Pollution Control Board এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, ৯০ ডেসিবেলের উপরে শব্দবাজি ফাটানো নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হলেও জমা পড়েছে ১৪০টি অভিযোগ

নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও ফাটল উচ্চমাত্রার শব্দবাজি, নথিভুক্ত ১৪০টি অভিযোগ

Kali Puja & Diwali: শব্দবাজির দাপটে নাজেহাল অবস্থা, জমা পড়ল প্রচুর অভিযোগ

কলকাতা:

রেহাই নেই শব্দদানবের হাত থেকে। সবরকমের সতর্কতা ও কড়া নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও শহর (Kolkata) তথা রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় ফাটল উচ্চমাত্রার শব্দবাজি। পশ্চিমবঙ্গ দূষণ নিয়ন্ত্রণ বোর্ডের কাছে কলকাতা এবং তার পার্শ্ববর্তী অঞ্চলে কালীপুজো (Kali Puja) ও দীপাবলি (Diwali) উদযাপনের সময় উচ্চমাত্রার শব্দবাজি ফাটানোর ভুরিভুরি অভিযোগ জমা পড়ল। জানা গেছে, এখনও পর্যন্ত নথিভুক্ত অভিযোগের সংখ্যা ১৪০টি।  সোমবার ডব্লিউবিপিসিবির (West Bengal Pollution Control Board) এক বিবৃতিতে জানানো হয়েছে ৯০ ডেসিবেলের উপরে শব্দবাজি ফাটানো নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হলেও শহরের বেশ কয়েকটি জায়গায় সেই নিষেধাজ্ঞা অমান্য করা হয়েছে। কলকাতার শ্যামপুকুর, পাটুলি, পর্ণশ্রী, টালা, গড়িয়াহাট, নিউ আলিপুর, রিজেন্ট পার্ক, কসবার মতো অঞ্চলগুলি থেকে অভিযোগ পায় পশ্চিমবঙ্গ দূষণ নিয়ন্ত্রণ বোর্ড।

কোনও রকেট বা শব্দবাজি নয়, এই দীপাবলিতে বৈধ শুধু আতসবাজি

রবিবার রাতেও উচ্চমাত্রার শব্দবাজি ফাটানোর বিষয়ে কলকাতার শেক্সপিয়ার সরণি এবং ঠাকুরপুকুর অঞ্চল থেকে বেশ কয়েকটি অভিযোগ পায় ডব্লিউবিপিসিবি। এক বিবৃতিতে পশ্চিমবঙ্গ দূষণ নিয়ন্ত্রণ বোর্ড জানিয়েছে, শুধু শহর কলকাতাই নয়, আশেপাশের অঞ্চলগুলি যেমন বিধাননগর,খড়দা, সোনারপুর, লেক টাউন, বজবজের মতো অঞ্চলগুলিতেও নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ফাটানো হয়েছে প্রচণ্ড আওয়াজ সৃষ্টিকারী শব্দবাজি।

মর্মান্তিক! বাজি পোড়াতে গিয়ে কলকাতার হরিদেবপুরে মৃত্যু হল ৫ বছরের শিশুর

ওই বিবৃতিতে আরও বলা হয়, ডব্লিউবিপিসিবি বা পশ্চিমবঙ্গ দূষণ নিয়ন্ত্রণ বোর্ড শহর ও শহরতলীর আশেপাশের ১০ টি আবাসনগুলিতে উচ্চমাত্রার আতসবাজি ফাটানোর অভিযোগও পেয়েছে। আবাসনগুলি মহেশতলা,বেলঘরিয়া, উত্তরপাড়া, শ্রীরামপুর, হাওড়া, লেক টাউনে অবস্থিত বলে জানা গেছে। 



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদনা করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে।)
More News