৮ শহরের সঙ্গে যুক্ত বিমান ৬ জুলাই থেকে স্থগিত করতে চায় রাজ্য, কেন্দ্রকে চিঠি

৮ শহরের সঙ্গে যুক্ত বিমান ৬ জুলাই থেকে স্থগিত করতে চায় রাজ্য, কেন্দ্রকে চিঠি
কলকাতা:

দিল্লি, মুম্বই সহ দেশের যে সমস্ত এলাকাগুলিতে করোনার প্রকোপ বেশি, এমন ৮টি শহরের সঙ্গে যুক্ত বিমান পরিষেবা বন্ধ করতে চায় রাজ্য, ইতিমধ্যেই অসামরিক বিমান মন্ত্রককে এনিয়ে চিঠিও দেওয়া হয়েছে রাজ্যের তরফে। তালিকায় রয়েছে পুনে, নাগপুর, চেন্নাই, ইন্দোর, আহমেদাবাদ এবং সুরাটও। সূত্র মারফৎ এমনই জানা গিয়েছে। অসামরিক বিমান মন্ত্রকে রাজ্যের তরফে বলা হয়েছে, ব্যপকভাবে ছড়িয়ে পড়া সমস্ত শহর থেকে পরিষেবা বন্ধ করতে হবে। ব্যপকভাবে ছড়িয়ে পড়া সমস্ত শহর থেকে পরিষেবা বন্ধ করতে হবে। অন্যান্য জায়গাগুলিতে প্রতিটি সংস্থার একটি করে উড়ান চলবে।

কলকাতা, অণ্ডাল ও বাগডোগরার মধ্যে বিমান পরিষেবা সীমাবদ্ধ রাখা উচিত।

এর আগে, যে সমস্ত রাজ্যে করোনার প্রকোপ বেশি, সেখান থেকে লোকজনের রাজ্যে ঢোকা বন্ধ করে দেয় তামিলনাড়ু ও কর্নাটকের মতো রাজ্যগুলি।

তবে সর্বশেষ নির্দেশিকায়, এই ধরণের নীতি কিছুটা লাঘব করেছে সরকার।

পরিস্থিতি পর্যালোচনা করে কনটেইনমেন্ট জোনের বাইরে বেশ কিছু ক্ষেত্রে কাজের ব্যাপারে নিষেধাজ্ঞা জারি করতে পারে রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলি। কেন্দ্রের তরফে বলা হয়েছে, “ব্যক্তি ও সামগ্রির আন্তঃরাজ্য ও অন্তঃরাজ্য যাতায়াতে কোনও নিষেধাজ্ঞা নেই”।

নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, “এই ধরণের যাতায়াতে কোনও পৃথক অনুমতি, অনুমোদন, ই-পারমিট প্রয়োজন নেই”।

করোনা ভাইরসে দিল্লিতে আক্রান্ত ৮০,০০০ জন, এটি দেশের মধ্যে দ্বিতীয় বৃহত্তম, সবচেয়ে ওপরে মহারাষ্ট্র। মুম্বইয়ে আক্রান্ত ১.৮৬ লক্ষ। তৃতীয়স্থানে তামিলনাড়ু, তারমধ্যে অনেকেই রাজধানী চেন্নাইয়ের বাসিন্দা।