বাংলায় নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ, অব্যাহত সড়ক ও রেল অবরোধ

Protest Over Citizenship Act: মুর্শিদাবাদ ও উত্তর ২৪ পরগনা জেলা এবং হাওড়াতেও বিভিন্ন জায়গায় অবরোধ হয়, এলাকায় উত্তেজনা ছড়ানোর খবর মিলেছে

বাংলায় নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ, অব্যাহত সড়ক ও রেল অবরোধ

West Bengal: নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদে রাজ্য জুড়ে প্রতিবাদ-আন্দোলন চলছে (ফাইল চিত্র)

কলকাতা:

সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের (Citizenship Act) বিরুদ্ধে বাংলায় আছড়ে পড়েছে বিক্ষোভের ঝড়। শনিবারও রাজ্যের (West Bengal) বিভিন্ন স্থানে সড়ক ও রেল অবরোধ হয়, ফলে দুর্ভোগে পড়তে হয় মানুষজনকে। পুলিশ জানিয়েছে, মুর্শিদাবাদ ও উত্তর ২৪ পরগনা জেলা এবং হাওড়াতেও বিভিন্ন জায়গায় অবরোধ হয়, এলাকায় উত্তেজনা ছড়ায় বলেও জানা যায়। এদিকে উত্তর ও দক্ষিণবঙ্গকে সংযোগকারী মূল রাস্তা জাতীয় ৩৪ নম্বর হাইওয়ে অবরোধ করে বিক্ষোভ (Protest Over Citizenship Act) দেখানো হয়। প্রতিবাদ আন্দোলন হয় মুর্শিদাবাদেও, সেখানে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদে অবরোধ করে উত্তেজিত জনতা। ওই জেলার আরও কয়েকটি সড়কও অবরোধ করা হয় বলে জানা গেছে। হাওড়া জেলার ডোমজুড় এলাকায় বিক্ষোভকারীদের টায়ার জ্বালিয়ে বিক্ষোভ দেখায়।

Protest Over Citizenship Act: রাজ্যের বিভিন্ন অঞ্চলে বিক্ষোভ, ট্রেন চলাচলে বিঘ্ন শিয়ালদহ শাখায়

এদিকে নাগরিকত্ব বিল নিয়ে বিক্ষোভ চলাকালীন হাওড়ায় বেশ কয়েকটি গাড়ি ভাঙচুর করা হয় এবং অবরোধ করা হয় জাতীয় সড়ক, ফলে একের পর এক গাড়ি সারিবদ্ধ ভাবে দাঁড়িয়ে পড়ে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ওই এলাকায় যেতে হয় বিরাট পুলিশ বাহিনীকে।

শুধু সড়ক পথই নয়, নাগরিকত্ব আইন বাংলায় প্রয়োগ করতে দেওয়া হবে না এই দাবি করে পূর্ব রেলওয়ের শিয়ালদহ-হাসনাবাদ শাখার বেশ কয়েকটি রেল স্টেশনে দফায় দফায় ট্রেন অবরোধ করা হয়। রেল সূত্রে জানা গেছে, সকাল ৬টা ২৫ মিনিট নাগাদ রেল অবরোধ করা হয় শণ্ডালিয়া,কাকড়া ও মির্জাপুর স্টেশনগুলিতেও।

নাগরিকত্ব আইন আটকানোর ক্ষমতা নেই রাজ্যের, জানাল সরকারি সূত্র

নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদ শুক্রবারও উত্তাল হয় রাজ্য। বিভিন্ন জায়গায় দফায় দফায় অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখান বহু মানুষ। তাঁদের একটাই দাবি, প্রত্যাহার করতে হবে এই বৈষম্যমূলক আইন। সড়ক ও রেলপথ অবরোধের জেরে প্রায় স্তব্ধ হয়ে যায় শহরের সামগ্রিক গতি। শুক্রবার বেশ কয়েকজন বিক্ষোভকারী মিলে মুর্শিদাবাদের বেলডাঙা স্টেশনে আগুন লাগিয়ে দেয়। সেখানে উপস্থিত রেলপুলিশ বাহিনীর কর্মীদেরও প্রচণ্ড মারধর করে হাজার হাজার ক্ষিপ্ত জনতা। জেলার বহু সংখ্যালঘু সংগঠন গণ বিক্ষোভের ডাক দিয়েছে বলে জেলা পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে। 



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদনা করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে।)
More News