ঝাড়গ্রামে শিক্ষকের বাড়ি থেকে উদ্ধার বিরল প্রজাতির গিরগিটি

গ্রামবাসী ও বন দফতরের যার প্রচেষ্টায় অবশেষে জালে ধরা দেয় সেই গিরগিটি। বন দফতর জানিয়েছে, বিলুপ্তপ্রায় ২০২টি প্রজাতির মধ্যে একটা এই গিরগিটি

ঝাড়গ্রামে শিক্ষকের বাড়ি থেকে উদ্ধার বিরল প্রজাতির গিরগিটি

এক শিক্ষকের বাড়ির দেওয়াল থেকে উদ্ধার হয় সেই গিরগিটি।

ঝাড়গ্রাম:

ঝাড়গ্রামের সাঁকরাইল গ্রামে বিরল প্রজাতির গিরগিটি (rare species of Chameleon in Jhargram) উদ্ধার হল শনিবার। স্থানীয় শিক্ষক ঝরেশ্বর প্রধানের বাড়ি দেওয়াল থেকে এই সরীসৃপকে উদ্ধার করেছে বন দফতর। জানা গিয়েছে, শনিবার সকালে দেওয়ালে ওই গিরগিটি দেখে শিক্ষক পরিবার টিকটিকি দেখে ভুল করে। কিন্তু রঙ বদল দেখে তাঁরা খবর দেন পড়শিদের। সেখান থেকে খবর যায় বন দফতরে (Bengal Forest Department)। গ্রামবাসী ও বন দফতরের যার প্রচেষ্টায় অবশেষে জালে ধরা দেয় সেই গিরগিটি। বন দফতর জানিয়েছে, বিলুপ্তপ্রায় ২০২টি প্রজাতির মধ্যে একটা এই গিরগিটি। দক্ষিণবঙ্গে বিলুপ্তপ্রায় প্রজাতির গিরগিটি উদ্ধারে যখন চাঞ্চল্য, তখন উত্তরবঙ্গের বক্সা টাইগার রিজার্ভে বাঘের সংখ্যা বাড়াতে উদ্যোগ নিল রাজ্য বন দফতর।

জানা গিয়েছে, অসমের কাজিরাঙা থেকে ছয়টি বাঘ আনা হচ্ছে আলিপুরদুয়ারের এই রিজার্ভ ফরেস্টে। কাজিরাঙা জাতীয় উদ্যানের প্রধান রবিকান্ত সিনহা বলেছেন, "বাঘ রপ্তানি করতে পথ প্রসস্থ করা হয়েছে। বক্সা টাইগার রিজার্ভে রয়েল বেঙ্গল বাঘের সংখ্যা বাড়াতে উদ্যোগী কেন্দ্র ও রাজ্যের বন দফতর। সম্প্রতি আমাদের ক্যামেরায় দুটি বাঘের অস্তিত্ব চিহ্নিত হয়েছে। বাঘের কোর এলাকায় এই দুটি প্রাণীকে দেখা গিয়েছে। মানে মানে আমাদের আরও সংখ্যা বাড়াতে হবে।" জানা গিয়েছে, কাজিরাঙা আর বক্সার বাস্তু এক। ফলে ওই চারটি বাঘের পরিবেশের সঙ্গে মানাতে অসুবিধা হবে না।

বন দফতর সূত্রে খবর, ৭৪০ বর্গ কিমি জুড়ে থাকা বক্সা টাইগার রিজার্ভ তরাই ও ডুয়ার্স বেষ্টিত। এই ফরেস্টের ৩৯০ বর্গকিমি বাঘেদের কোর এরিয়া। এই এলাকায় প্রায় ৭৩ স্তন্যপায়ী প্রজাতির বাস। যার মধ্যে লেপার্ড, চিতল হরিণ ও বন্য শুয়োর আছে।
সম্প্রতি বক্সা টাইগার রিজার্ভ এই স্তন্যাপায়ীদের নিয়ে একটি স্বল্পদৈর্ঘ্যের ছবি করেছে। জাতীয় বাঘ সংরক্ষণ সংগঠনের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে সেই ছবি।