জিয়াগঞ্জে খুন হওয়া শিক্ষকের আত্মীয়দের সমস্ত আইনি সহায়তা দেবে সরকার: মুখ্যমন্ত্রী মমতা

নিহত শিক্ষক বন্ধু প্রকাশ পালের মা এবং তাঁর আত্মীয়স্বজনরা যদিও আরএসএসের সঙ্গে তাঁর সম্পর্ক অস্বীকার করেছেন।

জিয়াগঞ্জে খুন হওয়া শিক্ষকের আত্মীয়দের সমস্ত আইনি সহায়তা দেবে সরকার: মুখ্যমন্ত্রী মমতা
কলকাতা:

জিয়াগঞ্জে স্ত্রী ও পুত্রসহ নিহত শিক্ষক বন্ধু প্রকাশ পালের খুনের ঘটনায় তাঁর আত্মীয়স্বজনদের আইনি সাহায্যের আশ্বাস দিয়েছেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। শুক্রবার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিহত শিক্ষকের পরিবারের সদস্যদের জানান, কোনও প্রকার প্রয়োজন হলে মুর্শিদাবাদ জেলার এই স্কুল শিক্ষকের হত্যার ঘটনায় সমস্ত রকমের আইনি সহায়তা দেবে রাজ্য সরকার। মৃত শিক্ষক বন্ধু প্রকাশ পালের ছয়জন আত্মীয় বৃহস্পতিবার রাজ্য সচিবালয়ে মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করেন। দশমীর দিন জিয়াগঞ্জে রক্তে ভেসে যাওয়া অবস্থায় বাড়ির ভিতর থেকে উদ্ধার করা হয় ৩৫ বছর বয়সী স্কুল শিক্ষক বন্ধু প্রকাশ পাল (Bandhu Prakash Pal), তাঁর স্ত্রী বিউটি (৩০) ও ছেলে অঙ্গনের লাশ। বাড়ির ভিতরে ঢুকে আট বছরের শিশু সহ প্রাথমিক শিক্ষক ও তাঁর গর্ভবতী স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় রাজনীতির রঙ জুড়ে যায় যখন বিজেপির আদর্শবিষয়ক পরামর্শদাতা Rashtriya Swayamsevak Sangh বা রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘ (আরএসএস) দাবি জানায় যে, বন্ধু প্রকাশ পাল একজন আরএসএস কর্মী (RSS worker) ছিলেন।

আরএসএস কর্মীর হত্যার পিছনে পরিবারের ঘনিষ্ঠ কারও যোগ রয়েছে, মনে করছে পুলিশ

আরএসএস এবং বিজেপি দু' তরফেই দাবি ওঠে যে শিক্ষক বন্ধু প্রকাশ পাল আরএসএসের সাপ্তাহিক কার্যক্রম ‘মিলন'-এর সদস্য হয়েছিলেন। নিহত শিক্ষক বন্ধু প্রকাশ পালের মা এবং তাঁর আত্মীয়স্বজনরা যদিও আরএসএসের সঙ্গে তাঁর সম্পর্ক অস্বীকার করেছেন। “যদি প্রয়োজন হয় তাহলে মুখ্যমন্ত্রী আমাদের আইনি সাহায্যের আশ্বাস দিয়েছেন। আমরা মুখ্যমন্ত্রীর থেকে কোনও আর্থিক সহায়তা চাইনি,” সচিবালয়ে সাংবাদিকদের বলেন তার খুড়তুতো ভাই রাজেশ ঘোষ।

তিনি আরও বলেন, “আমরা এই খুনের ঘটনায় পুলিশের তদন্তে খুশি। মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করার পর এখন বেশ সন্তুষ্ট আমরা।” বারেবারেই তিনি জানিয়েছেন এই ঘটনায় পরিবারের সঙ্গে কোনও রাজনৈতিক সংযোগ নেই।

আরএসএস কর্মী ছিলেন জিয়াগঞ্জে স্ত্রী-পুত্র সহ খুন হওয়া প্রাথমিক শিক্ষক, দাবি বিজেপির

বীমা করিয়ে দেওয়ার নাম করে একজন রাজমিস্ত্রির কাছ থেকে শিক্ষক বন্ধু প্রকাশ টাকা নিয়েছিলেন, এই খুনের সঙ্গে জড়িত সন্দেহে ওই রাজমিস্ত্রিকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।

এদিন বন্ধু প্রকাশ পালের আত্মীয়রা কলকাতায় রাজ্য পুলিশের সদর দফতর ভবানী ভবনে যান এবং এই মামলায় উর্ধ্বতন পুলিশ কর্তাদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন।



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদনা করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে।)
More News