পুত্রবধূর হাতে বৃদ্ধা শাশুড়ি নির্যাতিত

ভিডিওটি বাঁশদ্রোণীর পুলিশ সার্জেন্ট শুভ্র চক্রবর্তীর নজরে পড়ে, তিনি তাঁর উচ্চ পদস্থ আধিকারিকে বিষয়টি জানান।এই ফুটেজের সাহায্যে পুলিশ পুত্রবধূ স্বপ্না পালের কাছে পৌঁছায়

পুত্রবধূর হাতে বৃদ্ধা শাশুড়ি নির্যাতিত

ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে, স্বপ্না পাল তার শাশুড়ির চুলের মুঠি ধরে টানছে

কলকাতা: এটা কোনো টিভি সিরিয়াল বা সিনেমা নয়, এটি আমাদের সমাজেরই এক জ্বলন্ত ঘটনা। দক্ষিণ কলকাতার গড়িয়াতে বৃদ্ধা শাশুড়ি পুত্র-বধূর হাতে মার খাওয়ার ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। পুত্রবধূর অনুমতি ছাড়া ফুল তোলার জন্য তাকে মার খেতে হয়েছে বলে জানা যাচ্ছে।কোনো এক প্রতিবেশী এই ঘটনাটি ভিডিও করে সোশ্যাল মিডিয়াতে ছেড়ে দেয়। 

ভিডিও ফুটেজ থেকে দেখা গেছে, 75 বছর বয়সী শাশুড়ি যশোদা পালের হাতে একটা প্লাস্টিকের প্যাকেট ধরা আছে। কয়েক ঘন্টার মধ্যেই এই ভিডিওটি অন-লাইনের মাধ্যমে 25,000 শেয়ার পেয়ে গেছিল। 

দেখা গেছে যে, পুত্রবধূ এই বৃদ্ধার চুলের মুঠি ধরে তাকে মারছে। ফেসবুকে পোস্টটি দেখার পরে পুলিশের কাছে এই তথ্য পৌঁছায়, জানা গেছে যে যশোদা পাল অমনেশিয়ার রোগী,অর্থাৎ তার ভুলে যাওয়ার অসুখ আছে।পুত্রবধূর ''অনুমতি ছাড়া ফুল তোলার অপরাধে তাকে শাস্তি ভোগ করতে হয়েছে''। জানা যাচ্ছে যে, এটাই প্রথম নয়, সে নাকি প্রায়ই পুত্রবধূর হাতে মার খায়। বৃদ্ধার স্বামী কয়েক বছর আগে মারা গেছে । 


এই ভিডিওটি বাঁশদ্রোণীর পুলিশ সার্জেন্ট শুভ্র চক্রবর্তীর নজরে পড়ে, তিনি তাঁর উচ্চ পদস্থ আধিকারিকে বিষয়টি জানান।এই ফুটেজের সাহায্যে পুলিশ পুত্রবধূ স্বপ্না পালের কাছে পৌঁছায়।পুলিশ সূত্র থেকে জানা গেছে যে, বুধবার স্বপ্না পালকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল, পরে তাকে জামিনে ছাড়া হয়।

 সোশ্যাল মিডিয়াতে ঘটনাটি দেখার পরে বহু লোক এই বিষয়ে মন্তব্য করেছে, এবং এটিকে ''অমানবিক'' কাজ বলে আখ্যা দিয়েছে, তারা অবিলম্বে তার শাস্তিও চেয়েছে।