পর্যায়ক্রমিক হিংসার ঘটনায় দার্জিলিংয়ের উন্নয়ন ব্যাহত হয়েছে: মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

মঙ্গলবার নিউ দিঘায় বিশ্ববাংলা কনভেনশন সেন্টারের (Biswa Bangla Convention Centre) উদ্বোধন করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS
পর্যায়ক্রমিক হিংসার ঘটনায় দার্জিলিংয়ের উন্নয়ন ব্যাহত হয়েছে: মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

নতুন জগন্নাথ মন্দির তৈরি হবে দিঘায়, ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর।


দিঘা: 

দিঘায় ক্রমশ পর্যটকের চাপ বাড়ছে। ঠিক উল্টো ছবি, দার্জিলিংয়ের (Darjeeling)। অশান্তি এড়াতে এখন আর শৈল শহরমুখো হতে চান না মানুষ। সৈকত নগরীতে বসে সে কথাই বললেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (CM Mamata Banerjee)। জানালেন, ঘনঘন হিংসাত্মক (unrest) পরিবেশের কারণে উন্নয়নের কাজ করা যায়নি দার্জিলিংয়ে। দেশের অন্যতম পর্যটন কেন্দ্র গড়ার পরিকল্পনাও ধাক্কা খেয়েছে পরিবেশগত কারণে। দিঘার (Digha) ব্যবসায়ী, স্থানীয় নেতা ও প্রশাসনের আধিকারিকদের দার্জিলিংয়ের কথা তুলে ধরে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘এমন কিছু করবেন না যাতে পর্যটকরা চলে যায়।' এরপরই বাংলার উত্তরের শৈল শহর প্রসঙ্গে জানান, ‘দার্জিলিংয়ে অনেক কিছু নষ্ট করা হয়েছে। আমি সেখানকার উন্নয়নের জন্য অনেক কিছু ভেবেছিলাম। কিন্তু, দশ বছর অন্তর অন্তর এলাকায় হিংসার পরিবেশ তৈরি হলে পরিকল্পনা রূপায়ণ অসম্ভব।'

দার্জিলিং-এ স্থায়ী রাজনৈতিক সমাধান চায় বিজেপি: দিলীপ ঘোষ

মঙ্গলবার নিউ দিঘায় বিশ্ববাংলা কনভেনশন সেন্টারের (Biswa Bangla Convention Centre) উদ্বোধন করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। স্থানীয়দের তিনি স্মরণ করিয়ে দেন, ‘কলকাতা, হাওড়া সহ রাজ্যের বিভিন্নপ্রান্ত থেকে পর্যটকরা দিঘায় আসেন। মনে রাখতে হবে, পর্যটকরা যেন কোনও অসুবিধার মধ্যে না পড়েন বা অসন্তুষ্ট না হন। কারণ পর্যটকরাই লক্ষ্মী, তাদের তাড়িয়ে দেবেন না।'   

দিঘায় সুন্দর পরিবেশ বজায় রাখতেও জোড় দেন মুখ্যমন্ত্রী। প্রশাসনের উদ্দেশ্যে তাঁর নির্দেশ, ‘কম দূরত্বে দিঘা অত্যন্ত ঘোরার জায়গা। সুন্দর পরিবেশ বজায় রাখতে কেউ যেন সমুদ্র সৈকতে দোকান না বসাতে পারে ও সবুজ ধ্বংস না করে তা লক্ষ্য রাখতে হবে।' দিঘা থানার আইসি ও উন্নয়ন পর্ষদকে বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে দেখার নির্দেশ দেন তিনি।

বদলে যাবে দার্জিলিং বিশ্ববিদ্যালয়ের নাম? নাম বদল করতে বিল পাস বিধানসভায়

দিঘায় জগন্নাথ মন্দির রয়েছে। সেটিকেই সংস্কার করার কথা জানান মুখ্যমন্ত্রী। পুরির সঙ্গে দিঘার তুলনা করে তিনি বলেন, ‘আমি জগন্নাথের ভক্ত ও পুরি গিয়েছি। পুরি ছোট্ট জায়গা হলেও আমাদের মতো সুন্দর করে ওরা(ওড়িশ্যা সরকার) সাজাতে পারেনি। জেলা শাসককে স্থানীয়জগন্নাথ মন্দির সংস্কারের নির্দেশ দিয়েছি। একই সঙ্গে আমরা মসজিদ ও চার্চও তৈরি করে দেবে।' এর ফলে আরো বেশি সংখ্যক পর্যটক সৈকত শহরে আসবেন বলে আসা করেন মুখ্যমন্ত্রী।



পশ্চিমবঙ্গের খবর, কলকাতার খবর , আর রাজনীতি, ব্যবসা, প্রযুক্তি, বলিউড আর ক্রিকেটের সকল বাংলা শিরোনাম পড়তে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................