This Article is From Dec 26, 2018

সান্তার রেইনডিয়ার সেজে দোকান থেকে একের পর এক সাফাই ‘নির্ভীক’ চোরের

"সান্তার সাহায্যকারী" এই হরিণের মুখোশ পরে মহিলা দোকান থেকে একের পর এক জিনিস চুরি করে নিজের ব্যাগে ভরছেন।

সান্তার রেইনডিয়ার সেজে দোকান থেকে একের পর এক সাফাই ‘নির্ভীক’ চোরের

রুডলফের মুখোশ খুলে সোজা সিসিটিভি ক্যামেরায় তাকান ওই চোর

সান্তা আসেন উপহার দিতে। সান্তার সহযোগী সেই হরিণ তাঁরাও তো উফার আর আনন্দ বিলোতেই আসে। তবে এই রুডলফ লাল-নাকের রেইনডিয়ার কিন্তু সান্তার সহকারি না, বরং আজব এক ছদ্মবেশী চোর। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের কলোরাডোতে পুলিশ কর্তৃক প্রকাশিত একটি সিসিটিভি ফুটেজ দেখে একই সঙ্গে হাসছেন মানুষ আবার অবাকও হচ্ছেন। এ এক অদ্ভুত চোর, কোনও কিছুরই পরোয়া নেই তাঁর। চুরির সময় পরিচয় গোপন করার জন্য একটি রুডলফ হরিণের মুখোশ এঁটে দোকানে ঢোকে ওই মহিলা। ফোর্ট কলিন্স পুলিশ এই চোরকে 'রুডলফ রেড নোসড বার্গলার' নামেই ডাকছে। ক্রিসমাসের বিশেষ এই চোর অবশ্য চুরি শেষে মুখোশ খুলে দেখাও দিয়েছিল।

ফোর্ট কলিন্স পুলিশের শেয়ার করা সিসিটিভি ফুটেজটিতে দেখা যাচ্ছে যে এক মহিলা একটি বড় দোকান ঘরে প্রবেশ করছে। তাঁর মুখে বেশ বড় একটি ফারের রু‍ডলফের মাথা পরানো রয়েছে। "সান্তার সাহায্যকারী" এই হরিণের মুখোশ পরে মহিলা দোকান থেকে একের পর এক জিনিস চুরি করে নিজের ব্যাগে ভরছেন। তবে ভীষণ ডাকাবুকো চোর তিনি। তাই তো জিনিস নেওয়া শেষ হলে তিনি মুখোশ খুলে ফেলেন এবং সরাসরি নিরাপত্তা ক্যামেরার দিকে তাকান।

বিয়ের খরচ কুড়ি হাজার, টুইটারের মন জিতে নিল এক সাধারণ বিয়ের গল্প

“১৮ ডিসেম্বর বেশ সকালের দিকে হিকোরি স্ট্রিটের ৩০০ ব্লকের একটি দোকানে ঢুকে পড়ে এক চোর। বেশ কিছু সামগ্রী চুরি করেছে এই চোর। চুরি করার সময় সান্তার সহকারীর ছদ্মবেশে নিজেকে লুখিয়ে রেখেছিল চোর। যদি আপনার কাছে এই ঘটনা সম্পর্কে কোন তথ্য থাকে বা সন্দেহভাজন ব্যক্তির পরিচয় জানলে, আমাদের অবিলম্বে জানান যাতে আমরা সেন্ট নিককে অবহিত করতে পারি” ভিডিও শেয়ার করে লিখেছে ফোর্ট কলিন্স পুলিশ।

রবিবার শেয়ার হওয়ার পর থেকেই, ভিডিওটি ২৩,000-এরও বেশি মানুষ দেখেছেন এবং বেশ কিছু মজার মজার মন্তব্যও এসেছে।

বাস্তবের র‍্যাপুনজেল! ৫ ফুট ৭ ইঞ্চি লম্বা চুল নিয়ে গিনেসে নাম গুজরাটের নীলাংশীর

"এই নতুন প্রমাণের আলোকে এখন কি 'গ্রিনচ' কে বহিষ্কার করা হবে?" এক মন্তব্যকারীর বিস্মিত প্রশ্ন। "চুরি মোটেও মজার নয়, কিন্তু যে উপায়ে চুরি করা হয়েছে তা অসম্ভব মজার!” লিখেছেন অন্য একজন।

এই বছরের জুলাই মাসেই, আরেকটি উদ্ভট ছদ্মবেশ ইন্টারনেটে ভাইরাল হয়ে যায়। মুখোশ হিসেবে এক চোর একখানা বক্সার প্যান্ট মুখে পরেছিলেন!

Click for more trending news