প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নিরাপত্তা সকলের জন্য সর্বাধিক গুরুত্বপূর্ন, জানালেন রাজনাথ সিং

মাওবাদীদের প্রধানমন্ত্রী মোদীর হত্যার পরিকল্পনা সম্পর্কে একটি অভ্যন্তরীণ কথোপথন সম্বলিত চিঠি প্রকাশ করার পর এই মন্তব্য করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নিরাপত্তা সকলের জন্য সর্বাধিক গুরুত্বপূর্ন, জানালেন রাজনাথ সিং

নিরাপত্তা পরিস্থিতি পর্যালোচনা করার জন্য জম্মু ও কাশ্মীরের দুই দিনব্যাপী সফরকালে শ্রী সিং এক সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন

জম্মু:

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নিরাপত্তা সকলের জন্য সর্বাধিক গুরুত্বপূর্ন এবং মন্ত্রণালয় এটি সম্পর্কে সতর্ক। শুক্রবারই স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং মন্তব্য করেন।

সম্প্রতি পুনে পুলিশ রাজীব গান্ধীর মতো করে মাওবাদীদের প্রধানমন্ত্রী মোদীর হত্যার পরিকল্পনা সম্পর্কে একটি অভ্যন্তরীণ কথোপথন সম্বলিত চিঠি প্রকাশ করার পর এই মন্তব্য করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

নিরাপত্তা পরিস্থিতি পর্যালোচনা করার জন্য জম্মু ও কাশ্মীরের দুই দিনব্যাপী সফরকালে তিনি এক সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন, তিনি বলেন, "আমরা সবসময় আমাদের প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তা নিয়ে উদ্বিগ্ন। মাওবাদ ও চরমপন্থা এখন অনেকেরই কম। তারা কেবল একটি হেরে যাওয়া লড়াই লড়ছে।"

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জোর দিয়ে বলেন যে, গত চার বছরে ভারতীয় জনতা পার্টি (বিজেপি) সরকারের অধীনে মাওবাদী-সহিংসতা ব্যাপকভাবে কমে 175 টি জেলার থেকে 90 টি জেলায় নেমে এসেছে।

শ্রী সিং আরও বলেন, "আমি এখনও বলব যে মাওবাদী চরমপন্থা দ্বারা সর্বাধিক ক্ষতিগ্রস্ত দেশের প্রায় 10 টি জেলা রয়েছে।"

 

তিনি উত্তর-পূর্ব ভারতের উদাহরণ উদ্ধৃত করে বলেন যে এই শঙ্কা এখন শেষ হয়ে গেছে এবং গত চার বছরে এই অঞ্চলে চরমপন্থী সহিংসতার কোনও মামলা হয়নি।


তিনি বলেন, "গত চার বছরে উত্তর-পূর্বে 85 শতাংশ মাওবাদী কার্যকলাপ কমে গিয়েছে। আমাদের নিরাপত্তা সংস্থা সর্বদা সক্রিয় এটি নিশ্চিত করতে যে কোন অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটবে না"।

এর আগে, বৃহস্পতিবার পুনে পুলিশ জানায় যে তারা  ভীম-কোরেগাঁও হিংসা-র সাথে জড়িত পাঁচজনের মধ্যে একজনের বাড়ি থেকে প্রধানমন্ত্রীকে হত্যা করার ছক সম্পর্কে একটি চিঠি পেয়েছে।

চিঠির বক্তব্য ছিল "মোদী নেতৃত্বাধীন হিন্দু ফ্যাসিবাদের ফলে আদিবাসীদের জীবনযাত্রা ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে। বিহার ও পশ্চিমবঙ্গের মত বড় পরাজয়ের সত্ত্বেও মোদী 15 টিরও বেশি রাজ্যে বিজেপি সরকারকে সফলভাবে প্রতিষ্ঠিত করেছেন। যদি এই গতি অব্যাহত থাকে, তাহলে তা দলের জন্য প্রভূত সমস্যার সৃষ্টি করবে।"

"কমরেড কিষাণ এবং অন্যান্য কয়েকজন সিনিয়র কমরেডরা মোদি-রাজকে শেষ করার জন্য দৃঢ় পদক্ষেপের প্রস্তাব দিয়েছেন। আমরা রাজীব গান্ধী হত্যার মতোই আরো একটি ঘটনার কথা ভাবছি। এটা আত্মঘাতী বলে মনে হচ্ছে এবং হতে পারে আমরা ব্যর্থ হব, কিন্তু আমরা মনে করি আমাদের প্রস্তাবের ব্যাপারে আলোচনা করতে হবে। তার রোড শো গুলিকে নিশানা করাটা একটি কার্যকর কৌশল হতে পারে। আমরা সম্মিলিতভাবে বিশ্বাস করি যে দলের সুরক্ষা সব বলিদানের ঊর্ধ্বে।"

বৃহস্পতিবার এক প্রেস কনফারেন্সে, পুলিস যৌথ কমিশনার (সিপি) রবীন্দ্র কদম জানান, তদন্তকালে পুলিশ "পেন ড্রাইভ, হার্ডডিস্ক এবং অন্য কিছু দস্তাবেজ" উদ্ধার করে যা পরে ফরেনসিকে পাঠানো হয়েছিল।

প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধীকে 21 শে মে, 1991 সালে প্রতিবেশী শ্রীলংকার একটি আত্মঘাতী বোমারুর দ্বারা তামিলনাড়ুর শ্রীপেরামামডুরে হত্যা করা হয়।



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদিত করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে.)