This Article is From Mar 03, 2020

যে মহিলারা ‘অনুপ্রাণিত’ করেছেন, একদিনের জন্য প্রধানমন্ত্রীর সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্ট তাঁদের

সোমবার প্রধানমন্ত্রী টুইট করেন, ‘‘এই রবিবার ভাবছি আমার সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টসগুলি ত্যাগ করব যেগুলি ফেসবুক, টুইটার, ইনস্টাগ্রাম ও ইউটিউবে রয়েছে।''

যে মহিলারা ‘অনুপ্রাণিত’ করেছেন, একদিনের জন্য প্রধানমন্ত্রীর সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্ট তাঁদের

সোশ্যাল মিডিয়ায় নরেন্দ্র মোদির জনপ্রিয় আকাশছোঁয়া।

হাইলাইটস

  • নারী দিবসে প্রধানমন্ত্রীর সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্ট ব্যবহার করবেন মহিলারা
  • যে মহিলারা তাঁকে অনুপ্রাণিত করেছেন, তাঁরাই এটা করতে পারবেন বলে জানান তিনি
  • সোমবারই টুইট করে সোস্যাল মিডিয়া ছাড়ার কথা জানান প্রধানমন্ত্রী
নয়াদিল্লি:

সোমবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (PM Modi) হঠাৎই ঘোষণা করেন, তিনি তাঁর সমস্ত সোশ্যাল মিডিয়া (Social Media) থেকে লগ অফ করতে পারেন। এমন রহস্যময় ঘোষণার পরে অবশেষে সেই বিষয়ে তাঁর বক্তব্য পরিষ্কার করলেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি জানালেন, আগামী ৮ মার্চ রবিবার নারী দিবসের (Women's Day) দিন তিনি তাঁর সমস্ত সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টের দায়িত্ব সঁপে দেবেন সেই সব মহিলাকে যাঁদের, জীবন ও কাজ তাঁকে অনুপ্রেরণা জোগায়। এদিন টুইট করে প্রধানমন্ত্রী জানান, ‘‘এই নারী দিবসে আমি আমার সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টসগুলি সেই মহিলাদের দেব যাঁদের জীবন ও কাজ আমাকে অনুপ্রেরণা জোগায়। এটা তাঁদের লক্ষ লক্ষ মানুষকে অনুপ্রাণিত করতে সাহায্য করবে। আপনি কি তেমন কোনও মহিলা অথবা আপনি তেমন অনুপ্রেরণাদায়ক কোনও মহিলাকে জানেন? তেমন ‘স্টোরি' শেয়ার করুন #SheInspiresUs ব্যবহার করে।''

সোমবার সন্ধ্যায় প্রধানমন্ত্রী টুইট করে লেখেন, ‘‘এই রবিবার ভাবছি আমার সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টসগুলি ত্যাগ করব যেগুলি ফেসবুক, টুইটার, ইনস্টাগ্রাম ও ইউটিউবে রয়েছে। আপনাদের পোস্ট করে জানাব।''

এই ঘোষণায় তাঁর ভক্তরা তাঁদের খারাপ লাগার কথা জানান টুইটটির পর পরই। শুরু হয় হ্যাশট্যাগ #NoSir, যা অচিরেই টুইটারের এক শীর্ষ ট্রেন্ডে পরিণত হয়। 

তারপর থেকে ওই টুইটটি ৪৯,০০০ বার রিটুইট হয়েছে এবং ১৭২,৮০০ লাইক পড়েছে তাতে।

প্রশ্ন ওঠে, সিএএ-র সমালোচনা ও গত সপ্তাহের দিল্লির হিংসা কারণে রাজনৈতিক সমালোচনার কারণে কি সরে যাবে প্রধানমন্ত্রী?

রাহুল গান্ধি প্রধানমন্ত্রী ওই টুইটের উত্তরে লেখেন, ‘‘ঘৃণা ত্যাগ করুন, সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্ট নয়।''

সোশ্যাল মিডিয়ায় নরেন্দ্র মোদির জনপ্রিয় আকাশছোঁয়া। ভারতে রাজনৈতিক নেতাদের মধ্যে তাঁর ফলোয়ার সবচেয়ে বেশি।