পাকিস্তানের সন্ত্রাসবাদে মদত দেওয়াই ভারতের সঙ্গে আলোচনার "প্রধান বাধা"! মনে করছে আমেরিকা

Jammu and Kashmir: "কার্যকরী দ্বিপাক্ষিক আলোচনা জন্য দুই দেশের মধ্যে আস্থার সম্পর্ক গড়ে তোলা গড়ে দরকার", বলেন দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়ার মার্কিন ভারপ্রাপ্ত সহকারী সচিব অ্যালিস জি ওয়েলস

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS
পাকিস্তানের সন্ত্রাসবাদে মদত দেওয়াই ভারতের সঙ্গে আলোচনার

Jammu and Kashmir থেকে নিষেধাজ্ঞাগুলি তুলে নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে সরকার


ওয়াশিংটন: 

জম্মু ও কাশ্মীর (Jammu and Kashmir) নিয়ে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে উত্তেজনা অব্যাহত। কিন্তু সিমলা চুক্তি অনুসারে সরাসরি বৈঠকে বসে এই উত্তেজনাকর পরিস্থিতি থেকে বেরিয়ে আসার জন্যে সমাধানের রাস্তা খুঁজুক ভারত ও পাকিস্তান, এমনটাই চাইছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। তবে আমেরিকা মনে করছে যে পাকিস্তানের লাগাতার সন্ত্রাসবাদে মদত দেওয়ার প্রবণতাই দুই দেশের মধ্যে আলোচনার ক্ষেত্রে "প্রধান বাধা" হয়ে দাঁড়াচ্ছে। "আমরা মনে করি যে ১৯৭২ সালের সিমলা চুক্তি অনুযায়ী ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে সরাসরি বৈঠক হলে এই উত্তেজনা হ্রাস করার সর্বাধিক সম্ভাবনা রয়েছে", বলেন দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়ার মার্কিন ভারপ্রাপ্ত সহকারী সচিব অ্যালিস জি ওয়েলস । তিনি (Alice G Wells) বলেন, ২০০৬-২০০৭ সালে দুই দেশের মধ্যে আলোচনার সময় ভারত ও পাকিস্তান কাশ্মীর সহ বেশ কয়েকটি ইস্যুতে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি করেছিল বলে জানা যায়।

জম্মু ও কাশ্মীরের শান্তি বিঘ্নিত করতে "কেউ আড়াল থেকে চেষ্টা চালাচ্ছে": সেনাপ্রধান

"ইতিহাসই আমাদের কী সম্ভব তা দেখাচ্ছে" শ্রীমতি ওয়েলস "দক্ষিণ এশিয়ায় মানবাধিকার: বিদেশ মন্ত্রক এবং অঞ্চল থেকে প্রাপ্ত মতামত" সম্পর্কিত শুনানি শুরুর একদিন আগে এই কথা বলেন।

তিনি বলেন, "কার্যকরী দ্বিপাক্ষিক আলোচনা জন্য দুই দেশের মধ্যে আস্থার সম্পর্ক গড়ে তোলা গড়ে দরকার এবং এক্ষেত্রে আন্তঃসীমান্ত সন্ত্রাসে জড়িত গোষ্ঠীগুলিকে যেভাবে পাকিস্তান সমর্থন জুগিয়ে যাচ্ছে সেটাই বৈঠকের ক্ষেত্রে প্রধান বাধা হয়ে দাঁড়াচ্ছে" ।

আমেরিকার তরফে ওয়েলস বলেন, প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সাম্প্রতিক দ্ব্যর্থহীন বক্তব্যকে স্বাগত জানাচ্ছে আমেরিকা যেখানে পাক প্রধানমন্ত্রী বলেছেন যে, পাকিস্তান থেকে এসে কাশ্মীরে হিংসা ছড়ানো সন্ত্রাসবাদীরা কাশ্মীরি ও পাকিস্তান, উভয়েরই শত্রু।

"নিয়ন্ত্রণ রেখায় হিংসা বৃদ্ধিতে সচেষ্ট লস্কর-ই-তৈবা এবং জইশ-ই-মহম্মদের মতো সন্ত্রাসবাদী গোষ্ঠীগুলির পিছনে পাকিস্তানের মদত রয়েছে, এবং পাকিস্তানি কর্তৃপক্ষ লাগাতার এই মদত জুগিয়ে চলেছেন এটা স্বীকার করতে বাধ্য ওই দেশ" পাকিস্তানের উদ্দেশ্যে এক সতর্কবার্তায় বলেন দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়ার মার্কিন ভারপ্রাপ্ত সহকারী সচিব অ্যালিস জি ওয়েলস ।

কাশ্মীরে যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন করে পাক সেনার গুলি, নিহত তিন

জম্মু ও কাশ্মীরের নিরাপত্তা পরিস্থিতি সংক্রান্ত উত্তেজনা পর্যবেক্ষণ করে ওয়েলস বলেন যে নিরাপত্তা বাহিনী গত সপ্তাহে একাধিক সন্ত্রাসবাদীদের হত্যা করেছে।

"যেভাবে সন্ত্রাসবাদীরা সেখানে স্থানীয় বাসিন্দা ও ব্যবসায়ীদের ভয় দেখানোর চেষ্টা করছে তা জেনে আমরা উদ্বিগ্ন। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র কাশ্মীরিদের শান্তিপূর্ণভাবে প্রতিবাদ করার অধিকারকে সমর্থন করে। তবে যারা হিংসার পথ ব্যবহার করতে চায় সেই সন্ত্রাসবাদী পদক্ষেপের নিন্দা করে আমেরিকা", বলেন তিনি।



পশ্চিমবঙ্গের খবর, কলকাতার খবর , আর রাজনীতি, ব্যবসা, প্রযুক্তি, বলিউড আর ক্রিকেটের সকল বাংলা শিরোনাম পড়তে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................