This Article is From Feb 21, 2020

গ্রেফতার লখনউয়ে ইঞ্জিনিয়ারিং পড়ুয়াকে হত্যায় অভিযুক্ত প্রাক্তন বিধায়কের ছেলে

Lucknow: গোমতী নগরে পরিচিত কয়েকজনের সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন প্রশান্ত সিং নামের ওই যুবক, সেই সময়েই তাঁর উপর হামলা চালায় পাঁচ-ছয় জনের দুষ্কৃতি দল

গ্রেফতার লখনউয়ে ইঞ্জিনিয়ারিং পড়ুয়াকে হত্যায় অভিযুক্ত প্রাক্তন বিধায়কের ছেলে

Uttar Pradesh's Murder: ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের এক ছাত্রকে হত্যা করল দুষ্কৃতীরা, হত্যার ষড়যন্ত্রের অভিযোগে গ্রেফতার প্রাক্তন বিধায়কের ছেলে

হাইলাইটস

  • বৃহস্পতিবার লখনউয়ের এক ইঞ্জিনিয়ারিং ছাত্রকে খুন করা হয়
  • ওই হত্যায় জড়িত থাকার অভিযোগে গ্রেফতার প্রাক্তন বিধায়কের ছেলে
  • ব্যক্তিগত শত্রুতার কারণেই ওই হত্যা, জানিয়েছে পুলিশ
লখনউ:

লখনউয়ের (Lucknow) গোমতী নগরে ইঞ্জিনিয়ারিং পড়ুয়াকে হত্যা করার অভিযোগে গ্রেফতার (arrest) করা হল এক ব্যক্তিকে। অভিযুক্ত সেখানকার প্রাক্তন বিধায়কের (son of former MLA) ছেলে, বলে জানিয়েছে উত্তরপ্রদেশ সরকারের একটি নির্ভরযোগ্য সূত্র। বৃহস্পতিবার ২৩ বছর বয়সী প্রশান্ত সিং নামে এক ইঞ্জিনিয়ারিং পাঠরত ছাত্রকে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়। গোটা ঘটনাটি একটি অ্যাপার্টমেন্ট কমপ্লেক্সের সিসিটিভি ক্যামেরায় ধরা পড়ে। জানা গেছে, লখনউয়ের বর্ধিষ্ণু অঞ্চলে গোমতী নগরের একটি অ্যাপার্টমেন্ট কমপ্লেক্সে পরিচিত কয়েকজনের সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন প্রশান্ত। সেই সময়েই তাঁর উপর হামলা চালায় পাঁচ-ছয় জনের একটি দুষ্কৃতি দল। তাঁকে ছুরি দিয়ে কুপিয়ে খুন করা হয়। ঘটনার (Uttar Pradesh's Murder) তদন্তে নেমে বিএসপির এক প্রাক্তন বিধায়কের ছেলে আমান বাহাদুরকে গ্রেফতার করেছে উত্তরপ্রদেশ পুলিশ। শুক্রবার সকালেই গ্রেফতার করা হয় তাঁকে।

বেঙ্গালুরুর অনুষ্ঠান মঞ্চ থেকে "পাকিস্তান জিন্দাবাদ" স্লোগান দিলেন তরুণী!

প্রশান্ত সিং নামে যে যুবককে খুন করা হয় তিনি বারাণসীতে থাকতেন এবং লখনউয়ের একটি বিশিষ্ট ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজে পড়াশোনা করতেন।

শহর কলকাতায় ফের ফিরছে ডাবল ডেকার বাস, সিদ্ধান্ত পরিবহণ দফতরের

ঘটনার সিসিটিভি ফুটেজে দেখা গেছে, একদল লোক একটি চারচাকার গাড়িকে রাস্তার মধ্যে আটকায়। তারপরেই গাড়ির সামনের সিটে বসে থাকা দু'জনকে লক্ষ্য করে আক্রমণ করে দুষ্কৃতিরা। কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে দেখা যায়, প্রশান্ত সিং নামে ওই যুবক গাড়ি থেকে নেমে দৌড়ে একটি বাড়ির মধ্যে ঢুকে যাচ্ছেন, নিজের হাত দিয়ে বুক চেপে রেখেছেন তিনি, আর সেখান থেকে অঝোর ধারায় রক্ত ঝরছে। হামলার পরে প্রশান্ত সিংকে স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করা হয়, সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

কিছুদিন আগেই প্রশান্ত সিং নামে ওই ছাত্রের সঙ্গে তাঁর ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজের কিছু জুনিয়র ছাত্রের মধ্যে কথা কাটাকাটি থেকে ঝামেলা হয় বলে খবর। এরপরেই তাঁকে হত্যা করা হয়। ব্যক্তিগত শত্রুতার কারণেই প্রশান্ত সিংকে হত্যা করা হয়েছে বলে প্রাথমিক তদন্তে জানিয়েছে পুলিশ।