দেশজুড়ে এনআরসি করা হবে, জানালেন অমিত শাহ

National Register of Citizens: অমিত শাহ বলেন, এনআরসি( NRC) মানে জাতীয় নাগরিক পঞ্জী, অসমের নাগরিকপঞ্জী নয়

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS
দেশজুড়ে এনআরসি করা হবে, জানালেন অমিত শাহ

NRC: অমিত শাহ বলেন, “আমি বিশ্বাস করি দেশের মানুষের একটি তালিকা থাকা প্রয়োজন”


রাঁচি: 

ভারতজুড়েই জাতীয় নাগরিকপঞ্জী বা এনআরসি (NRC) করা হবে এবং সমস্ত অবৈধ অনুপ্রবেশকারীকে আইনের উপায়ে দেশ থেকে বিতাড়িত করা হবে, বুধবার এমনটাই জানালেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ (Amit Shah)। তিনি আরও বলেন, ২০১৯-এ রায়দানের মধ্য দিয়েই দেশজুড়ে এনআরসি করায় অনুমোদন দিয়েছে দেশের মানুষ। রাঁচীতে হিন্দি দৈনিক হিন্দুস্তানের একটি সভায় কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, “নির্বাচনী ইস্তেহারে আমরা দেশবাসীকে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলাম, যে, শুধুমাত্র অসমে (Assam) নয়, দেশজুড়েই আমরা এনআরসি করব এবং দেশের মানুষের একটি রেজিস্টার তৈরি করব, এবং আইন অনুযায়ী, অন্যান্যদের (অবৈধ অনুপ্রবেশকারী)জন্য পদক্ষেপ করা হবে।

“বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী হওয়া উচিত”, এনআরসি নিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে কটাক্ষ বিজেপি নেতার

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, এনআরসি মানে জাতীয় নাগরিক পঞ্জী, অসমের নাগরিকপঞ্জী নয়। তাঁর কথায়, “সুতরাং দেশজুড়েই এটা কার্যকর করা হবে এবং আমি বিশ্বাস করি যে, দেশের নাগরিকদের একটি তালিকা থাকা প্রয়োজন। আমি বিশ্বাস করি, ২০১৯-এ মানুষ এটা নিয়ে তাদের রায় দিয়েছে, কারণ, প্রত্যেকটি সভায় আমি নিজে এই বিষয়টি তুলেছি যে, আমরা এআরসি করব এবং যারা তালিকার বাইরে থাকবে, তাদের আইন অনুযায়ী, দেশের বাইরে বের করে দেওয়া হবে”।

‘‘বাংলায় হতে দেব না'': নাগরিক পঞ্জি নিয়ে সরব মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়

অমিত শাহ আরও বলেন, অসমে যারা এনআরসি তালিকার বাইরে রয়েছেন, তাঁদের বিষয়টি ফরেনার্স ট্রাইবুনালে তুলে ধরার জন্য একটা সুযোগ দেওয়া হবে এবং যাঁদের আইনজীবীদের খরচ জোগানোর সামর্থ্য নেই, তাঁদের আইনজীবী জোগানোর ব্যবস্থা করেছে অসম সরকার। তাঁর কথায়, “তবে আমি দৃঢ়ভাব বিশ্বাস করি, যে, একটাও দেশ নেই, যেখানে শুধুমাত্র গিয়েই আমি থেকে যেতে পারি। আমি আপনাদের জিজ্ঞাসা করছি, আপনি কি আমেরিকায় গিয়ে থেকে যেতে পারবেন? না, আপনি থাকতে পারবেন না, তাহলে ভারতে যে কেউ ভারতে এসে থেকে যেতে পারে? এটা বোঝা খুবই সহজ”। কেন এই বিষয়টিতে রাজনীতি আসছে, তা নিয়ে বিস্ময় প্রকাশ করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

অনলাইনে প্রকাশিত অসমের পূর্ণাঙ্গ নাগরিক তালিকা, ঠাঁই ৩.৩০ কোটি আবেদনকারীর

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, “আপনি ইংল্যান্ডে গিয়ে থাকতে চান, নেদারল্যান্ডে, রাশিয়ায়, কেউ আপনাকে থাকতে দেবে না। তাহলে যে কেউ ভারতে এসে কেন থাকতে পারবে। এইভাবে দেশ চলে না। দেশের মানুষের একটি রেজিস্টার তৈরির সময় এসেছে”।

 ৩১ অগস্ট অসমের নাগরিকপঞ্জীর চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ হয়, সেরাজ্যের প্রায় ১৯ লক্ষ মানুষের নাম বাদ পড়ে চূড়ান্ত তালিকা।



পশ্চিমবঙ্গের খবর, কলকাতার খবর , আর রাজনীতি, ব্যবসা, প্রযুক্তি, বলিউড আর ক্রিকেটের সকল বাংলা শিরোনাম পড়তে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................