এলাহাবাদ বিশ্ববিদ্যালয়ের অনুষ্ঠানে যেতে অখিলেশকে বাধা, তীব্র প্রতিবাদ মমতার

এলাহাবাদ বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়াদের মুখোমুখি হওয়ার জন্য একটি বেসরকারি বিমান চেয়েছিলেন অখিলেশ যাদব। কিন্তু, উত্তরপ্রদেশ সরকারের পদস্থ কর্তারা জানান, তাঁর জন্য ওই ধরণের বিমানের ব্যবস্থা করা যাবে না।

এলাহাবাদ বিশ্ববিদ্যালয়ের অনুষ্ঠানে যেতে অখিলেশকে বাধা, তীব্র প্রতিবাদ মমতার
কলকাতা:

উত্তরপ্রদেশের এলাহাবাদ বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি অনুষ্ঠানে উত্তরপ্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা সমাজবাদী পার্টির প্রধান অখিলেশ যাদবকে যেতে বাধা দেওয়ায় বিজেপি সরকারের বিরুদ্ধে ফেটে পড়লেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি মঙ্গলবার টুইট করে বলেন, "আমি ইতিমধ্যেই অখিলেশ যাদবের সঙ্গে কথা বলেছি। বিজেপি নেতাদের এত বিচ্ছিরি দম্ভ যে তাঁরা কিছুতেই পড়ুয়াদের উদ্দেশে অখিলেশকে বলতেই দিল না। এর তীব্র প্রতিবাদ করছি আমরা”। তিনি জানান, গুজরাটের দলিত নেতা জিগনেশ মেভানিকেও কিছু বলতে দেওয়া হয়নি। তাঁর কথায়, বিজেপির এই আচরণ সরাসরি দেশের সংবিধানের বিরুদ্ধেই প্রশ্ন তুলে দেয়। “জিগনেশ মেভানিকেও বলতে দেয়নি ওরা। আমাদের দেশের গণতন্ত্র কোথায় গেল? আর ওঁরা সবাইকে জ্ঞান দিয়ে যাচ্ছে”!

প্রয়াগরাজে যেতে গিয়ে বাধা পেলেন অখিলেশ, আইন- শৃঙ্খলার কথা ভেবেই সিদ্ধান্ত দাবি যোগীর

এলাহাবাদ বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়াদের মুখোমুখি হওয়ার জন্য একটি বেসরকারি বিমান চেয়েছিলেন অখিলেশ যাদব। কিন্তু, উত্তরপ্রদেশ সরকারের পদস্থ কর্তারা জানান, তাঁর জন্য ওই ধরণের বিমানের ব্যবস্থা করা যাবে না। লখনউ বিমানবন্দরেই বিমানে ওঠার মুখেই আটকে দেওয়া হয় অখিলেশকে। বলা হয়, অখিলেশের বিশেষ বিমান পাওয়ার অনুমতি নেই।

অপমানিত অখিলেশ যাদব আর অনুষ্ঠানে যাননি। তিনি বলেন, তাঁর প্রতি প্রবল ভয় থেকেই রাজ্য সরকার তাঁর কথা বলা বন্ধ করে দেওয়ার চেষ্টা করছে এভাবেই।

 

More News