Majerhat bridge collapse: জোরকদমে উদ্ধারকার্য চলছে মাঝেরহাট ব্রিজে

উদ্ধারকার্য চালানোর জন্য ক্রেন এবং গ্যাস কাটার ব্যবহার করা হচ্ছে। তিন কলাম সেনাও নামানো হয়েছে ঘটনাস্থলে।

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS
Majerhat bridge collapse: জোরকদমে উদ্ধারকার্য চলছে মাঝেরহাট ব্রিজে

গতকাল সারারাত ধরে চলেছে উদ্ধারকার্য। আজ সকালেও চলছে।


কলকাতা: 

গতকাল বিকেলে ভেঙে পড়ল মাঝেরহাট ব্রিজের একাংশ। এখনও পর্যন্ত সরকারি হিসেব অনুযায়ী, মৃতের সংখ্যা এক। আহতের সংখ্যা উনিশজন। “আমাদের দল এখনও উদ্ধারকার্য চালাচ্ছে। গতকাল সারারাত ধরে চলেছে উদ্ধারকার্য। আজ সকালেও চলছে। কংক্রিটের চাঙড় গুলিতে বড় ফুটো করে আমরা দেখার চেষ্টা করছি সেখানে এখনও কেউ চাপা পড়ে আছে কি না। ওই ফুটো দিয়ে ক্যামেরা ঢুকিয়ে দেখার চেষ্টা করা হচ্ছে যে আর কোনও দেহের অস্বিস্ত সেখানে আছে না নেই”, বুধবার কেন্দ্রীয় বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর এক সদস্য এই কথা বলেন। কেন্দ্রীয় বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর চারটি দল, দমকল এবং বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর কয়েকজন সদস্য ব্যক্তিগতভাবে উদ্ধারকার্যে হাত লাগিয়েছে।

উদ্ধারকার্য চালানোর জন্য ক্রেন এবং গ্যাস কাটার ব্যবহার করা হচ্ছে। তিন কলম সেনাও নামানো হয়েছে ঘটনাস্থলে।

রাজ্য সরকার এই দুর্ঘটনা নিয়ে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছে। “তদন্ত চলছে এখন। এই মুহূর্তে আমরা কেউই নিশ্চিতভাবে জানাতে পারছি না যে, ঠিক কী কারণে ঘটল এই ভয়াবহ দুর্ঘটনা”, তদন্তকারী দলটির এক সদস্য এই কথা বলেন।

যে পথচারী ও এবং যানবাহনের যাত্রীরা দুর্ঘটনার কোপে পড়ে আটকা পড়ে গিয়েছিলেন, তাঁদের সবাইকে উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

উত্তরবঙ্গ সফররত রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দুর্ঘটনা নিয়ে বলেন, “চার-পাঁচজন শ্রমিক ওই ব্রিজের তলায় অস্থায়ী টিনের চাল বানিয়ে থাকত। যদি তারা  দুর্ঘটনার সময় ওই জায়গায় থাকে, তাহলে তাদের সঙ্গে অত্যন্ত দুর্ভাগ্যজনক কিছু ঘটারই সম্ভাবনা রয়েছে”।

সকাল ছ’টা থেকে রাত্রিবেলা এগারোটা অবধি ভারি যানবাহনের শহরে ঢোকার অনুমতি নেই।

এই দুর্ঘটনায় মৃত বেহালা শীলপাড়ার বাসিন্দা সৌমেন বাগের পরিবারের হাতে ক্ষতিপূরণ বাবদ পাঁচ লক্ষ টাকা তুলে দেবে সরকার।



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদিত করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে.)


পশ্চিমবঙ্গের খবর, কলকাতার খবর, আর রাজনীতি, ব্যবসা, প্রযুক্তি, বলিউড আর ক্রিকেটের সকল বাংলা শিরোনাম পড়তে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................