পুরীর জগন্নাথ মন্দিরে স্নানযাত্রা! স্বাস্থ্যবিধিকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে পালিত রীতি

সোশাল দূরত্ব বালাই যেমন নেই, ফেস মাস্ক পর্যন্ত পরেনি তাঁরা

পুরীর জগন্নাথ মন্দিরে স্নানযাত্রা! স্বাস্থ্যবিধিকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে পালিত রীতি

৫ জুন দেশজুড়ে স্নানপূর্ণিমা পালিত হচ্ছে।

হাইলাইটস

  • পুরীর জগন্নাথ মন্দিরে পালিত হল স্নান পূর্ণিমা
  • জগন্নাথ, বলরাম আর সুভদ্রাকে করানো হয় দেবস্নান
  • লকডাউন চলায় ভক্ত সমাগমে ছিল নিষেধাজ্ঞা
পুরী:

সামাজিক দূরত্ব (Violating social distancing in Puri temple) বিধিকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে পুরীর জগন্নাথ মন্দিরে পালিত হল স্নান পূর্ণিমা। ভক্তদের অনুপস্থিতিতে নির্ঘণ্ট মেনে জগন্নাথ, বলরাম ও সুভদ্রাকে স্নান (Snan yatra) করানো হয়েছে। এই বিপুল আয়োজন সম্পন্ন করতে প্রচুর সেবায়েত পুরীর মন্দিরে জমায়েত হয়েছিলেন। কিন্তু সামাজিক দুরত্বে বালাই না রেখেই এই পবিত্র কর্মকাণ্ড সম্পন্ন করা হয়েছে। সংবাদসংস্থা এএনআইয়ের টুইট করা ভিডিওতে দেখা গিয়েছে, শুক্রবার তিথি মেনে জগন্নাথ (Jagannath Temple) মন্দিরের একাধিক সেবায়েত দেব স্নান করাতে ব্যস্ত। কিন্তু সোশাল দূরত্ব বালাই যেমন নেই, ফেস মাস্ক পর্যন্ত পরেনি তাঁরা। 

দেখুন সেই ভিডিও: 

প্রচলিত আছে, জ্যৈষ্ঠ মাসের প্রথম পূর্ণিমাতে এই স্নানযাত্রা করা হয়। গর্ভগৃহ থেকে মূর্তি তুলে এনে স্নান মণ্ডপে স্থাপন করা হয়। সেখানে সুগন্ধি জল দিয়ে স্নান করানোর পাশাপাশি  তিন মূর্তিকে সাজগোজ করানো হয়। এ প্রসঙ্গে উল্লেখ্য ৩০ জুন পর্যন্ত পঞ্চম দফার লকডাউন চললেও, এই দফায় আনলক-১-এর পথ প্রশস্থ করবে কেন্দ্র। সেই মোতাবেক পয়লা জুন থেকে সব ধর্মীয় স্থান খুলে দিতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। কিন্তু মানতেই হবে ন্যূনতম স্বাস্থ্যবিধি। সেই অনুমোদন পাওয়ার পরেই পুরীর জগন্নাথ মন্দিরে পুরোদমে শুরু হয়েছে রথ যাত্রার প্রস্তুতি। কিন্তু পুরীর রথযাত্রা মানে বিপুল আয়োজন, লক্ষাধিক ভক্ত সমাগম। সেই কথা মাথায় রেখে স্থানীয় স্তরেই এবার রথযাত্রার আয়োজন করেছে মন্দির কমিটি। যেখানে সম্পূর্ণ ভাবে নিষিদ্ধ থাকবে ভক্র সমাবেশ। এমনটাই মন্দির সূত্রে খবর। 

ভিডিও: দেখুন কেন্দ্রের গাইডলাইন, আনলক ১.০-র নিয়ম