শেষমেশ মার্কিন সরকারের আধা নিষ্ক্রিয়করণ সাময়িকভাবে তুলে নিলেন ডোনাল্ড ট্রাম্প

ওয়াশিংটনকে প্রায় পক্ষাঘাতগ্রস্ত করে, বিমান ভ্রমণে বাধার নির্দেশ জারি করে এবং ৮০০ জনেরও বেশি ফেডারেল কর্মচারীকে পাঁচ সপ্তাহের জন্য বেতন ছাড়াই রেখে দিয়েছিলেন ট্রাম্প।

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS
শেষমেশ মার্কিন সরকারের আধা নিষ্ক্রিয়করণ সাময়িকভাবে তুলে নিলেন ডোনাল্ড ট্রাম্প

সরকার পুনরায় চালু করার ব্যাপারে সম্মত হলেও, পরবর্তীতে নয়া নিষ্ক্রিয়করণ বা জরুরি অবস্থার হুমকিও দিয়েছেন


যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে দীর্ঘতম সময় ধরে সরকার আধা নিষ্ক্রিয় করে রাখার ঘটনায় আপাতত বিরতি টানলেন রাষ্ট্রপতি ডোনাল্ড ট্রাম্প। শুক্রবার রাষ্ট্রপতি ডোনাল্ড ট্রাম্প সাময়িকভাবে এই নিষ্ক্রিয়তা শেষ করেছেন। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, মেক্সিকো সীমান্ত বরাবর প্রাচীর নির্মাণের জন্য তত্ক্ষণাত তহবিল চেয়ে মার্কিন কংগ্রেসের জোরালো চাপ ফেলেছিলেন তিনি। হোয়াইট হাউসের রোজ গার্ডেনে ঘোষিত দ্বিপাক্ষিক চুক্তির মাধ্যমে ট্রাম্প তাঁর পূর্বের সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসেন। ওয়াশিংটনকে প্রায় পক্ষাঘাতগ্রস্ত করে, বিমান ভ্রমণে বাধার নির্দেশ জারি করে এবং ৮০০ জনেরও বেশি ফেডারেল কর্মচারীকে পাঁচ সপ্তাহের জন্য বেতন ছাড়াই রেখে দিয়েছিলেন ট্রাম্প। শীর্ষ ডেমোক্রেটিক সেনেটর, চাক স্কুমার বলছেন, “ট্রাম্প তাঁর ভুল বুঝতে পেরেছেন।”

সেনেট ও হাউস অব রিপ্রেজেন্টেটিভস দু'পক্ষই শুক্রবার একযোগে সম্মতি দেন। হোয়াইট হাউস পরে নিশ্চিত করে যে ট্রাম্প আইনটিতে স্বাক্ষর করেছে।

Google Doodle; ভারতের ৭০ তম প্রজাতন্ত্র দিবসে দেশবাসীকে গুগলের বিশেষ অভিনন্দন

তবে রাষ্ট্রপতি ট্রাম্প সীমান্ত প্রাচীর নির্মাণের তহবিলে ৫.৭ বিলিয়ন মার্কিন ডলার ছাড়াই সরকার পুনরায় চালু করার ব্যাপারে সম্মত হলেও, পরবর্তীতে নয়া নিষ্ক্রিয়করণ বা জরুরি অবস্থার হুমকিও দিয়েছেন। তিন সপ্তাহের মধ্যে ওই টাকা না পেলে ফের তিনি সরকার নিষ্ক্রিয় করে দেওয়ার পথেই হাঁটবেন।

ট্রাম্প হুঁশিয়ারি দেন, “অল্প সময়ের জন্য আমি আমাদের সরকার চালু করতে একটি বিল স্বাক্ষর করব। পরের ২১ দিনের মধ্যে আমি আশা করি যে, ডেমোক্রেট ও রিপাবলিকানরা সঠিক বিশ্বাসে কাজ করবে। যদি কংগ্রেস আমাদের সঙ্গে ন্যায্য চুক্তি না করে তবে ফের ১৫ ফেব্রুয়ারি সরকারকে নিষ্ক্রিয় করে দেব। অথবা জরুরি অবস্থা মোকাবিলার জন্য মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের আইন ও সংবিধান আমাকে যে ক্ষমতাগুলি প্রদান করেছে তা আমি ব্যবহার করবো। শক্তিশালী প্রাচীর বা ইস্পাতের দেওয়াল নির্মাণ করা ছাড়া আমাদের কোনও পথ নেই।”

মদের ঘোরে সেলফি! ৮০০ ফুট উচ্চতা থেকে পড়ে প্রাণ হারালেন ভারতীয় এই দম্পতি

ট্রাম্প এই প্রাচীর গড়তে চেয়ে কংগ্রেসের কাছে তহবিল চাওয়ার পরে কংগ্রেস তা খারিজ করে দেয়, কংগ্রেসি ডেমোক্র্যাটদের উপর চাপ প্রয়োগের উপায় হিসাবে ডিসেম্বর মাসে ট্রাম্প সরকারকে নিষ্ক্রিয় করে দেয়। কিন্তু হাউস স্পিকার ন্যান্সি পেলসি নেতৃত্বাধীন ডেমোক্রেটরা এতে দমে পড়েন না, কারণ তাঁদের বিশ্বাস ছিল এই বিশৃঙ্খলার জন্য ট্রাম্পকে ভোটাররা দোষারোপ করবেন এবং আগামী নির্বাচনেই এই ঘটনার ফলাফল টের পাবেন ট্রাম্প।

মার্কিন কোস্ট গার্ডের নাবিক সহ ফেডারেল কর্মীরা একমাসেরও বেশি বেতন ছাড়াই কাজ করছেন। এমনকি হোয়াইট হাউস রক্ষাকারী সিক্রেট সার্ভিস এজেন্টরাও বেতন ছাড়াই কাজ করছেন। এয়ার ট্র্যাফিক নিয়ন্ত্রণ কর্মীরাও বেতন ছাড়াই কাজ করেন এবং নিউ জার্সি ব্যস্ততম বিমানবন্দর নিউয়ার্ক লিবার্টি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের কর্মীদের সমস্যার কারণে মার্কিন বিমান পরিবহণে ব্যাপক অবনতি লক্ষ করা যায়।

এই ঘটনা ট্রাম্প এবং তাঁর কংগ্রেস বিরোধীদের উপর চাপ তৈরি করে। তবে, শেষ পর্যন্ত ট্রাম্প আপোষ করেছেন বলেই মনে হচ্ছে।

২০২৩ এর মধ্যেই স্মার্টফোনে অর্ডার করতে পারবেন পরিবহণের বিল্পব এই ‘উড়ন্ত গাড়ি'

ট্রাম্প বলছেন যে, অপরাধ এবং দেশের অবৈধ অভিবাসনের সঙ্কটজনক মাত্রা রোধের জন্য আরও বেশি সীমান্ত প্রাচীর প্রয়োজন। ডেমোক্রেটরা বলছেন, প্রাচীরের উপর এত মনোযোগ দিয়ে ট্রাম্প আসল জটিল ইমিগ্রেশন সমস্যা থেকে নিজেকে সরিয়ে রাখছেন। বৃহস্পতিবার, সেনেটে আংশিক এই নিষ্ক্রিয়করণ শেষ করতে দুটি প্রতিদ্বন্দ্বী বিল সেনেটে ব্যর্থ হয়। ট্রাম্প তাঁর রাষ্ট্রপতির বিশেষ ক্ষমতা দিয়ে সীমান্তে জরুরি অবস্থা ঘোষণা করার এবং কংগ্রেসকে বাইপাস করার বিষয়ে কয়েক সপ্তাহ ধরেই কথা বলেছেন।

নিষ্ক্রিয়করণ শেষ হওয়ার পর, প্রশ্ন উঠেছে ট্রাম্প আগামী মঙ্গলবার কংগ্রেসে স্টেট অফ ইউনিয়নে তাঁর বক্তব্য প্রদানের জন্য পুনরায় আমন্ত্রিত হবেন কিনা।



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদনা করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে।)


পশ্চিমবঙ্গের খবর, কলকাতার খবর , আর রাজনীতি, ব্যবসা, প্রযুক্তি, বলিউড আর ক্রিকেটের সকল বাংলা শিরোনাম পড়তে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................