Election 2019

Sponsors

সমালোচনার মাঝে টাটা স্কাই বলল নমো টিভি ‘নিউজ সার্ভিস’ নয়

সম্প্রচারিত হওয়ার  ৩-৪ দিনের মধ্যেই নমো টিভিকে ঘিরে বিতর্ক তুঙ্গে উঠেছে। লোকসভা নির্বাচনের মুখে  এভাবে প্রধানমন্ত্রী নিজের  প্রচার চালাতে পারেন না  বলে  দাবি  তুলেছে  বিরোধী দলগুলি।

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS
সমালোচনার মাঝে টাটা স্কাই বলল  নমো টিভি ‘নিউজ সার্ভিস’ নয়

Lok sabha Election 2019: তথ্যসম্প্রচার মন্ত্রক থেকে নমো টিভি সম্পর্কে জানতে চেয়েছে নির্বাচন কমিশন


নিউ দিল্লি: 

সম্প্রচারিত হওয়ার  ৩-৪ দিনের মধ্যেই নমো টিভিকে ঘিরে বিতর্ক তুঙ্গে উঠেছে। লোকসভা নির্বাচনের মুখে  এভাবে প্রধানমন্ত্রী নিজের  প্রচার চালাতে পারেন না  বলে  দাবি  তুলেছে  বিরোধী দলগুলি। পাশাপাশি রিপোর্ট চেয়ে পাঠিয়েছে  নির্বাচন কমিশন। এবার এ নিয়ে প্রতিক্রিয়া দেয় টাটা স্কাই। টুইট করে সংস্থার তরফে  বৃহস্পতিবার বলা হয়েছে নমো টিভি হিন্দি ভাষায় জাতীয় রাজনীতির সাম্প্রতিক খবর পরিবেশনের কাজ  করে থাকে। কথায় আরও বাড়ে বিতর্ক। তখন সংস্থার সিইও বলেন  নমো টিভি নিউজ সার্ভিস নয় স্পেশাল  সার্ভিস। মার্চ মাসের ৩১ তারিখ মানে গত রবিবার থেকে এই পরিষেবা শুরু হয়েছে।বিজেপির তরফ থেকে এই পরিষেবা নিয়ে প্রচার শুরু হয়েছে। নিজেদের টুইটে টাটা  স্কাই আরও জানিয়েছে  সবে চালু হয়েছে বলে  সমস্ত গ্রাহকের কাছেই  নমো টিভিকে পৌঁছে দেওয়া  হয়েছে আর তাই সেটি ডিলিট করে দেওয়ার সুযোগ সংস্থার কাছে নেই।  

কেন্দ্রীয় সরকারের তথ্যসম্প্রচার মন্ত্রক থেকে  নমো টিভি সম্পর্কে জানতে চেয়েছে নির্বাচন কমিশন। বিরোধীদের দাবি  ভোটারদের প্রভাবিত করতে  নির্বাচনী আচরণ বিধি হেলায় উড়িয়ে দিয়েছে বিজেপি।  টাটা স্কাইয়ের  পাশাপাশি অন্য ডিটিএইচ পরিষেবাতেও চ্যানেলটি দেখা যাচ্ছে।  প্রধানমন্ত্রীর নাম এবং পদবীর আদ্যাক্ষর ছাড়াও তাঁর ছবি লোগো হিসেবে ব্যবহার হচ্ছে। কিন্তু এই চ্যানলের মালিকানা নিয়ে কিছুটা সংশয় আছে।  চ্যানেলটি উদ্বোধনের প্রায়  সঙ্গে  সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর টুইটার অ্যাকাউন্টে সেটির লোগো পোস্ট হয়। সকলকে চ্যানেলে তাঁর অনুষ্ঠান দেখার আহ্বানও জানান প্রধানমন্ত্রী।

সেদিন বিকেল ৫ টা নাগাদ কয়েকলক্ষ ‘চৌকিদার'-কে নিয়ে ম্যায় ভি চৌকিদার অভিযানের আরেকটি অনুষ্ঠানে ভাষণ দেন মোদী।  
 

 মন্ত্রকের সূত্র এনডিটিভিকে জানিয়েছেন, নমো টিভি একটি বিজ্ঞাপন মঞ্চ। আর এটি সম্প্রচারের জন্য কেন্দ্রীয় সরকারের অনুমতি প্রয়োজন নেই। কিন্তু টাটা স্কাই আজ যে দাবি করেছে  তার সঙ্গে মন্ত্রকের কর্তাদের বক্তব্যে মিল নেই। 

নিজেদের এই বক্তব্যই কমিশনের কাছে জানাতে চলেছেন  মন্ত্রকের কর্তারা। তাঁরা বলবেন  বিজ্ঞাপনের উদ্দেশ নিয়ে কয়েকটি ডিটিএইচ সার্ভিস প্রোভাইডার এই চ্যানেল দেখাচ্ছে। কেন্দ্রীয় সরকারের অনুমতি নেওয়ার প্রয়োজন নেই।  এ ব্যাপারে প্রশ্ন করা হলে  কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি এনডিটিভিকে  বলেছেন, যাদের উত্তর দেওয়ার অধিকার আছে  তারাই দিক।

                          

NDTV Beeps - your daily newsletter

................... Advertisement ...................
................... Advertisement ...................