অলিম্পিকের দুই পদকজয়ী এবার নির্বাচনে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ে বিরোধী প্রার্থী

Lok Sabha Elections 2019: কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রাজ্যবর্ধন সিং রাঠোর রাজস্থানে বিজেপির প্রার্থী হয়েছেন। কংগ্রেসের লড়াইয়ে নামছেন কৃষ্ণা পুনিয়া।

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS

Lok Sabha Elections: রাজ্যবর্ধন রাঠোর (Rahyavardhan Rathore) এবং কৃষ্ণা পুনিয়া (Krishna Poonia) জয়পুর গ্রামীণ (Jaipur Rural) আসন থেকে লড়বেন


জয়পুর: 

রাজস্থানের জয়পুর গ্রামীণ লোকসভা আসনে (Rajasthan's Jaipur Rural parliamentary constituency) এবার জাতীয় নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বী দুই অলিম্পিয়ান (Olympians)। এই আসনে দুই বিরোধী দলের হয়ে লড়বেন প্রাক্তন দুই অলিম্পিয়ান রাজ্যবর্ধন সিং রাঠোর (Rajyavardhan Singh Rathore) ও কৃষ্ণা পুনিয়া (Krishna Poonia)। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির মন্ত্রিসভা কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রাজ্যবর্ধন সিং রাঠোর রাজস্থানের ওই আসন থেকে বিজেপির প্রার্থী হয়েছেন। কংগ্রেসের হয়ে তাঁর বিরুদ্ধে ভোটের লড়াইয়ে নামছেন অন্য অলিম্পিয়ান কৃষ্ণা পুনিয়া। রাজ্যবর্ধন রাঠোর (৪৯), জয়পুর গ্রামীণ আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য। দু'জনেই অলিম্পিকে ভারতের প্রতিনিধিত্ব করেছেন এবং একই বছরে, অর্থাৎ ২০১৩ সালে রাজনীতিতে প্রবেশ করেছেন। 

৩০০-র বেশি আসনে জিতবে বিজেপি; ভবিষ্যৎবাণী প্রকাশ জাভড়েকরের

২০১০ সালের দিল্লি কমনওয়েলথ গেমসে (2010 Delhi Commonwealth Games) স্বর্ণপদক জিতে কৃষ্ণা পুনিয়া (Krishna Poonia) (৩৬) প্রথম সেই ভারতীয় মহিলা যিনি ট্র্যাক-ও-মাঠের ক্রীড়াবিদ ছিলেন। তিনি তিনটি অলিম্পিকে অংশগ্রহণ করেছেন এবং ২০১১ সালে পদ্মশ্রী সম্মানে ভূষিত হন।

তিনি বলেন, “আমাদের লড়াই ক্রীড়াবিদদের লড়াই নয়। গণতন্ত্রকে বাঁচাতে লড়াই। তরুণ, কৃষক ও নারীদের সমস্যাগুলি সামনে নিয়ে আসার প্রয়োজন আছে"। “বিজেপি কেবল প্রতিশ্রুতি দেয়.... যখন দেশের অর্থ লুঠ করা হচ্ছে তখন চৌকিদাররা কেন ঘুমাচ্ছে?” প্রশ্ন সাদুলপুর বিধানসভা আসনের বিধায়ক কৃষ্ণা পুনিয়ার।

২০০৪ সালের এথেন্স অলিম্পিকে ভারতের জন্য রৌপ্য পদক জেতেন রাজ্যবর্ধন রাঠোর। ২০০২ সালে ম্যানচেস্টারের কমনওয়েলথ গেমসে এবং ২০০৬ সালে মেলবোর্নে সোনা জিতেছিলেন তিনি। এই চার বছরে তিনি বিভিন্ন আন্তর্জাতিক চ্যাম্পিয়নশিপে মোট ২৫ টি পদক জিতেছিলেন। 

‘রাহুলের থেকেও হাস্যকর আপনি'! আক্রমণকারীকে যোগ্য জবাবে কী বললেন সুষমা?

শ্যুটিং চ্যাম্পিয়ন রাজ্যবর্ধন সেনাবাহিনীর কর্নেল ছিলেন। ২০১৩ সালে তিনি স্বেচ্ছাবসর গ্রহণ করেন এবং ২০১৩ সালেই বিজেপিতে যোগ দেন। ২০১৪ সালের জাতীয় নির্বাচনে জয়পুর গ্রামীন আসন থেকে ভোটে লড়েন এবং কংগ্রেস নেতা সিপি জোশীকে পরাজিত করেন। আদতে হরিয়ানার বাসিন্দা কৃষ্ণা পুনিয়া পূর্ববর্তী নির্বাচনে হেরে যাওয়ার পর গত বছর রাজস্থান বিধানসভা নির্বাচনে (Rajasthan assembly election) সাদুলপুর (Sadulpur) থেকে জয়ী হন।



পশ্চিমবঙ্গের খবর, কলকাতার খবর , আর রাজনীতি, ব্যবসা, প্রযুক্তি, বলিউড আর ক্রিকেটের সকল বাংলা শিরোনাম পড়তে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................