বিশেষ পুলিশ পর্যবেক্ষকের বিরুদ্ধে কী মারাত্মক অভিযোগ তুললেন অধীর চৌধুরী

General Election 2019: নির্বাচন কমিশনের বিশেষ পুলিশ পর্যবেক্ষক বিবেক দুবেকে পদ থেকে সরিয়ে দেওয়ার দাবি করলেন কংগ্রেস সাংসদ অধীর চৌধুরী।

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS
বিশেষ পুলিশ পর্যবেক্ষকের বিরুদ্ধে কী মারাত্মক অভিযোগ তুললেন অধীর চৌধুরী

এবার এই জেলার তিনটি আসন- ই দখল করতে মরিয়া মমতা।


কলকাতা: 

হাইলাইটস

  1. বিশেষ পুলিশ পর্যবেক্ষককে পদ থেকে সরিয়ে দেওয়ার দাবি অধীরের
  2. নির্বাচন কমিশমনের কয়েকজন আধিকারিক তৃণমূলকে সাহায্য করছেনঃ অধীর
  3. নির্বাচনে অনিয়মের অভিযোগ করলেও ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে নাঃ অধীর

নির্বাচন কমিশনের (Election Commission) বিশেষ পুলিশ পর্যবেক্ষক (Special Police Observer) বিবেক দুবেকে (Bibek Dubey) পদ থেকে সরিয়ে দেওয়ার দাবি করলেন কংগ্রেস সাংসদ অধীর চৌধুরী (Adhir Chowdhury)। তিনি বলেন, বিবেক এবং নির্বাচন কমিশনের কয়েকজন অফিসার রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (CM Mamata Bannerjee) সঙ্গে গোপন সমঝোতা করেছেন। তাই তাঁরা তৃণমূলের বিরুদ্ধে কোনও ব্যবস্থাই নিচ্ছেন না। এই তালিকায়  বিবেক দুবে একেবারে প্রথম দিকেই আছেন বলে দাবি করেছেন প্রদেশ কংগ্রেসের এই প্রাক্তন সভাপতি। তিনি বলেন মুর্শিদাবাদের ভোটের সময় তৃণমূল নানা রকম বেআইনি কাজ করছিল। আমরা তার প্রতিবাদ করেছি। বিশেষ পুলিশ পর্যবেক্ষক  হিসেবে বিবেকের কাছে  অভিযোগও করেছি। কিন্তু বিবেক কোনও ব্যবস্থা নেননি। শুধু তাই নয় অধীর মনে করেন মুর্শিদাবাদের ভোট কীভাবে করা উচিত তাও নির্বাচন কমিশনের থেকেই জেনেছেন মমতা। এমনিতেই মুর্শিদাবাদের তিনটি আসন নিয়ে এবারের লোকসভা  ভোটের প্রথম থেকেই আলোচনা চলছে। এই তিনটি আসনে দীর্ঘদিন কংগ্রেসের দখলে ছিল। এখন অবশ্য মুর্শিদাবাদ আসনটি আছে বামেদের দখলে।

লোক সরানো চলছে, বিমান ও ট্রেন বাতিল 'ফণী'র জন্য: ১০'টি তথ্য

এবার এই জেলার তিনটি আসন- ই দখল করতে মরিয়া মমতা।  তৃতীয় ও চতুর্থ দফায় ভোট হয়েছে এই জেলায়। মমতা নিজে ভোটের আগে এই জেলার একাধিক জায়গায় জনসভা করেছেন। বিভিন্ন জনসভা থেকে তাঁর অভিযোগ নির্বাচনে জিততে সঙ্ঘ পরিবারের সাহায্য নিচ্ছেন অধীর।  তিনি একই অভিযোগ করেছেন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়ের পুত্র অভিজিৎ মুখোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধেও। দুজনেই তা খারিজ করেছেন। দীর্ঘদিন ধরেই মুর্শিদাবাদ এবং মালদা কংগ্রেসের গড়। বাম আমলের সাড়ে তিন দশককেও বারবার এই দুটি জেলা থেকে নির্বাচিত হয়েছেন কংগ্রেসের প্রতিনিধিরাই।  কিন্তু ক্ষমতায় এসে ধীরে ধীরে এই দুটি জেলাতেও সংগঠন মজবুত করেছে তৃণমূল। রাজ্যের মন্ত্রী ও তৃণমুলের কয়েকজন নেতা দুই জেলায় ঘুরে ঘুরে সেই কাজটাই করেছেন। এবার বঙ্গের শাসক শিবিরের আশা এই দুটি জেলাতেও ভালো ফল হবে। এরই মধ্যে রাজ্যের বিশেষ পুলিশ পর্যবেক্ষক বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ আনলেন অধীর।

(সংবাদ সংস্থা পিটিআইয়ের তথ্য সংযোজিত হয়েছে  )



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদনা করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে।)

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................