“কুলভূষণ যাদবকে দ্বিতীয়বার কূটনৈতিক সহায়তা নয়”: পাকিস্তান

Kulbhushan Jadhav: ২ অগস্ট কুলভূষণ যাদবকে প্রথম কূটনৈতিক সহায়তা নেওয়ার অনুমতি দেয় পাকিস্তান, তবে ভারতের তরফে বলা হয়, সেটি হতে হবে “কার্যকর এবং মসৃণ”

“কুলভূষণ যাদবকে দ্বিতীয়বার কূটনৈতিক সহায়তা নয়”: পাকিস্তান

২০১৭ এ কুলভূষণ যাদবকে মৃত্যুদণ্ডের সাজা দেয় পাক সামরিক আদালত

ইসলামাবাদ:

পাকিস্তানে (Pakistan) মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত ভারতীয় নৌসেনা আধিকারিক কুলভূষণ যাদবকে (Kulbhushan Jadhav) দ্বিতীয়বার কূটনৈতিক সহায়তা (Consular Access) দেওয়ার সুযোগ পাবে না ভারত, বৃহস্পতিবার জানাল পাকিস্তান। পাক বিদেশমন্ত্রকের মুখপাত্র ডঃ মহম্মদ ফয়সল বলেন, “কুলভূষণ যাদবকে দ্বিতীয়বার কূটনৈতিক সহায়তা নিতে দেওয়া হবে না”। ২ অগস্ট কুলভূষণ যাদবকে প্রথমবার কূটনৈতিক সহায়তা নেওয়ার অনুমতি দেয় পাকিস্তান, তবে ভারতের তরফে বলা হয়, সেটি হতে হবে “কার্যকর এবং মসৃণ”। ২ সেপ্টেম্বর কুলভূষণ যাদবের সঙ্গে দেখা করেন পাকিস্তানে নিযুক্ত ভারতের ডেপুটি হাইকমিশনার গৌরব আলুয়ালিয়া, সেই সময় উপস্থিত ছিলেন পাক আধিকারিকরা, এবং সেই বৈঠক রেকর্ড করা হয়।

“প্রচণ্ড চাপের মধ্যে রয়েছেন কুলভূষণ যাদব”, জানালেন ভারতীয় আধিকারিকরা

২০১৭ এ কুলভূষণ যাদবকে মৃত্যুদণ্ডের সাদা শোনায় পাকিস্তানের সামরিক আদালত, তাঁর বিরুদ্ধে গুপ্তচরবৃত্তি এবং সন্ত্রাসবাদের অভিযোগ আনা হয়। পাকিস্তানের তরফে বলা হয়, তাঁকে বেলুচিস্তানপ্রদেশ থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে, সেখানে বিদেশী গুপ্তচর সংস্থার হয়ে কাজ করছিলেন তিনি।

পাকিস্তান, কুলভূষণ যাদবকে মৃত্যুদণ্ডের সাজা দেওয়া একমাস পরেই, তাদের বিচারকে প্রহসন বলে মন্তব্য করে আন্তর্জাতিক আদালতের দ্বারস্থ হয় ভারত।

কুলভূষণকে “মুক্তি দিয়ে দেশে ফেরানো” হোক, পাকিস্তানকে বলল ভারত

জুলাইয়ে, ১৫-১-এ,ভারতের পক্ষে যায় আন্তর্জাতিক আদালতের রায়, ততক্ষণণ পর্য্নত মৃত্যুদণ্ডের সাজা স্থগিত থাকবে, যতক্ষণ পর্যন্ত না পাকিস্তান কার্করভাবে পুনর্বার খতিয়ে দেখে পুনর্বিবেচনা করবে।

ভারতের দাবি, ইরানের চাবাহার বন্দরে কুলভূষণ যাদবের ব্যবসা রয়েছে, সেখান থেকেই তাঁকে অপহরণ করা হয়।

( ANIএর তথ্য সংযোজিত হয়েছে)