৩৭০ ধারা প্রসঙ্গে জওহরলাল নেহরুর সমালোচনা বিজেপির, প্রতিবাদ কংগ্রেসের

Kashmir Article 370: পাক অধিকৃত কাশ্মীরের সৃষ্টির জন্যও তিনি জওহরলাল নেহরুকেই দায়ী করেন।

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS
৩৭০ ধারা প্রসঙ্গে জওহরলাল নেহরুর সমালোচনা বিজেপির, প্রতিবাদ কংগ্রেসের

Article 370 Jammu and Kashmir: জম্মু ও কাশ্মীরকে দু’টি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে বিভক্ত করার ব্যাপারে বিল পেশ করেছে বিজেপি (ফাইল)


নয়াদিল্লি: 

জম্মু ও কাশ্মীর (J&K) পুনর্গঠন বিলকে কেন্দ্র করে মঙ্গলবার উঠে এল ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহরুর (Jawaharlal Nehru) নাম। জম্মু ও কাশ্মীরের উধমপুরের এক বিজেপি সাংসদ জওহরলালকে অভিযুক্ত করে ব‌লেন, তিনিই রাজ্যের বিভাজনের জন্য দায়ী এবং পাক অধিকৃত কাশ্মীরের জন্যও তিনিই দায়ী। নিম্ন কক্ষে জম্মুর প্রতিনিধি যুগল কিশোর নামের সেই বিজেপি সদস্য বলেন, ‘‘যদি নেহরু হস্তক্ষেপ না করতেন, তাহলে ৩৭০ ধারা বলে কিছু থাকতই না। পাক অধিকৃত কাশ্মীরও থাকত না। আর এই বিলটিরও কোনও প্রয়োজন পড়ত না।'' তিনি আরও বলেন, ‘‘৩৭০ ধারাই হোক বা ৩৫এ, এগুলি হল ভুল যা নেহরু আমাদের উপরে চাপিয়ে দিয়েছেন— কাশ্মীরের মানুষের উপরে। আমি বলছি, নেহরুই জম্মু ও কাশ্মীরকে বিভক্ত করেছিলেন। পাক অধিকৃত কাশ্মীরও নেহরুই করেছেন। আমাদের ভাবমূর্তি কলঙ্কিত হয়েছে জওহরলাল নেহরুর জন্য।''

সংসদে কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে বলতে গিয়ে কংগ্রেসকে অস্বস্তিতে ফেললেন অধীর চৌধুরী

সংবিধানের ৩৭০ ধারাকে ‘‘স্বাধীনতা-পরবর্তী ভারতের সবচেয়ে বড় ভুল'' বলে জানান তিনি। বলেন, জওহরলাল নেহরু সেই সময় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বল্লভভাই প্যাটেলকে কাশ্মীরের পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে দেননি। এর ফলে জটিলতা সৃষ্টি হয়। তিনি বলেন, ‘‘পণ্ডিতজি মনে করতেন তিনি জম্মু ও কাশ্মীরকে বেশি ভাল চেনেন সর্দার প্যাটেলের থেকে। এবং তাই তাঁকে এর মধ্যে আসতে দেননি।''কিন্তু সর্দার প্যাটেল হায়দরাবাদ ও জুনাগড়কে নিয়ন্ত্রণ করেন। এর ফলে সেই জায়গা দু'টিতে কোনও সমস্যা হয়নি।

পাক অধিকৃত কাশ্মীরের সৃষ্টির জন্যও তিনি জওহরলাল নেহরুকেই দায়ী করেন। বলেন, ১৯৪৮-এর যুদ্ধে পাকিস্তানি অনুপ্রবেশকারীদের ভারতীয় সেনা বিতাড়িত করতে পেরেছিল। এরপরই জওহরলাল নেহরু যুদ্ধবিরতির ঘোষণা করেন। তাঁর মতে, ‘‘তিনি এটা না করলে পাক অধিকৃত কাশ্মীর ভারতেরই অংশ হত।''

নীরবতা ভেঙে জম্মু ও কাশ্মীরের ৩৭০ ধারা রদ নিয়ে টুইট রাহুল গান্ধির

তাঁর এমন দাবির বিরোধিতা করেন কংগ্রেসের মণীশ তিওয়ারি। মণীশ বলেন, ‘‘যদি কেউ জম্মু ও কাশ্মীরে সেনা পাঠিয়ে জম্মু ও কাশ্মীরকে রক্ষা করে থাকে, তবে সে হল জওহরলাল নেহরুর সরকার। তারাই একমাত্র চেষ্টা করেছিল জম্মু ও কাশ্মীরকে ভারতের অপরিহার্য অঙ্গ করে তুলতে।''

এই কথোপকথনকে কেন্দ্র করে রীতিমতো হইচই শুরু হয়। সোমবার জম্মু ও কাশ্মীরের ‘স্পেশাল স্ট্যাটাস' তুলে নিতে পদক্ষেপ করেছে সরকার। রাজ্যকে দু'টি স্বশাসিত অঞ্চলে ভাগ করার বিল পেশ করা হয়েছে।

সোমবার এই বিল পাস হয়ে গিয়েছে রাজ্যসভায়। বহু বিরোধী দলও সরকারকে সমর্থন জানিয়েছে। এই বিল অনুযায়ী জম্মু ও কাশ্মীর দু'টি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে বিভক্ত হবে। একটি জম্মু ও কাশ্মীর, যার আইনসভা থাকবে। অন্যটি লাদাখ, যার কোনও আইনসভা থাকবে না।



পশ্চিমবঙ্গের খবর, কলকাতার খবর , আর রাজনীতি, ব্যবসা, প্রযুক্তি, বলিউড আর ক্রিকেটের সকল বাংলা শিরোনাম পড়তে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................