মহাবলীপুরমে বৈঠক করতে পারেন প্রধানমন্ত্রী মোদি এবং শি জিনপিং : রিপোর্ট

দ্বিপাক্ষিক সহযোগিতা দৃঢ় করার লক্ষ্যে Narendra Modi এবং চিনের প্রেসিডেন্ট Xi Jinping গত বছর চিনে বৈঠক করেন, সেটি ২০১৭ সালে ডোকলামে সমস্যার পর হয়

মহাবলীপুরমে বৈঠক করতে পারেন প্রধানমন্ত্রী মোদি এবং শি জিনপিং : রিপোর্ট

Modi-Jinping meeting: ২ য় অনানুষ্ঠানিক বৈঠকের জন্য প্রধানমন্ত্রী মোদি ও চিনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং মহাবলীপুরমে সাক্ষাৎ করতে পারেন

নয়া দিল্লি:

ফের চিনের সঙ্গে বৈঠকে বসতে চলেছে ভারত। চিনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং (Xi Jinping) আগামী সপ্তাহে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির (Narendra Modi) সঙ্গে তাঁর দ্বিতীয় অনানুষ্ঠানিক শীর্ষ সম্মেলন (Modi-Jinping meeting) করবেন, যা সম্ভবত চেন্নাইয়ের নিকটস্থ ঐতিহাসিক শহর মহাবলীপুরমে হতে চলেছে। তবে ভারত এখনও বৈঠকের তারিখ আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা করতে পারেনি। এদিকে, খবরে বলা হয়েছে, প্রধানমন্ত্রী মোদি এবং চিনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংয়ের মধ্যে শীর্ষ সম্মেলনের কয়েক দিন আগে ৮ অক্টোবর চিন নিজেদের দেশে স্বাগত জানাবে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে। প্রধানমন্ত্রী হিসাবে পাকিস্তানের দায়িত্ব গ্রহণের পর ইমরান খানের এটি তৃতীয় চিন সফর হবে বলে জানিয়েছে সংবাদ সংস্থা এএনআই। প্রেসিডেন্ট শি'র ভারত সফর এমন এক সময়ে হতে চলেছে যখন  জম্মু ও কাশ্মীরের পুনর্গঠন নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে চিন। এর পরেই পাকিস্তানের কথাতেই কাশ্মীরের বিষয়ে রুদ্ধদ্বার বৈঠক করার জন্য রাষ্ট্রসংঘের নিরাপত্তা পরিষদকে অনুরোধ করে চিন।

চিন-পাকিস্তান অবৈধ অর্থনৈতিক করিডোর প্রসঙ্গ তুলে চিনকে মোক্ষম জবাব ভারতের

এই বছরের শুরু থেকেই প্রধানমন্ত্রী মোদি এবং চিনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংয়ের মধ্যে দ্বিতীয় অনানুষ্ঠানিক শীর্ষ সম্মেলন করার জন্য ভারত ও চিন একে অপরের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে চলছিল।

গত অগাস্টেই, বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্করও দুই নেতার মধ্যে দ্বিতীয় অনানুষ্ঠানিক শীর্ষ সম্মেলনের ভিত্তি প্রস্তুত করতে চিন সফর করেন।

সন্ত্রাস দমনে প্রধানমন্ত্রী মোদির বক্তব্য পাকিস্তান-চিন সমঝোতাকে ইঙ্গিত করেছে

দুই দেশের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক সহযোগিতা দৃঢ় করার লক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রী মোদি এবং চিনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং গত বছর চিনের উহান শহরে একটি বৈঠক করেন। বৈঠকটি ২০১৭ সালে ডোকলামে সমস্যার পরে হয়েছিল, যা দুই দেশের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ককে খারাপ করেছিল। উহানে প্রধানমন্ত্রী মোদি আশা প্রকাশ করেছিলেন যে এই জাতীয় অনানুষ্ঠানিক সম্মেলন দুটি দেশের মধ্যে একটি পারস্পরিক বোঝাপড়া ও  ঐতিহ্যে পরিণত হবে।

দেখুন ভিডিও:

More News