পণের দাবিতে অত্যাচার! পুলিশের দ্বারস্থ 'চক দে ইন্ডিয়া'র অনুপ্রেরণা ক্রীড়াবিদ সুরজলতা দেবী

জাতীয় মহিলা হকি দলের প্রাক্তন অধিনায়ক ওয়াইখোম সুরজলতা দেবী গার্হস্থ্যহিংসার অভিযোগ দায়ের করেছেন। 'চক দে ইন্ডিয়া' ছবির অন্যতম অনুপ্রেরণা প্রাক্তন এই ক্রীড়াবিদ স্বামী শান্তা সিংয়ের বিরুদ্ধে পণের দাবিতে নির্যাতনের অভিযোগে সরব।

পণের দাবিতে অত্যাচার! পুলিশের দ্বারস্থ 'চক দে ইন্ডিয়া'র অনুপ্রেরণা ক্রীড়াবিদ সুরজলতা দেবী

সুরজলতা দেবী, ভারতীয় মহিলা হকি দলের প্রাক্তন অধিনায়ক, দেশকে তিনটি শোনার পদক পেতে সাহায্য করেছিলেন।

হাইলাইটস

  • সুরজলতা দেবীর নেতৃত্বে ভারতীয় হকি দল তিনটি সোনা জিতেছে
  • "আমার পদক দেখে ঠাট্টা করে বলা হতো, এগুলো কী কাজে আসবে?"
  • সংবাদ মাধ্যমের সামনে স্বামীর বিরুদ্ধে এমন অভিযোগ করেছেন ওই তারকা
ইম্ফল:

জাতীয় মহিলা হকি দলের প্রাক্তন অধিনায়ক ওয়াইখোম সুরজলতা দেবী গার্হস্থ্য হিংসার অভিযোগ দায়ের করেছেন। 'চক দে ইন্ডিয়া' ছবির অন্যতম অনুপ্রেরণা প্রাক্তন এই ক্রীড়াবিদ স্বামী শান্তা সিংয়ের বিরুদ্ধে পণের দাবিতে নির্যাতনের অভিযোগে সরব। শারীরিক ও মানসিক নিগ্রহের বিচার চেয়ে আইনের দ্বারস্থ এই মহিলা ক্রীড়াবিদ। চলতি সপ্তাহে এমন দাবি করেছে পুলিশ। ইম্ফলে এক সাংবাদিক বৈঠকে সুরজলতা বলেন, "২০০৫ সালে আমাদের বিয়ে হয়েছে। সেই থেকে পণের দাবিতে আমি নির্যাতনের শিকার। স্বামী শান্তা সিং আমার পদক আর শংসাপত্র নিয়ে হাসাহাসি করতেন। এগুলো দিয়ে কী হবে? এমন প্রশ্নও অনেকবার আমাকে করেছেন।" জানা গিয়েছে, ২০০২ কমনওয়েলথ গেমস, ২০০৩ আফ্রো-এশিয়ান গেমস আর ২০০৪-এর এশিয়া কাপে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন সুরজলতা দেবী। এই তিনটি প্রতিযোগিতা থেকেই স্বর্ণপদক ঘরে তুলেছিল ভারত।

পুনম-শিখার বলের দাপটে অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়ে বিশ্বকাপ শুরু ভারতের মেয়েদের

শাহরুখ খান অভিনীত বলিউড ছবি চক দে ইন্ডিয়ার অন্যতম অনুপ্রেরণা এই প্রাক্তন হকি খেলোয়াড়। এমনকি, অর্জুন পুরস্কার নিয়েও স্বামীর কাছে কটাক্ষ শুনেছেন সুরজলতা দেবী, অভিযোগ করেছেন তিনি। তিনি বলেন, "এতদিন চুপ ছিলাম কারণ ভেবেছিলাম শান্তার আচরণ বদলাবে। কোনওদিন বিষয়টা প্রকাশ্যে আনতে চাইনি। কিন্তু ধৈর্য ও সহ্যর একটা সীমা আছে।" 

বৃষ্টিতে খেলা হল না পুরো ওভার, প্রথম দিনের শেষে ব্যাট হাতে চাপে ভারত

হঠাৎ এতদিন পর তাহলে মুখ খোলা কেন? সাংবাদিকদের এই প্রশ্নের জবাবে ওই ক্রীড়াবিদ বলেছেন, ২০১৯-এ পঞ্জাবের কাপুরথালায় মদ্যপ অবস্থায় আমাকে শারীরিক নিগ্রহ করেন শান্তা। সেই সময় ভারতীয় রেলের একটা প্রতিযোগিতা নিয়ে আমি ব্যস্ত ছিলাম। রবিবার সুলতানপুর লোধির ডিএসপি সারওয়ান সিং বলেছেন, ৪৯৮-এ-সহ ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় শান্তা সিংয়ের বিরুদ্ধে মামলা রুজু হয়েছে। মণিপুর পুলিশের অধীনে দায়ের করা সেই অভিযোগ পাঠানো হয়েছে সুলতানপুর লোধিতে, জানিয়েছেন ওই ডিএসপি। 

Listen to the latest songs, only on JioSaavn.com