দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র নির্বাচন: তিনটিতে জয়ী এবিভিপি, এনএসইউআই ১

DUSU Election Results: নির্বাচনে চারটি আসনের মধ্যে আরএসএস-এর ছাত্র সংগঠন অখিল ভারতীয় বিদ্যার্থী পরিষদ বা এবিভিপি জিতেছে তিনটি আসনে।

দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র নির্বাচন: তিনটিতে জয়ী এবিভিপি, এনএসইউআই ১

DUSU Election Results: নির্বাচনে অখিল ভারতীয় বিদ্যার্থী পরিষদ বা এবিভিপি জিতেছে তিনটি আসনে।

নয়াদিল্লি:

দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র সংগঠনের (DUSU) নির্বাচনের ফলাফল (DUSU Election Results) শুক্রবার ঘোষিত হল। নির্বাচনে চারটি আসনের মধ্যে আরএসএস-এর ছাত্র সংগঠন অখিল ভারতীয় বিদ্যার্থী পরিষদ বা এবিভিপি জিতেছে তিনটি আসনে। একটি পেয়েছে কংগ্রেসের এনএসইউআই। উত্তর-পশ্চিম দিল্লির কিংসওয়ে ক্যাম্পে পুলিশ লাইনসের কমিউনিটি হলে গণনা সম্পন্ন হয়। ১৬ জন প্রার্থী চারটি আসনের জন্য প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন নির্বাচনে। এই চারটি পদ হল সভাপতি, সহ সভাপতি, সম্পাদক ও যুগ্ম সম্পাদক। সভাপতির পদে এবিভিপির হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন অক্ষিত দাহিয়া। সহ সভাপতির পদে দাঁড়িয়েছিলেন প্রদীপ তনওয়ার। সম্পাদক ও যুগ্ম সম্পাদক পদে লড়ছেন যথাক্রমে যোগিত রাথি ও শিবাঙ্গি খারওয়াল। এঁদের মধ্যে যোগিত রাথি ছাড়া বাকিরা জয়ী হয়েছেন।

এদিকে কংগ্রেসের ছাত্র সংগঠন এনএসইউআই-এর হয়ে সভাপতির পদে দাঁড়িয়েছিলেন চেতনা ত্যাগী। সহ সভাপতি, সম্পাদক ও যুগ্ম সম্পাদকের পদে দাঁড়িয়েছিলেন অঙ্গিত ভারতী, আশিস লাম্বা ও অভিষেক চাপরানা। তাঁদের মধ্যে সম্পাদকের আসনের জয় লড়াই করা আশিস লাম্বা জয়লাভ করেছেন।

অক্ষিত দাহিয়া জিতেছেন ১৯,০০০ ভোটে। প্রদীপ তানওয়ার ও শিবাঙ্গী খারওয়াল জিতেছেন যথাক্রমে ৮,০০০ ও ৩,০০০ ভোটে।

এনএসইউআই-এর হয়ে সম্পাদকের আসনে জয়ী আশিস লাম্বা জয়লাভ করেছেন ২,০০০ ভোটে।

গত বছরও এবিভিপি তিনটি আসনে জয়ী হয়েছিলেন। এনএসইউআই জিতেছিল একটি আসনে।

১.৩ লক্ষ পড়ুয়ার মধ্যে প্রায় ৪০ শতাংশ গত বৃহস্পতিবার নির্বাচনে ভোট দিয়েছেন। সকাল সাড়ে আটটা থেকে গণনা শুরুর কথা ছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত প্রায় দু'ঘণ্টা দেরিতে গণনা শুরু হয়। প্রার্থীরা গণনা কেন্দ্রে দেরিতে পৌঁছনোর কারণেই গণনা শুরু হতে দেরি হয় বলে এক আধিকারিক জানিয়েছেন।

শেষ পর্যন্ত সকাল ১০.৩০ নাগাদ গণনা শুরু হয়।

গত বছর মোট ভোটের ৩০ শতাংশ নোটায় পড়েছিল।