উত্তরপ্রদেশে মিলল অসংখ্য বাদুড়ের মৃতদেহ, ছড়াল আতঙ্ক

বাদুড়দের মৃতদেহগুলি পরীক্ষার জন্য পাঠান‌ো হয়েছে। প্রাথমিক ভাবে মনে করা হচ্ছে অত্যধিক গরম ও জলের অভাবে তাদের মৃত্যু হয়েছে।

উত্তরপ্রদেশে মিলল অসংখ্য বাদুড়ের মৃতদেহ, ছড়াল আতঙ্ক

উত্তরপ্রদেশে গাছ থেকে ঝুলতে দেখা গেল মৃত বাদুড়দের। (প্রতীকী)

গোরক্ষপুর:

উত্তরপ্রদেশের (Uttar Pradesh) গোরক্ষপুরের বেলঘাট এলাকায় বিপুল সংখ্যক বাদুড়ের মৃত্যুকে (Dead Bats Found In UP) কেন্দ্র করে এলাকার বাসিন্দাদের মধ্যে আতঙ্ক দেখা গিয়েছে। গ্রামবাসীদের ধারণা, করোনা ভাইরাসের (Coronavirus) সংক্রমণের সঙ্গে হয়তো বাদুড়গুলির মৃত্যুর যোগ রয়েছে। কিন্তু বন বিভাগের কর্মীরা জানাচ্ছেন, প্রাথমিক ভাবে মনে করা হচ্ছে বাদুড়গুলি মারা গিয়েছে অত্যধিক গরমের প্রকোপে। বাদুড়গুল‌ির মৃতদেহ ‘ইন্ডিয়ান ভেটেরিনারি রিসার্চ ইনস্টিটিউট'-এ পাঠানো হয়েছে পরীক্ষার জন্য। ওই পরীক্ষার ফলাফল থেকেই তাদের মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে বলে জানানো হয়েছে।

বেলঘাটের বাসিন্দা পঙ্কজ শাহি জানাচ্ছেন, ‘‘আজ সকালে আমি দেখতে পেয়েছিলাম আমার ফলের বাগানে একটা আমগাছে সারি সারি বাদুড়ের মৃতদেহ ঝুলছে!'' তিনি জানান মৃত বাদুড়ের পাশাপাশি আরও বেশ কিছু বাদুড়কে মরণাপন্ন অবস্থায় দেখতে পান তিনি এবং তাঁর পাশের আর এক ফলের বাগানের মা‌লির ধ্রুবনারায়ণ শাহি। তাঁরাই বন বিভাগকে খবর দেন। বন বিভাগের কর্মীরা এসে মৃতদেহগুলি নিয়ে যান। পাশাপাশি তাঁরা বাদুড়দের জন্য পাত্রে জল রাখারও আর্জি জানান। তাঁরা জানান, অত্যধিক গরমেই মারা গিয়েছে বাদুড়গুলি।

বন বিভাগের তরফে দেবেন্দ্র কুমার জানাচ্ছেন, ‘‘বাদুড়দের মৃতদেহগুলি পরীক্ষার জন্য পাঠান‌ো হয়েছে। প্রাথমিক ভাবে মনে করা হচ্ছে অত্যধিক গরম ও জলের অভাবে তাদের মৃত্যু হয়েছে। এলাকার সব পুকুর ও জলাশয়গুলি শুকিয়ে গিয়েছে। তাই তারা জল পায়নি।''

উত্তর ভারতে গত কয়েকদিনে গরম আরও বেড়েছে। তাপমাত্রা ছুঁয়েছে ৪৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

বনবিভাগের আধিকারিক অবিনাশ কুমার জানিয়েছেন, মৃতদেহ পরীক্ষার রিপোর্ট পাওয়া গেলে বাদুড়দের মৃত্যুর কারণ সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়া যাবে।



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদনা করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে।)