ফুঁসছে ফেনি, ক্ষয়ক্ষতি এড়াতে ৪৩টি ট্রেন বাতিল করল দক্ষিণ পূর্ব রেল

ঘূর্ণিঝড় ফেনি (Cyclone Fani) আরও শক্তিশালী হওয়ার পর আবহাওয়া দপ্তরের তরফে রেলকে কয়েকটি সুপারিশ দেওয়া হয়েছিল

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS
ফুঁসছে ফেনি, ক্ষয়ক্ষতি এড়াতে  ৪৩টি ট্রেন বাতিল করল দক্ষিণ পূর্ব রেল

Cyclone Fani: ট্রেন লাইনের ক্ষয়ক্ষতি দ্রুত মেরামত করে দেওয়ার জন্য ব্যবস্থা নিয়েছে রেল।


কলকাতা: 

হাইলাইটস

  1. আবহাওয়া দপ্তরের তরফে রেলকে কয়েকটি সুপারিশ দেওয়া হয়েছিল
  2. পুরী এবং দক্ষিণ ভারতের দিকে যাওয়া কিছু ট্রেন বাতিল করা হচ্ছে
  3. এ পর্যন্ত মোট ৪৩টি ট্রেন বাতিল করা হয়েছে বলে হাওড়া সূত্রে খবর

ঘূর্ণিঝড় ফেনি (Cyclone Fani) আরও শক্তিশালী হওয়ার পর আবহাওয়া দপ্তরের তরফে রেলকে কয়েকটি সুপারিশ দেওয়া হয়েছিল। বলা হয়েছিল পরিস্থিতি যেদিকে যাচ্ছে তাতে ট্রেন চলাচলের উপরে কিছু বিধিনিষেধ আরোপ করা জরুরি। এবার সেটাই হল। দক্ষিণ পূর্ব রেলওয়ে (South Eastern Railway) বুধবার রাতে জানিয়ে দিল আগামী কয়েক দিন পুরী এবং দক্ষিণ ভারতের দিকে যাওয়া কিছু ট্রেন বাতিল করা হচ্ছে। এ পর্যন্ত মোট ৪৩টি ট্রেন বাতিল করা হয়েছে। এর মধ্যে ১৭টি ট্রেনের গন্তব্য ছিল  পুরী (Puri) এবং দক্ষিণ ভারতের বিভিন্ন জায়গা। এছাড়া দক্ষিণ ভারত থেকে ছাড়া আরও ২৬টি ট্রেন বাতিলের সিদ্ধান্ত হয়েছে।

আংশিক হলেও ফেনির প্রভাব পড়বে রাজ্যে, তৈরি নবান্ন

এর পাশাপাশি ঘূর্ণিঝড়ের ফলে ট্রেন লাইনের ক্ষয়ক্ষতি যাতে দ্রুত মেরামত করে দেওয়া যায় তার জন্য বিশেষ নজরদারির ব্যবস্থা করা হয়েছে বলে  দক্ষিণ পূর্ব রেল সূত্রে খবর। তাছাড়া কোনও জায়গায় যদি রিলিফ ট্রেন পাঠাতে হয় সে ব্যবস্থাও সেরা রাখা হয়েছে রেলের তরফে। ভদ্রক ভুবনেশ্বর এবং পুরী- এই কয়েকটি জায়গায় ট্রেন চলাচল যাতে সম্পূর্ণভাবে বন্ধ করা যায় তা নিশ্চিত করতে চাইছে  রেল। 

ঘূর্ণিঝড় ফেনির মোকাবিলা করতে প্রস্তুত নৌ বাহিনী

পাশাপাশি বিশাখাপত্তনমের উপরও নজরদারি থাকছে। এদিকে ফেনি ওড়িশা উপকূলে আছড়ে পড়লেও তার কিছুটা প্রভাব এসে পড়বে পশ্চিমবঙ্গে আবহাওয়া দপ্তর মনে করছে ওড়িশায় আছড়ে পড়ার পর গতি হারালেও ঘূর্ণিঝড়ের অভিমুখ হতে পারে পশ্চিমবঙ্গ সে ক্ষেত্রে রাজ্যের উপকূল এলাকায় কিছুটা ক্ষয়ক্ষতি সম্ভাবনা আছে আর তাই সমস্ত রকম ব্যবস্থা নিয়ে রাজ্য প্রশাসন ইতিমধ্যেই আবহাওয়া দপ্তর এর সঙ্গে যোগাযোগ করে কি ধরনের বিপর্যয় হতে পারে তার খুঁটিনাটি জেনে নিয়েছে নবান্ন তাছাড়া প্রশাসনিক মহলেও একাধিক বৈঠক হয়েছে, মুখ্যমন্ত্রী নিজে গোটা বিষয়টির ওপর নজর রাখছেন শুধু তাই নয় এর জন্য ২৩৫ কোটি টাকা বরাদ্দ করেছে কেন্দ্রীয় সরকার, সব রকম পরিস্থিতির ওপর নজর রাখা হচ্ছে ইতিমধ্যেই এ সপ্তাহের শেষের দিকে মুখ্যমন্ত্রী যে সমস্ত নির্বাচনী জনসভা ছিল সেগুলি সময় অদল বদল করা হয়েছে এবং ওই সময় যদি বৃষ্টি হয় তাহলে তার ফের বদলে দেওয়া হতে পারে বলে প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে।



পশ্চিমবঙ্গের খবর, কলকাতার খবর , আর রাজনীতি, ব্যবসা, প্রযুক্তি, বলিউড আর ক্রিকেটের সকল বাংলা শিরোনাম পড়তে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................