কলকাতায় ১০০ কিমি'র ওপরে থাকবে ঝড়ের বেগ, নিরাপদে ঘরে থাকুন: হাওয়া অফিস

নিরাপদ থাকতে নাগরিকদের বাড়ি থাকতে পরামর্শ দিয়েছে প্রশাসন। খোলা জায়গা, বিদ্যুতের খুঁটি, জীর্ণ নির্মাণ এড়িয়ে চলার আবেদন করা হয়েছে

কলকাতায় ১০০ কিমি'র ওপরে থাকবে ঝড়ের বেগ, নিরাপদে ঘরে থাকুন: হাওয়া অফিস

বুধবার বিকেল সাড়ে ৪টের পর পশ্চিমবঙ্গের স্থলভূমিতে প্রবেশ করে ঘূর্ণিঝড় আমফান। ঘণ্টায় ৯০-১০০ কিমি বেগে ঝড়ের পাশাপাশি ছিল প্রবল বৃষ্টি

কলকাতা:

প্রায় ১০০-১২০ কিমি বেগে বুধবার বিকেলে কলকাতায় আছড়ে পড়ে সাইক্লোন আমফান (Cyclone Amphan in Bengal)। পশ্চিমবঙ্গের উপকূলবর্তী এলাকা থেকে ৫ লক্ষ মানুষকে নিরাপদে সরানো হয়েছে। ওড়িশার প্রায় এক লক্ষ মানুষকে সরানো হয়েছে নিকটবর্তী আশ্রয় শিবিরে। বুধবার জানিয়েছেন, এনডিআরএফ (NDRF) কর্তা। এদিন সাংবাদিক বৈঠক করে এনডিআরএফ, আলিপুর আবহাওয়া দফতর ও স্বাস্থ্যমন্ত্রকের কর্তারা। সেই বৈঠকে এই তথ্য দেওয়া হয়েছে। এদিন কলকাতা (Kolkata-Howrah) ও পার্শ্ববর্তী হাওড়াতে প্রায় ৯০-১০০ কিমি বেগে ঝড়ো হাওয়া বয়েছে। গঙ্গার ওপর কালো মেঘের আস্তরণ ধরা পড়েছিল অনেক নাগরিকের ক্যামেরায়। সবচেয়ে ভয়ঙ্কর প্রভাব ফেলেছে দিঘাতে। প্রায় ১৪৫-১৫০ কিমি বেগে ঝড়ো হাওয়া আর টাল মিলিয়ে বৃষ্টিতে বিপর্যস্ত রাজ্যের উপকূলবর্তী এই শহর।

ঘূর্ণিঝড় আমফানের প্রকোপে প্রথম মৃত্যু বাংলাদেশে

লকডাউন ৪-এর আবহে এই সাইক্লোন বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর কাজ আরও প্রতিবন্ধক করে দিয়েছে। মঙ্গলবার সন্ধ্যা থেকে হালকা -মাঝারি বৃষ্টিপাত পরিলক্ষিত হয়েছে কলকাতায়। আবহাওয়া দফতরের দাবি ছিল, সাগরদ্বীপ আর বাংলাদেশের হাতিয়া দ্বীপের মাঝে আছড়ে পড়বে এই সাইক্লোন। এরপর দুই মেদিনীপুর কলকাতা উত্তর, উত্তর-পূর্ব, দুই ২৪ পরগনা, নদীয়া হয়ে উত্তর-পশ্চিম বাংলাদেশে প্রবেশ করবে। জানা গিয়েছে, গোটা যাত্রাপথে দুই ২৪ পরগনা এলাকায়া এর গতিবেগ ১৫৫-১৮৫ কিমি/ঘণ্টা আর ১১০-১২০ কিমি/ঘণ্টা কলকাতায় ঝড়ো হাওয়া বইবে। 

বোর্ড পরীক্ষার জন্য শিথিল করা হবে লকডাউনের নিষেধাজ্ঞা: অমিত শাহ

তাই নিরাপদ থাকতে নাগরিকদের বাড়ি থাকতে পরামর্শ দিয়েছে প্রশাসন। খোলা জায়গা, বিদ্যুতের খুঁটি, জীর্ণ নির্মাণ এড়িয়ে চলার আবেদন করা হয়েছে।