This Article is From Jun 24, 2020

২৪ ঘণ্টায় আরও ১৫,৯৬৮ জন আক্রান্ত করোনা ভাইরাসে, ৪৬৫ জনের মৃত্যু

Coronavirus India: এখনও পর্যন্ত দেশে মোট ৪,৫৬,১৮৩ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে এবং ১৪,৪৭৬ জনের প্রাণ গেছে এই অসুখে

২৪ ঘণ্টায় আরও ১৫,৯৬৮ জন আক্রান্ত করোনা ভাইরাসে, ৪৬৫ জনের মৃত্যু

Coronavirus India: ভারতে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের মোট সংখ্যা ৪.৫৬ লক্ষ ছাড়াল

হাইলাইটস

  • সারা দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলেছে
  • সব মিলিয়ে দেশে করোনা আক্রান্ত ৪,৫৬,১৮৩ জন
  • তবে দেশের জনসংখ্যার হিসাবে মৃত্যুর পরিমাণ অনেকটাই কম ভারতে
নয়া দিল্লি:

গোটা বিশ্ব এখন ভুগছে একটিই অসুখে, রাজা থেকে ফকির, প্রায় সকলকেই কাবু করেছে একটিই ভাইরাস, করোনা। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক বুধবার সকালে যে পরিসংখ্যান তুলে ধরেছে তাতে দেখা যাচ্ছে যে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে আরও ১৫,৯৬৮ জন আক্রান্ত হয়েছে করোনা ভাইরাসে (Coronavirus India), ৪৬৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। অর্থাৎ, ক্রমেই তার অসুখের রাজত্ব বিস্তার করছে কোভিড- ১৯। প্রতিদিনই সংক্রমণের এক নতুন রেকর্ড গড়ছে এই মারণ ভাইরাস (Coronavirus Cases)। এখনও পর্যন্ত দেশে মোট ৪,৫৬,১৮৩ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে এবং ১৪,৪৭৬ জনের প্রাণ গেছে এই অসুখে। তবে ঘুরে দাঁড়ানোর সবরকম চেষ্টা করছেন দেশের চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীরা। তাঁদের নিরলস সেবায় এখনও পর্যন্ত প্রায় ২.৫৮ লক্ষ রোগী সুস্থ হয়েছেন। বুধবার সকালে করোনা ভাইরাস থেকে পুনরুদ্ধারের হার বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৫৬.৭ শতাংশে।

কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়ে প্রয়াত তৃণমূল বিধায়ক তমোনাশ ঘোষ! শোক প্রকাশ মুখ্যমন্ত্রীর

মঙ্গলবার দেশ জুড়ে মোট ২,১৫,১৯৫ টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে, যা একদিনের হিসাবে এখনও পর্যন্ত সর্বাধিক।করোনা ভাইরাস মহামারী রূপে দেখা দেওয়ার পর থেকে ভারতে মোট ৭৩,৫২,৯১১ টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। দেশের গড় করোনা পজিটিভের হার বেড়ে সোমবার সকালে ৭.৪২ শতাংশে এসে দাঁড়িয়েছে।

মস্কোয় চিনের প্রতিরক্ষামন্ত্রীর সঙ্গে রাজনাথ সিংয়ের বৈঠকের কোনও সম্ভাবনাই নেই

ভারতের মধ্যে সবচেয়ে বেশি করোনা আক্রান্ত হয়েছে মহারাষ্ট্রের মানুষ। এখনও পর্যন্ত এই রাজ্যে ১.৩৯ লক্ষ মানুষের শরীরে মারণ ভাইরাস বাসা বেঁধেছে। শুধু মঙ্গলবারই মহারাষ্ট্রে ২৩৮ জন রোগী মারা গেছে। এর ফলে সেরাজ্যে করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৬,৫৩১ এ পৌঁছেছে।

এদিকে দিল্লিতে ক্রমশই সংক্রমণ বাড়ছে। মঙ্গলবার দেখা গেছে দেশের রাজধানীতে গত ২৪ ঘণ্টার মধ্যে প্রায় ৪,০০০ মানুষ নতুন করে সংক্রমিত হয়েছে। ফলে সেখানে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ৬৬,৬০২ এ পৌঁছেছে।

তবে এখনও পর্যন্ত ভারতের মোট জনসংখ্যার হিসাবে করোনায় মৃত্যুর হার বিশ্বের মধ্যে সবচেয়ে কম। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক জানিয়েছে, ভারতে প্রতি ১ লক্ষ জনসংখ্যায় একজন করে মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে। তবে বুধবারই করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু ঘটেছে তৃণমূল কংগ্রেসের বিধায়ক তমোনাশ ঘোষের। ৬০ বছর বয়সী ওই রাজনৈতিক নেতার শরীরে গত মাসেই করোনা পজিটিভ ধরা পড়ে। তারপর থেকেই চিকিৎসা চলছিল তাঁর। 

তমোনাশ ঘোষের প্রয়াণে টুইট করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি লেখেন, “খুবই, খুবই দুঃখের বিষয়। ১৯৯৯ সাল থেকে ফলতার তিনবারের বিধায়ক ও দলের কোষাধ্যক্ষ তমোনাশ ঘোষ আজ আমাদের ছেড়ে চলে গিয়েছেন। ৩৫ বছরেরও বেশি সময় ধরে তিনি জনগণ ও আমাদের দলের জন্যে নিবেদিত প্রাণ ছিলেন। বিভিন্ন সমাজসেবা মূলক কাজের মাধ্যমেও অনেক অবদান রেখে গেছেন তিনি”।