This Article is From Apr 29, 2020

বেতনের দাবিতে বিক্ষোভ! শ্রমিকদের হাতে আক্রান্ত নির্মাণ সংস্থা-সহ পুলিশ

ইতিমধ্যে, রাজ্য সরকার সূত্রে বলা হয়েছে; লকডাউন চলাকালীন চুক্তির ভিত্তিতে নিয়োগ করা শ্রমিকদের মার্চ আর এপ্রিলের বেতন দিয়ে যেতে হবে

আইআইটি-হায়দরাবাদের সামনে এক নির্মাণক্ষেত্রের শ্রমিকরা গ্রামে ফিরতে চেয়ে আন্দোলন শুরু করেন।

হায়দরাবাদ:

বেতন মিটিয়ে গ্রামে ফিরতে দিন। পরিযায়ী শ্রমিকদের এই দাবি ঘিরে চলা আন্দোলনে (Hyderabad) হিংসা ছড়াল হায়দরাবাদে। আইআইটি-হায়দরাবাদের (IIT-Hyderabad) কাছে এক নির্মাণ ক্ষেত্রের প্রায় শতাধিক পরিযায়ী শ্রমিক এই দুই দাবিতে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন। সেই বিক্ষোভ থেকে ছড়িয়ে পড়া হিংসায় এক পুলিশকর্মী আহত। বুধবার জানিয়েছে হায়দরাবাদ পুলিশের একটি সূত্র। জনা গিয়েছে, বিক্ষোভরত শ্রমিকরা সেই নির্মাণ কাজের সঙ্গে জড়িত আধিকারিকদের ওপর হামলা চালিয়েছে এবং পুলিশের গাড়ি লক্ষ্য করে পাথর ছোঁড়ার পাশাপাশি ভাঙচুর চালানো হয়েছে।সেই নির্মাণ ক্ষেত্রে কাজ করা প্রায় ২৬০০ শ্রমিকের অভিযোগ, "গত  দু'মাস সরে কাজ বন্ধ থাকায় বেতন পাচ্ছেন না তাঁরা।" জানা গিয়েছে, ওই শ্রমিকদের বেশিরভাগ বিহার আর মধ্যপ্রদেশের বাসিন্দা। তাঁদের থাকা-খাওয়ার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা করেছে জেলা প্রশাসন।

ইতিমধ্যে, রাজ্য সরকার সূত্রে বলা হয়েছে; লকডাউন চলাকালীন চুক্তির ভিত্তিতে নিয়োগ করা শ্রমিকদের মার্চ আর এপ্রিলের বেতন দিয়ে যেতে হবে। দীর্ঘ প্রায় দেড় মাস নির্মাণ শিল্পে কাজ বন্ধ ছিল। ২০ এপ্রিল থেকে শর্তস্বাপেক্ষে কাজ শুরু করতে অনুমতি দিয়েছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক। 

jh6d2nrsপ্রতিবাদী শ্রমিকদের আক্রমণে ক্ষতিগ্রস্ত পুলিশের গাড়ি। 

এই ঘটনায় একজন পুলিশকর্মী আহত হলেও, এখনও মানবিক ভাবে এই আন্দোলন বন্ধ করতে উদ্যোগ নিয়েছে হায়দরাবাদ পুলিশ। শ্রমিকদের উদ্দেশে পুলিশের আবেদন, "প্রশাসন আপনাদের গ্রামে ফিরতে দিলেও, আপনাদের রাজ্য এখনই আপনাদের স্বাগত জানাবে না।" পাশাপাশি ওই নির্মাণ সংস্থা আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ঝুলে থাকা বেতন পরিশোধের প্রতিশ্রুতি দিলে তুলে নেওয়া হয় বিক্ষোভ।