বোর্ড পরীক্ষার জন্য শিথিল করা হবে লকডাউনের নিষেধাজ্ঞা: অমিত শাহ

পরীক্ষার্থীদের সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা, হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবহার করা ও মাস্ক পরার মতো সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে। জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

বোর্ড পরীক্ষার জন্য শিথিল করা হবে লকডাউনের নিষেধাজ্ঞা: অমিত শাহ

বুধবার টুইট করে এবিষয়ে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।

নয়াদিল্লি:

দশম ও দ্বাদশ শ্রেণির পরীক্ষাকে ছাড় দেওয়া হয়েছে লকডাউনের নিষেধাজ্ঞা থেকে। এই পরীক্ষাগুলি নেওয়া যাবে। বুধবার এমনটাই জানালেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। তিনি জানিয়েছেন, পরীক্ষার জন্য বিশেষ বাসের ব্যবস্থা করবে সংশ্লিষ্ট রাজ্য সরকার। তিনি টুইট করে জানান, ‘‘বিরাট সংখ্যক পড়ুয়াদের পঠনপাঠনের পরিস্থিতির দিকে তাকিয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে, দশম ও দ্বাদশ শ্রেণির বোর্ড পরীক্ষাকে লকডাউনের নিষেধাজ্ঞার বাইরে রাখার।'' তবে পরীক্ষার্থী ও বাকিদের বেশ কিছু শর্ত মেনে চলার কথাও জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা, হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবহার করা ও মাস্ক পরার মতো সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে সবাইকে। এটা বাধ্যতামূলক। পরীক্ষা কেন্দ্রে পৌঁছনো ও ফেরার বাসের ব্যবস্থা করতে হবে সংশ্লিষ্ট রাজ্য সরকারকে।

নিজের টুইটের সঙ্গে একটি চিঠিও সংযুক্ত করে দিয়েছেন অমিত শাহ। সেই চিঠিটি লিখেছেন স্বরাষ্ট্র সচিব অজয় ভাল্লা। চিঠিটি তিনি লিখেছেন সমস্ত রাজ্যের মুখ্য সচিবদের। পাশাপাশি বলা হয়েছে, পরীক্ষা কেন্দ্রে সকলের স্ক্রিনিং বাধ্যতামূলক। পাশাপাশি সরকার জানিয়ে দিয়েছে, কনটেনমেন্ট জোনে কোনও পরীক্ষাকেন্দ্রের অনুমতি দেওয়া হবে না।
 

গত সোমবার সিবিএসই-র তরফে জানানো হয়, দু'টি ক্লাসের অবশিষ্ট ২৯টি পরীক্ষা ১ জুলাই থেকে ১৫ জুলাইয়ের মধ্যে সংগঠিত হবে।

পরীক্ষার ফলাফল ঘোষিত হবে আগস্ট মাসে।

দশম শ্রেণির ছ'টি ও দ্বাদশ শ্রেণির ১২টি পরীক্ষা দেশব্যাপী লকডাউনের ফলে স্থগিত হয়ে গিয়েছিল। পাশাপাশি ফেব্রুয়ারিতে দিল্লির একাংশে হিংসার কারণেও কিছু কিছু স্থানে দশম শ্রেণির পরীক্ষা নেওয়া সম্ভব হয়নি।

তবে পরীক্ষার কথা বলা হলেও এখনই সাধারণ ক্লাসের জন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার কথা বলা হয়নি।

(তথ্যসূত্র: পিটিআই)