লকডাউনে "ভারতের মানুষের একজোট" হওয়ার শক্তি প্রত্যক্ষ করা গেছে: প্রধানমন্ত্রী

Coronavirus: লকডাউনের মেয়াদ বৃদ্ধি নিয়ে ঘোষণা করতে মঙ্গলবার জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, আপাতত ৩ মে পর্যন্ত থাকছে লকডাউন

লকডাউনে

India COVID-19 Cases: গত মাসেই প্রথম দেশ জুড়ে লকডাউন জারির ঘোষণা করেন প্রধানমন্ত্রী মোদি

হাইলাইটস

  • লকডাউনে যেভাবে দেশের মানুষ জোটবদ্ধ হয়ে লড়াই করছেন তার তারিফ করেন মোদি
  • দেশে আগামী ৩ মে পর্যন্ত লকডাউন জারির ঘোষণা করেন তিনি
  • অর্থনৈতিক ক্ষয়ক্ষতির ভাবনা পরে, আগে মানুষের জীবন, বলেন নরেন্দ্র মোদি
নয়া দিল্লি: দেশের মানুষ যেভাবে একসঙ্গে করোনা ভাইরাসের (Coronavirus) বিরুদ্ধে লড়ছেন তার জন্যে সকলকে ধন্যবাদ জানালেন প্রধানমন্ত্রী মোদি। মঙ্গলবার সকাল ১০ টায় জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেন তিনি (PM Modi)। করোনা সংক্রমণ যেভাবে বাড়ছে তাতে লকডাউনের মেয়াদ বাড়ানো ছাড়া উপায় নেই, স্পষ্ট জানান নরেন্দ্র মোদি। আগামী ৩ মে পর্যন্ত দেশে লকডাউন থাকবে বলেই ঘোষণা করেন তিনি। পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রী একথাও বলেন যে, আগামী ২০ এপ্রিল পর্যন্ত সব রাজ্যের করোনা পরিস্থিতির দিকে সজাগ দৃষ্টি রাখা হবে, যদি দেখা যায় কিছু অঞ্চলে সংক্রমণ বৃদ্ধির হার কম তবে কিছু কিছু ক্ষেত্রে ধীরে ধীরে ছাড় দেওয়া হবে। এদিকে দেশে দেখতে দেখতে করোনা ভাইরাসে (COVID-19) আক্রান্তের সংখ্যা ১০,০০০ পেরিয়ে গেল। এখনও পর্যন্ত ভারতে ওই মারণ ভাইরাস ৩৩৯ জনের প্রাণ কেড়েছে। প্রতিদিনই আক্রান্ত হচ্ছেন আরও মানুষ। শুধুমাত্র গত ২৪ ঘণ্টাতেই এদেশে ৩১ জনের মৃত্যু হয়েছে এবং ১,২১১ জনের শরীরে নতুন করে বাসা বেঁধেছে COVID- 19। 

আসুন একবার এক নজরে দেখে নিন প্রধানমন্ত্রীর ১০ টি গুরুত্বপূর্ণ বার্তা:

  1. প্রধানমন্ত্রী মোদি বলেন, লকডাউন চলাকালীন দেশ "উই দ্য পিপল অফ ইন্ডিয়া"-র শক্তি দেখেছে

  2. আপনারা জাতিকে বাঁচাতে সাহায্য করেছেন। আপনারা যে সমস্ত চ্যালেঞ্জগুলোর মুখোমুখি হয়েছেন সে সম্পর্কে আমি সচেতন: করোনা ভাইরাস জনিত পরিস্থিতিতে বললেন প্রধানমন্ত্রী

  3. প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বলেন, আপনারা কেউ বাড়ি থেকে দূরে রয়েছেন, অনেকেরই খাবার, প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র পেতে অসুবিধে হচ্ছে। আমি আপনাদের সকলকে প্রণাম জানাই।

  4. জনগণ সমস্যার মুখোমুখি হয়েও ঘুরে দাঁড়িয়ে দেশকে বাঁচিয়েছে, করোনা ভাইরাসের সম্পর্কে প্রধানমন্ত্রী একথা বলেন

  5. ৩ মে পর্যন্ত লকডাউন বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে: প্রধানমন্ত্রী মোদি

  6. করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে ভারত প্রবলভাবে লড়াই চালাচ্ছে, জাতির উদ্দেশে ভাষণে একথা বলেন প্রধানমন্ত্রী

  7. অনেক উন্নত দেশের তুলনায়, ভারত সামগ্রিকভাবে এবং অত্যন্ত দ্রুত করোনা পরিস্থিতিকে সামলাতে সিদ্ধান্ত নিয়েছে, সেই কারণেই তুলনায় অনেক ভাল অবস্থানে রয়েছে দেশ: করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের হার নিয়ে বলেন প্রধানমন্ত্রী

  8. প্রধানমন্ত্রী বলেন ভারতে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা যখন ৫৫০ ছিল তখনই ওই ভাইরাসের বিস্তার রোধ করতে ২১ দিনের লকডাউন জারি করা হয়

  9. সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখায় এবং লকডাউন মেনে চলায় ভারতের পক্ষে এই সংক্রমণের সংখ্য়া বশে রাখা অনেকটাই সম্ভব হয়েছে: করোনা ভাইরাস নিয়ে বলেন প্রধানমন্ত্রী

  10. এই লকডাউনের জেরে ভারতকে হয়তো ভবিষ্যতে বড়সড় অর্থনৈতিক মূল্য চোকাতে হতে পারে, কিন্তু এই মুহূর্তে মানুষের জীবন বাঁচানোর থেকে বড় কোনও বিকল্প হতে পারে না: লকডাউন প্রসঙ্গে বলেন প্রধানমন্ত্রী